ঢাকা, সোমবার, ২৮ মে, ২০১৮ ৩:৩০:৩৭

Ekushey Television Ltd.

খুলনার নগরপিতা হলেন খালেক   

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৯:৫৩ পিএম, ১৫ মে ২০১৮ মঙ্গলবার | আপডেট: ০৮:৩৫ এএম, ১৬ মে ২০১৮ বুধবার

খুলনা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামী লীগ প্রার্থী (নৌকা) তালুকদার আবদুল খালেক। বিএনপি প্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জুকে (ধানের শীষ) বিপুল ভোটে হারিয়ে তিনি জয়ী হয়েছেন।

মঙ্গলবার রাতে নগরীর সোনাডাঙ্গা এলাকার বিভাগীয় মহিলা ক্রীড়া কমপ্লেক্সে স্থাপিত নির্বাচনী ফলাফল সংগ্রহ ও ঘোষণা কেন্দ্র থেকে আওয়ামী লীগ প্রার্থী তালুকদার আবদুল খালেককে বেসরকারিভাবে জয়ী ঘোষণা করা হয়।

সর্বশেষ বিভিন্ন উৎস থেকে কেন্দ্রভিত্তিক ভোটের প্রাপ্ত ফলাফলের ভিত্তিতে আওয়ামী লীগ প্রার্থী খালেককে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত ঘোষণা করেন রিটার্নিং কর্মকর্তা ইউনুচ আলী।

খুলনা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের মোট ভোটকেন্দ্রের সংখ্যা ২৮৯টি। এর মধ্যে তিনটি কেন্দ্র স্থগিত করা হয়। বাকি ২৮৬ কেন্দ্রের ফলাফলে আওয়ামী লীগ প্রার্থী তালুকদার আবদুল খালেক পেয়েছেন ১৭৬৯০২ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপি প্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জু পেয়েছেন ১০৮৯৫৬ ভোট।   

সিটি করপোরেশন নির্বাচনে এবারের ভোটার সংখ্যা চার লাখ ৯৩ হাজার ৯৩ জন। মঙ্গলবার সকাল ৮টায় শুরু হওয়া এই ভোট একটানা চলে বিকেল ৪টা পর্যন্ত।   

তালুকদার আবদুল খালেক খুলনা সিটি করপোরেশনের (কেসিসি) তার হারানো মসনদ পুনরুদ্ধার করেন। এর আগে ২০০৮ থেকে ২০১৩ সাল পর্যন্ত খুলনা সিটি করপোরেশনের মেয়র ছিলেন তালুকদার আবদুল খালেক। ২০১৩ সালের নির্বাচনে বিএনপি সমর্থিত মেয়র প্রার্থী মনিরুজ্জামান মনির কাছে প্রায় ৬১ হাজার ভোটের ব্যাবধানে হেরে যান তিনি।

এ নির্বাচনে মোট ৫ জন প্রার্থী মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। বিএনপির দলীয় প্রার্থী ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে নজরুল ইসলাম মঞ্জু, কাস্তে প্রতীক নিয়ে সিপিবির মিজানুর রহমান বাবু, লাঙ্গল প্রতীক নিয়ে জাতীয় পার্টির শফিকুর রহমান মুশফিক এবং হাতপাখা নিয়ে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মাওলানা মুজাম্মিল হক।   

এসি     

 



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি