ঢাকা, শনিবার, ২১ জুলাই, ২০১৮ ১৩:৪৯:১২

Ekushey Television Ltd.

গোসল করার সময় আমি নিজেও বালতি পেতে রাখি: প্রধানমন্ত্রী

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৩:১৬ পিএম, ৭ জুলাই ২০১৮ শনিবার

পানি-বিদ্যুৎ-গ্যাসসহ জাতীয় সম্পদ ব্যবহারে সাশ্রয়ী হওয়ার আহবান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বলেছেন, পানির ব্যবহারে সাশ্রয়ী হওয়ার দিকে আপনাকে খেয়াল রাখতে হবে। কারণ পানির বিল আপনাকেই দিতে হবে। নিজের অভিজ্ঞতা শেয়ার করে শেখ হাসিনা বলেন, আমি নিজেও গোসল করার সময় বালতি পেতে রাখি যেন এতটুকু পানি নষ্ট না হয়।

আজ শনিবার সকালে মতিঝিলে সরকারী কর্মকর্তাদের জন্য আবাসিক ভবন উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিদ্যুৎ, পানি ব্যবহার হিসেব করে করবেন। কারণ বিদ্যুৎ ও পানি উৎপাদন করতে সরকারের যে টাকা খরচ হয় তার চেয়ে অর্ধেক দামে আমরা আপনাদের কাছে বিক্রি করি।  যখনই কাজ হয়ে যাবে সুইচ বন্ধ করে দেবেন। পানির কল কখনো খোলা রাখবেন না। গোছলের জন্য বালতি-মগ ব্যবহার করবেন। আমিও এসব করি। তাই সবার কাছে অনুরোধ এগুলো মেনে চলবেন। দেশের স্বার্থে অপচয় বন্ধ করতে হবে।

তিনি বলেন, আমরা ফ্ল্যাট বানিয়ে দিচ্ছি। কিন্তু সেখানে পানি বিদ্যুৎ ব্যবহারে আপনাকে সাশ্রয়ী হতে হবে। প্রধানমন্ত্রী এসময় দু:খ প্রকাশ করে বলেন, আমাদের দেশের মানুষের পরিচ্ছন্নতা সম্পর্কে ধারণা একটু কম। আপনার ফ্ল্যাট যেন পরিষ্কার থাকে তা খেয়াল রাখার দায়িত্ব আপনার। নিজের কাজ নিজেই করতে হবে। নিজের কাজ নিজে করায় লজ্জার কিছু নেই। নিজের ফ্ল্যাট যেমন পরিষ্কার থাকবে তেমনি নিজের সিঁড়ি, লিফট যেন পরিষ্কার থাকে সেজন্য আন্তরিকভাবে অনুরোধ জানাচ্ছি।

শেখ হাসিনা বলেন, আপনারা যেসব বাসা পাচ্ছেন সেখানে একটি ব্যালকনি অাছে। সেখানে একটি ফুল গাছ লাগাবেন প্রয়োজনে একটি কাঁচা মরিচের গাছ লাগাবেন। গাছ থেকে কাঁচা মরিচ ছিড়ে খাওয়ার মজাও কিন্তু আলাদা।

আজিমপুর কলোনিতে পৌঁছেই তিনি ফলক উন্মোচন করে ২০তলা বিশিষ্ঠ ৬টি আবাসিক ভবনের উদ্বোধন করেন। এসব ভবনে ৪৫৬টি ফ্লাট নির্মাণ করা হয়েছে। এর আগে সকালে তিনি মতিঝিল কলোনিতে ২০ তলা বিশিষ্ট চারটি বহুতল আবাসিক ভবন উদ্বোধন করেন। মতিঝিল কলোনির ২০ তলা বিশিষ্ট চারটি ভবনে ৫৩২টি ফ্লাট রয়েছে।

আআ / এআর



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি