ঢাকা, শনিবার, ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৭ ১৯:০০:৩৭

মাহমুদুর রহমানের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলা

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৯:০৪ পিএম, ৭ ডিসেম্বর ২০১৭ বৃহস্পতিবার

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু  শেখ মুজিবুর রহমান ও প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটূক্তি করায় দৈনিক আমার দেশ পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মাহমুদুর রহমানের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহ ও এক হাজার কোটি টাকার ক্ষতিপূরণ চেয়ে মানহানির মামলা হয়েছে।  বৃহস্পতিবার দুপুরে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আইনজীবী এম মালেক শেখ নাটোরের মুখ্য বিচারিক হাকিম আদালতে মামলাটি করেন। এ সময় আদালতের বিচারক মামলাটি আমলে নিয়ে নাটোর সদর থানাকে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছে।

মামলার বাদী অ্যাডভোকেট মালেক শেখ জানান, গত ১ সেপ্টেম্বর জাতীয় প্রেসক্লাবে বাংলাদেশ ডেমোক্রেটিক কাউন্সিল আয়োজিত ‘গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে গণমাধ্যমের ভূমিকা’ শীর্ষক সেমিনারে মাহমুদুর রহমান বাংলাদেশের স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং তার পরিবারকে নিয়ে কটূক্তি করে মানহানিকর বক্তব্য দেন। সেই বক্তব্যে মাহমুদুর রহমান বঙ্গবন্ধুর পরিবার সম্পর্কে মিথ্যাচার, কটূক্তি এবং মাতৃভূমি বাংলাদেশের স্বাধীনতাকে অস্বীকার করে বাংলাদেশকে ভারতের কলোনী বলে আখ্যায়িত করেছেন। বক্তব্যে মাহমুদুর রহমান বলেছেন, ‘বাংলাদেশ স্বাধীন ও সার্বভৌম রাষ্ট্র নয়। শুধুমাত্র ভূখণ্ড ও জনগণ থাকলেই স্বাধীন সার্বভৌম রাষ্ট্র হয় না। বঙ্গবন্ধু দেশের গণতন্ত্রকে ধ্বংস করেছিলেন। বর্তমান সরকারও একটি অবৈধ সরকার।’

অ্যাডভোকেট মালেক শেখ বলেন, এসব বক্তব্যের মাধ্যমে জাতির জনকের আদর্শকে অপমানিত করা হয়েছে। তার এ বক্তব্যের মাধ্যমে রাষ্ট্রদ্রোহীতা করা হয়েছে এবং এক হাজার কোটি টাকার সম্মান ক্ষুণ্ন হয়েছে। তাই বাদী দণ্ডবিধির ১২৩ (ক) / ১২৪ (ক) / ৫০১ / ৫০২ / ৫০৫ ধারায় অভিযোগ আমলে নিয়ে আসামিকে গ্রেফতার করে জেলহাজতে আটক রাখার আবেদন করেছি।

মালেক শেখ বলেন, মাহমুদুর রহমানের বক্তব্যে রাষ্ট্রদ্রোহীতার উপাদান রয়েছে। একজন আওয়ামী লীগ নেতা হওয়ায় এ বক্তব্যে আমার এবং আমার দলের অপূরণীয় ক্ষতি হয়েছে।

 

 

আর/এসএইচ


 
 

© ২০১৭ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি