ঢাকা, শনিবার, ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৭ ১৩:১৬:৫৯

সার্বভৌম সংসদে হাত দেয়ার ক্ষমতা কারো নেই : নাসিম

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৬:২৭ পিএম, ৮ আগস্ট ২০১৭ মঙ্গলবার | আপডেট: ০৮:০৯ পিএম, ৯ আগস্ট ২০১৭ বুধবার

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, জনগনের ভোটে নির্বাচিত সার্বভৌম সংসদে হাত দেয়ার ক্ষমতা কারো নেই। জনগণের ভোটে নির্বাচিত সংসদ সার্বভৌম। এ সংসদে হাত দেয়ার ক্ষমতা জনগণ ছাড়া আর কারো নেই।

মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর ধানমন্ডির ৩২ নস্বর সড়কের বঙ্গবন্ধু ভবনের সামনে বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিবের জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগ আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি এডভোকেট মোল্লা মো. আবু কাওছারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক মো. হারুনুর রশিদ এবং কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সদস্য এস এম কামাল হোসেন।

 সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক পঙ্কজ দেবনাথ এমপির পরিচালনায় সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ-সভাপতি নির্মলরঞ্জন গুহ, ঢাকা মহানগর উত্তর স্বেচ্ছাসেক লীগের সভাপতি মোবাশ্বের চৌধুরী, দক্ষিণের সভাপতি দেবাশীষ বিশ্বাস, সাধারণ সম্পাদক আরিফুর রহমান টিটো ও উত্তরের সাধারণ সম্পাদক ফরিদুর রহমান খান ইরান।

মোহাম্মদ নাসিম বলেন, সংবিধান অনুযায়ী আগামী নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। নির্বাচন কালীন সরকারের প্রধান থাকবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ নির্বাচনে জনগন যে রায় দেবে তা আমরা মেনে নেব।

ষড়যন্ত্র করে আওয়ামী লীগের ক্ষতি করা যাবে না উল্লেখ করে তিনি বলেন, সংবিধানের বাইরে সরকার এক বিন্দু যাবে না।

নাসিম বলেন, একাত্তরের ঘাতক, পঁচাত্তরের খুনী এবং জঙ্গীবাদী শক্তিকে ক্ষমতায় বসানোর জন্য কোন সুযোগ দেওয়া হবে না। বিএনপি ঘোলা পানিতে মাছ শিকার করতে চায় উল্লেখ করে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগকে জনগনের রায়ের মাধ্যমে ক্ষমতা থেকে সরাতে ব্যর্থ হয়েই অতীতের মতো তাঁরা আবারো ষড়যন্ত্রের পথ বেছে নিয়েছে। দেশী-বিদেশী সকল ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করেই আওয়ামী লীগ জনগলের রায় নিয়ে আগামীতেও সরকার গঠন করবে। সূত্র : বাসস।

//এআর

 


 
 

© ২০১৭ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি