ঢাকা, সোমবার, ২৩ জুলাই, ২০১৮ ১৩:৪১:৪৯

Ekushey Television Ltd.

সোনার মানুষ হওয়ার প্রত্যয়ে মঙ্গল শোভাযাত্রা (ভিডিও)

আলী আদনান

প্রকাশিত : ১০:১৩ এএম, ১৪ এপ্রিল ২০১৮ শনিবার | আপডেট: ১১:২২ এএম, ১৪ এপ্রিল ২০১৮ শনিবার

সকাল ৯`টায় বৈশাখের অন্যতম অনুসঙ্গ মঙ্গল শোভাযাত্রা শুরু হওয়ার কথা থাকলেও নারী- পুরুষ- শিশুরা ভিড় করতে থাকে সেই সকাল সাতটা থেকেই। নানা রঙে নানা বৈচিত্র্যে এক অদ্ভুৎ উত্তেজনা সবার মধ্যে। পরিচিত-অপরিচিত একে অপরকে বলছে, শুভ নববর্ষ।

কম বেশী সবার পরনে বৈশাখের নতুন পোশাক। মেয়েদের মাথায় ফুল, হাতে হাতপাখা। স্মৃতিকে ধরে রাখতে সবাই সুযোগ বুঝেই তুলে নিচ্ছে ছবি। স্মার্ট ফোনের কল্যাণে সেলফি তুলছেন না এমন কাউকে খুঁজে পাওয়া ভার।

সকাল ৯ টা। চারুকলা অনুষদের গেইটে ধরা হলো ব্যানার। বড় করে লিখা `মঙ্গল শোভাযাত্রা`। সবার সামনে দেখা গেলে খুব পরিচিত মুখ আসাদুজ্জামান নূরকে। সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী হিসেবে প্রধান অতিথি হয়ে এলেও তার আচরণে শিশু সুলভ সারল্য। হাসি মুখে সবাইকে বলছেন, শুভ নববর্ষ।

বেজে উঠলো বাঙালির ঐতিহ্যবাহী বাদন ঢোল। বাঁশি, ঢাল, ঝুনঝুনি তো আছেই। শোভাযাত্রা ধীরে ধীরে বের হতে লাগলো চারকলা অনুষদের মূল তোরণ দিয়ে। শোভাযাত্রা বের হচ্ছে তো হচ্ছেই। শুরু আছে কিন্তু শেষ নেই।

প্রথমে বের হলো অসংখ্য মুখোশ। তারপর ছোটবড় নানা ধরণের পুতুল। ভ্যানে চড়ে বের হলো বিশাল এক মাছ। বের হলো পাখি। সবার দিকে তাকিয়ে বের হলো হুতোম পেঁচা। সূর্য মামা বেশ রাশ গম্ভীর ভঙ্গীতে দেরীতেই বের হলো। মহিষ তো ভীষণ অলস। তার গায়ে বসে আছে বেশ কয়েকটি পাখি। তাড়ানোর নামও নেই।

বের হলো রাজা রাণী। মা পাখিটাও বাচ্চাদের নিয়ে এক সময় বের হলো।

শোভাযাত্রার যখন মাথা দেখা যায় তখন পা দেখা যায় না, যখন পা দেখা যায় তখন মাথা দেখা যায়না। ঢাক ও ডুহডুগির বাজনার তালে তালে ধীরে ধীরে শোভাযাত্রাটি শাহবাগেরর মোড় দিয়ে ঘুরে শিশু একাডেমী হয়ে টিএসসি চত্বরের দিকে যায়। সেখান থেকে ফিরে এসে আবার মিলিয়ে যায় চারুকলা অনুষদে।

বাংলা নববর্ষকে বরণ করার জন্য যতোগুলো আয়োজন করা হয় তার মধ্যে অন্যতম মঙ্গল শোভাযাত্র। নতুন বছরে আমাদের জন্য মঙ্গল বারতা বয়ে আনবে এমন দৃষ্টিভঙ্গি থেকেই এ শোভাযাত্রার উদ্ভব ।

সম্রাট আকবর ১৬০৫ সালে বাংলা সন প্রবর্তন করলেও বৈশাখকে বরণের ইতিহাস খুব বেশি পুরনো নয়। মূলত নব্বই দশকের প্রথম দিকে থেকে ঢাকায় জনপ্রিয় হয়ে উঠে মঙ্গল শোভাযাত্রা।

নারী পুরুষ, হিন্দু মুসলমান নির্বিশেষে অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ বিনির্মাণে বাংলা নববর্ষ নতুন বার্তা নিয়ে আসবে সেটাই সবার প্রত্যাশা।

/ এআর /

ফটো গ্যালারি



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি