ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ জুন, ২০১৮ ২২:১০:৫৬

Ekushey Television Ltd.
(ভিডিও)

মঙ্গলে ৩ বিলিয়ন বছরের পুরনো জৈবপদার্থ

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৪:১১ পিএম, ৮ জুন ২০১৮ শুক্রবার | আপডেট: ০৪:১২ পিএম, ৮ জুন ২০১৮ শুক্রবার

লাল এই গ্রহটিকে নিয়ে আগ্রহের কমতি নেই মানুষের মাঝে। পৃথিবীর প্রতিবেশী এ গ্রহটিতে প্রাণের অস্তিত্ব নিয়ে চলছে বিস্তর গবেষণা।

এ উদ্দেশ্য নিয়ে ২০১২ সালে মঙ্গলে গিয়ে পৌঁছে নভোযান কিউরিওসিটি। এ পর্যন্ত মঙ্গলের বহু ছবি পাঠিয়েছে নাসার এ যানটি। তবে এবারের পাঠানো ছবিতে বেরিয়ে এসেছে চাঞ্চল্যকর তথ্য।

এবার মঙ্গলে সন্ধান মিলেছে ৩ বিলিয়ন বছরের পুরনো জৈবপদার্থ। মঙ্গলের একটি প্রাচীন লেক থেকে এক ধরণের মিথেন গ্যাসের সন্ধান দিয়েছে কিউরিওসিটি। যা এত বছর ধরে বিদ্যমান রয়েছে। এমনকি গ্রীষ্ম, শীত, বসন্ত ঋতুভেদে তারতম্য ঘটে এ গ্যাসের।

আর এতে মঙ্গলের প্রাণের অস্তিত্বের সম্ভাবনাকে আবারো জাগিয়ে তুলেছে। পৃথিবীর অধিকাংশ বার্যমন্ডলীয় মিথেন প্রাণী এবং উদ্ভিদ জীবন থেকে আসে। ধারণা করা হচ্ছে মঙ্গলেও এর তারতম্য হয়নি।

এটা প্রাণের প্রত্যক্ষ প্রমাণ না হলেও, মহাকাশ বিজ্ঞানীরা বলছেন, মিথেন ছাড়া প্রাণের বিস্তার সম্ভব নয়। নতুন এই তথ্যকে মঙ্গল গবেষণায় মাইলফলক বলছে নাসা।

মঙ্গল চষে বেড়ানো নাসার নভোযান কিউরিওসিটির পাঠানোর ছবি ঘেঁটে বিজ্ঞানীরা বলছেন, লাল গ্রহটির বিষুবরেখার কাছে যে শুষ্ক হ্রদ, সেখানেই পাওয়া গেছে এই জৈবযৌগ। ঋতুভেদে চরিত্র বদলানো এই মিথেনের বয়স ৩ বিলিয়ন বছর।

তথ্যগুলো নাসার মহাকাশ-জীববিদ্যা গবেষণাকেই প্রাণময় করে তুলেছে। নতুন করে ভাবছে বিজ্ঞান, অতীতে কোনও এক সময়ে সত্যিই কি মঙ্গলে প্রাণের অস্তিত ছিল... নাকি এখনও আছে!

 

একে//



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি