ঢাকা, শনিবার, ২৫ নভেম্বর, ২০১৭ ৩:৫৯:২৯

সৌদিতে নির্যাতনের বর্ণনা দিলেন বাংলাদেশি গৃহকর্মী

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৪:১৯ পিএম, ২৬ আগস্ট ২০১৭ শনিবার | আপডেট: ০৩:৫৭ পিএম, ৩০ আগস্ট ২০১৭ বুধবার

সাত মাস আগে গৃহকর্মী হিসেবে সৌদি আরবে যাওয়া এক বাংলাদেশী নারী নির্যাতনের ক্ষত নিয়ে দেশে ফিরেছেন। মঙ্গলবার রিয়াদ বিমানবন্দরে উড়োজাহাজে বসে এক আরবকে ওই নির্যাতনের বর্ণনা দেন নির্যাতনে শিকার নারীটি।

তার বক্তব্য ভিডিও করেছেন ওই আরব ব্যক্তিটি। ভিডিওতে ওই নারীর এক হাতে ক্ষতচিহ্ন এবং গোটা গোটা ফোস্কা দেখা যায়। তার প্রশ্নের জবাবে বাংলাদেশী বলেন, কাজে আসার পর প্রতিদিন তাকে ছয় থেকে সাতবার গরম কিছু দিয়ে ছ্যাঁকা দেওয়া হত। ওই ছ্যাঁকাতেই এই ফোস্কা হয়েছে।

কেন নির্যাতন করা হত এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, বাংলাদেশে কারও সঙ্গে কথা বলতে দিত না। আবার দেশে ফিরতে চাইলেও নির্যাতন করা হত। নির্যাতনের পর সৌদি মালিক তাকে বিমানবন্দরে রেখে যান।

ওই নারী বলেন, এই কয় মাসে কাজ করেছি কিন্তু কোনো বেতন দেওয়া হয়নি। বিমানবন্দরে রেখে যাওয়ার সময় বেতন নিয়েছেন মর্মে স্বাক্ষর নিয়ে গেছেন মালিক।

পাসপোর্টের তথ্যানুযায়ী নির্যাতিত ওই বাংলাদেশি নারীর বাড়ি চুয়াডাঙ্গায়। তিনি গত ২২ জানুয়ারি সৌদি আরব আসেন। সৌদিতে তার নিয়োগকর্তা আজিজা নাশহাত মোহাম্মদ আলী কাকা, তার লাইসেন্স নম্বর- ১১৩৪৩১৫৮৮৪।

এ বিষয়ে রিয়াদে বাংলাদেশ দূতাবাসের শ্রম কাউন্সিলর সরওয়ার আলম গণমাধ্যমকে বলেন, ঘটনাটি জানতে পেরেছি। সরাসরি বিমানে উঠিয়ে দেওয়ায় ওই নারীর কোনো অভিযোগ আমরা পাইনি। আইনি প্রক্রিয়া গ্রহণের ব্যবস্থা করছি আমরা।

 

//আর//এআর


 
 

© ২০১৭ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি