ঢাকা, বুধবার, ১৮ জুলাই, ২০১৮ ১৬:৪১:৩৫

Ekushey Television Ltd.

‘অপশক্তির উত্থানরোধে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় ফিরতে হবে’

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১২:০৯ এএম, ৯ মে ২০১৮ বুধবার

বাঙালি সংস্কৃতি চর্চায় মুক্তিযুদ্ধের ভূমিকা থাকবে এটাই স্বাভাবিক কিন্তু অপ্রিয় হলেও সত্য যে, ইতিহাস বিকৃতি, বৈদেশিক সাংস্কৃতিক আগ্রাসন,মৌলবাদ, মাদক-সন্ত্রাসের উত্থানের কারণে আমাদের মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও সঠিক ইতিহাস থেকে নতুন প্রজন্ম ক্রমশ দূরে চলে বলে মন্তব্য করেছেন অর্থ প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান। 

মঙ্গলবার, বিকেল ৫টায় রাজধানীর জাতীয় জাদুঘরের সুফিয়া কামাল অডিটোরিয়ামে মুনতাসির মিডিয়া এবং দৈনিক গণমুক্তির উদ্যেগে ‘সংস্কৃতি চর্চায় মুক্তিযুদ্বের চেতনা’ শীর্ষক আলোচনা, মুক্তিযোদ্বা ও সংস্কৃতিকর্মীদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে তিনি এ সব কথা বলেন।  

তিনি বলেন, ‘মহান মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে আমরা স্বাধীনতা পেয়েছি। ভুলে গেলে চলবে না যুদ্ধে শহীদদের অবদানের কথা। নতুন প্রজন্মকে মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস জানাতে হলে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় ফিরতে হবে আগে। নচেৎ শুদ্ধ সংস্কৃতির স্বাদ থেকে বঞ্চিত হবে আগামি প্রজন্ম। যেকোনো অপশক্তির উত্থান রোধকল্পে মাদক সন্ত্রাস আর জামায়াত- জঙ্গিদের পরিহার করতে হবে। এদের কুপ্রভাব থেকে দেশ ও দেশের স্বাধীনতার গৌরবময় ঐতিহ্যকে সমুন্নত রাখতে সকলকে ঐক্য বদ্ধ থাকতে হবে। আমাদের সরকার মুক্তিযুদ্ধ ও মুক্তিযোদ্ধাদের স্বার্থ রক্ষার ব্যাপারে অনেক আন্তরিক।’    

অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঘনিষ্ঠ সহচর আগরতলা ষড়যন্ত্র মামলার অন্যতম আসামি এবিএম আবদুস সামাদ এবং মুক্তিযুদ্বে একমাএ নারী মুক্তিযোদ্বা কমান্ডার আশালতা বৈদ্যসহ ১৪জন মুক্তিযোদ্বা ও সাংস্কৃতিককর্মীকে সম্মাননা দেওয়া হয়।

দৈনিক গণমুক্তির নির্বাহী সম্পাদক শাহাদাত হোসেন শাহিন সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেন, বাংলাদেশ তৈরি পোশাক প্রস্তুত ও রফতানিকারক সমিতির (বিজিএমইএ) সাবেক সভাপতি মো. আতিকুল ইসলাম, দৈনিক রাঙামাটির প্রকাশক মো. জাহাঙ্গীর কামাল, পেটেলকো লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. মাসুদ খান প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে সম্মাননা প্রাপ্তরা হলেন, মহান মুক্তিযুদ্বে আবুল হোসেন বাহিনীর প্রধান প্রকৌশলী আবুল হোসেন, ‘আগরতলা ষড়যন্ত্র মামলা ও বাংলার স্বাধীনতা আন্দোলন’ শীর্ষক গবেষণা গ্রন্থের  লেখিকা সাহিদা বেগম,সুন্দরবন সাবসেক্টের ও স্মরণখোল থানার কমান্ডিং অফিসার মজিবুল হক মজনু, যুদ্বকালীন সময় ভারতের হাসনাবাদে গঠিত আমলানি ক্যাম্পের পলিটিক্যাল মটিভেটর মো.এমমাদুল হক খান, রাঙামাটি জেলা মুক্তিযোদ্বা সংসদের সাবেক ডেপুটি কমান্ডার মনিরুজ্জামান মনির, নারী মুক্তিযোদ্বা রেখা গুণ। 

সংস্কৃতিকর্মী হিসেবে সম্মাননা পান চিএনায়ক জায়েদ খান, মঞ্চ ও টিভি অভিনেএী নাজিয়া ফারহা, আবিদা রহমান সেতু, রিদওয়ানা আফরিন সুমি, সংগঠক ওমর মির্জা এবং বিতর্ক শিল্পী ও সংগঠক মোস্তাফিজুর রহমান।

অনুষ্ঠানে কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৫৭তম জন্মবার্ষিক উপলক্ষে সমর বড়ুয়ার পরিচালনায় শিশু শিল্পীরা সংগীত পরিবেশন করে।

কেআই/

ফটো গ্যালারি



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি