ঢাকা, শুক্রবার, ২০ জুলাই, ২০১৮ ১৩:০৯:২৫

Ekushey Television Ltd.

ইতিহাস গড়ে সেমিতে বেলজিয়াম

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০২:২১ এএম, ৭ জুলাই ২০১৮ শনিবার | আপডেট: ০২:০৩ পিএম, ৭ জুলাই ২০১৮ শনিবার

ক্যাপশনঃ কথায় বলে,

ক্যাপশনঃ কথায় বলে,

ফুটবল যে কোন পরিসংখ্যানের খেলা নয় তা আবারও প্রমাণ করে দিলো ইউরোপের নব্য পরাশক্তি বেলজিয়াম। ৫৫ বছরের ইতিহাস, রেকর্ড আর পরিসংখ্যানকে বুড়ো আঙ্গুল দেখিয়ে চলতি রাশিয়া বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে পৌছে গেল রেড ডেভিলস’রা। কোয়ার্টার ফাইনালে প্রতিপক্ষ ব্রাজিলকে ২-১ গোলের ব্যবধানে হারিয়ে ইতিহাসের পাতায় নিজেদের নামে নতুন এক অধ্যায়ের সূচনা করলো বেলজিয়াম।

রাশিয়ার কাজান আরেনা স্টেডিয়ামে লেখা হয় এই ইতিহাস। ১৯৬৩ সালে ব্রাজিলের বিপক্ষে শেষ জয়ের পর আজ শনিবার মধ্যরাতে ব্রাজিলের বিপক্ষে আবার জয়ের দেখা পেল বেলজিয়ামের। টিকে থাকার লড়াইয়ের এই ম্যাচে ব্রাজিলের ‘ফেভারিট’ তকমা’কে উড়িয়ে দিয়ে শেষ চারে জায়গা করে নিল রবার্টো মার্টিনেজের শিষ্যরা।

ম্যাচের প্রথমার্ধেই ২-০ গোলে এগিয়ে যায় বেলজিয়ামে। ১৩ মিনিটে ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডার ফারনান্দিনহো’র করা আত্মঘাতি গোলে লিড পায় বেলজিয়াম। আর ৩১ মিনিটে দলের জন্য ব্যবধান দ্বিগুণ করেন বেলজিয়ান মিডফিল্ডার কেভিন ডি ব্রুয়েন। সতীর্থ রোমেলু লোকাকু’র মধ্যম মাঠের ‘সলো’র সফল পরিসমাপ্তি করেন ব্রুয়েন। ব্রাজিল গোল পোস্টের অন্তত ২০ গজ বাইরে থেকে ডান পায়ের শটে দলের জন্য জয়সূচক গোলটি করেন ম্যানচেস্টার সিটির ব্রুয়েন।

তবে দ্বিতীয়ার্ধে নতুন পরিকল্পনা নিয়ে মাঠে নামা ব্রাজিলকে থামিয়ে রাখতে বেশ ঘাম ছড়াতে হয় বেলজিয়াম খেলোয়াড়দের। গোলরক্ষক কুরটইসের দক্ষতা আর ব্রাজিলের সফল ফিনিশিং এর দয়ায় ৭৬ মিনিট পর্যন্ত নিজেদের জালে বল জড়াতে দেয়নি ব্রাজিল।

৭৬ মিনিটে কুটিনহো’র দারুণ এক ক্লিপে হালকা হেডে ব্রাজিলের জন্য একমাত্র গোলটি করেন মিনিট তিনেক আগে বদলি খেলোয়াড় হিসেবে মাঠে নামা রেনাটো অগাস্টো। এর ঠিক চার মিনিট পর আবারও গোলের মোক্ষক সুযোগ পেয়েছিলেন অগাস্টো। নেইমারের বাড়িয়ে দেওয়া বল থেকে গোল আদায় করতে অগাস্টের সামনে বাঁধা ছিল শুধু বেলজিয়ামের গোলরক্ষক কুরটইস। না, বাঁধা আরও একটি ছিল। তা হলো ব্রাজিলের মাথা ঠান্ডা রাখতে না পারার অক্ষমতা। ডি-বক্সের ভেতরে কুরটইসকে একা পেয়েও গোল পোস্টের বাম দিকের অনেক বাইরে দিয়ে বলে ঢেলে দেন অগাস্টো।

ছবিঃ ব্রাজিলের হয়ে একমাত্র গোল করার পর অগাস্টো`র এই হাসি অবশ্য শেষ পর্যন্ত স্থায়ী হয়নি। বেলজিয়ামের কাছে ২-১ গোলে হেরে যেতে হয় ব্রাজিলকে।

৮৩ মিনিটে একইরকম সুযোগ পেয়েছিলেন অভিজ্ঞ কুটিনহো। মার্সেলোর বাড়িয়ে দেওয়া বল থেকে সুযোগ হাতছাড়া করেন তিনিও। ম্যাচের অতিরিক্ত সময়ের তৃতীয় মিনিটে ব্রাজিলের হয়ে শেষে চেষ্টা করেছিলেন নেইমার। ডি-বক্সের বাইরে থেকে নেওয়া ফ্লিক শট বেলজিয়ান জালে প্রবেশ করেই ফেলত যদিনা কুরটইস তার আঙ্গুলের ছোঁয়ায় বলটিকে মাঠের বাইরে পাঠিয়ে না দিতেন।

নির্ধারিত ৯০ মিনিট আর অতিরিক্ত সময়ের পাঁচ মিনিটে ব্রাজিল খেলায় নতুন কোন নাটকীয়তা আনতে না পারায় শেষ পর্যন্ত সেমিফাইনাল নিশ্চিত হয় বেলজিয়ামের। আর এবারের রাশিয়া বিশ্বকাপ থেকে শেষ ল্যাটিন দল হিসেবে থাকা ব্রাজিলেরও বিদায় ঘন্টা বেজে ওঠে।

ম্যাচের সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হয়েছেন বেলজিয়ামের হয়ে গোল করা কেভিন ডি ব্রুয়েন।

আগামী ১০ জুলাই সেন্ট পিটার্সবার্গ স্টেডিয়ামে সেমিফাইনালের প্রথম ম্যাচে ফ্রান্সের মুখোমুখি হবে বেলজিয়াম।  

//এস এইচ এস//



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি