ঢাকা, বুধবার, ২৫ এপ্রিল, ২০১৮ ১০:৫২:১৬

Ekushey Television Ltd.

শিশুদের ধূমপান সাধারণ ঘটনা যে গ্রামে

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৭:৫৩ পিএম, ১০ জানুয়ারি ২০১৮ বুধবার | আপডেট: ১২:১৯ এএম, ১৭ জানুয়ারি ২০১৮ বুধবার

সিগারেটের মোড়কে লেখা থাকে যে, “সংবিধিবদ্ধ সতর্কীকরণ: ধূমপান স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর”। আর চিকিৎসাবিজ্ঞান মতে, ধূমপান ক্যান্সারের কারণ। তাই সাধারণ বয়সী মানুষদেরও ধূমপান থেকে বিরত থাকতে বলা হয়।

কিন্তু পৃথিবীর বুকেই একটি জায়গা আছে যেখানকার বাসিন্দাদের মধ্যে বয়োঃজ্যেষ্ঠ্য তো অবশ্যই; ধূমপান করে শিশুরাও। এমনই এক চমকপ্রদ খবরের তথ্য দিয়েছে এসোসিয়েটেড প্রেস (এপি)।

পর্তগালের ভেল দে সেলগুইরো গ্রামের অধিবাসীরা নিজেরাই তাদের শিশুদের ধূমপানে উৎসাহিত করে থাকেন। পাঁচ বছর বয়স হলেই নিজেদের সন্তানদের সিগারেটের প্যাকেট কিনে দেন এ গ্রামের অভিভাবকেরা।

তবে ধূমপান শুরু হয় বিশেষ এক উৎসবের পর। সে গ্রামে বড়দিন উপলক্ষে আয়োজন করা হয় “কিংস ফিস্ট” বা “রাজার ভোজনের”। বড়দিনের পর বর্ষ বরণের পরের শুক্রবার শুরু হয়ে এ উৎসব চলে শনিবার পর্যন্ত।

এ অনুষ্ঠানে একজনকে “রাজা” সাজানো হয়। এ রাজাই সকলের মাঝে মদ এবং খাবার তুলে দেয়।

পর্তুগালের রাষ্ট্রীয় আইন অনুযায়ী ১৮ বছর বয়সীদের নিচে ধূমপান অবৈধ। তবে এ আইন চলে না ভেল দে সেলগুইরো গ্রামে। তবে বহু প্রাচীন এ রীতির সঠিক অর্থ জানা নেই গ্রামবাসীদেরও।

গ্রামের এক কফি শপের মালিক গুলহারমিনা মাতিয়াস এপি’কে বলেন, “আমি ঠিক জানি না যে কেন আমি আমাদের সন্তানদের ধূমপান করতে দেই। আমি অবশ্য এর মধ্যে খারাপ কিছু দেখি না কারণ তারা ধোয়াটা মুখে নিয়েই বের করে দেয়। আর তারা ধূমপান করে শুধু উৎসবের এই দুই দিন। এরপর তারা আর ধূমপান করবে না।”

এ গ্রাম নিয়ে বিভিন্ন লেখালেখি করা জোসে রিবেইরিনহা জানান, পৌত্তলিক যুগে গ্রামবাসীরা তাদের পছন্দ মত অনেক কিছুই করতে পারত না। শুধু শীতকালীন উৎসবে তারা তাদের খেয়াল খুশি মত উদযাপন করতে পারত। সেই শীতের সময়ে তারা তখন ধূমপান করত। মূলত সেখান থেকেই উৎসবের এমন উদযাপনের সূত্রপাত বলে জানান রিবেইরিনহা।

সূত্র: ইন্ডিয়া টুডে

 

এসএইচএস/টিকে 



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি