ঢাকা, বুধবার, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ২:৪১:৪৩

২০১৬-১৭ অর্থবছরে বেড়েছে রপ্তানি আয়

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৩:০২ পিএম, ১৫ জুলাই ২০১৭ শনিবার | আপডেট: ০৭:০১ পিএম, ১৫ জুলাই ২০১৭ শনিবার

সদ্য সমাপ্ত ২০১৬-১৭ অর্থবছরে দেশের রপ্তানি আয় বেড়েছে। এসময় আয় হয়েছে ৩ হাজার ৪৮৩ কোটি ৫০ লাখ ৯০ হাজার মার্কিন ডলার বা প্রায় ২ লাখ ৮২ হাজার ৯৭০ কোটি টাকা। যা ২০১৫-১৬ অর্থবছরে রপ্তানি আয়ের ১ দশমিক ৬৯ শতাংশ বেশি। ২০১৫-১৬ অর্থবছরে বাংলাদেশের রপ্তানি আয় ছিল ৩ হাজার ৪২৫ কোটি ৭১ লাখ ৮০ হাজার মার্কিন ডলার।

রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরোর (ইপিবি) প্রকাশিত হালনাগাদ প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, ২০১৫-১৬ অর্থবছরে সব ধরনের পণ্য রপ্তানিতে বৈদেশিক মুদ্রা আয় হয়েছিল মোট ৩ হাজার ৪২৫ কোটি ৭১ লাখ ৮০ হাজার ডলার। ২০১৬-১৭ অর্থবছরে রপ্তানি আয়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছিল ৩ হাজার ৭০০ কোটি ডলার।

২০১৬-১৭ অর্থবছরের জুন মাসে রপ্তানি আয় হয়েছে ৩০৪ কোটি ৪৩ লাখ ৪০ হাজার মার্কিন ডলার বা প্রায় ২৪ হাজার ৭৪৮ কোটি টাকা। যা ওই মাসের রপ্তানি আয়ের লক্ষ্যমাত্রার তুলনায় ১৬ দশমিক ৫২ শতাংশ কম। এ সময় ৩৬৪ কোটি ৭০ লাখ মার্কিন ডলারের পণ্য রপ্তানি আয়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছিল।

২০১৫-১৬ অর্থবছরের জুন মাসে পণ্য রপ্তানিতে মোট আয় হয়েছিল ৩৫৯ কোটি ২৯ লাখ ৭০ হাজার মার্কিন ডলার। অর্থাৎ ২০১৫-১৬ অর্থবছরের জুন মাসের তুলনায় ২০১৬-১৭ অর্থবছরের জুন মাসে পণ্য রপ্তানি আয় ১৫ দশমিক ২৭ শতাংশ কমেছে।

২০১৬-১৭ অর্থবছরে তৈরি পোশাক খাতের রপ্তানি আয় হয়েছে ২ হাজার ৮১৪ কোটি ৯৮ লাখ ৪০ হাজার মার্কিন ডলার। এই খাতের রপ্তানি আয় আগের অর্থবছরের তুলনায় শূন্য দশমিক ২০ শতাংশ বেড়েছে। এর মধ্যে নিটওয়্যার খাতের পণ্য রপ্তানিতে ১ হাজার ৩৭৫ কোটি ৭২ লাখ ৫০ হাজার ডলার। ওভেন গার্মেন্টস পণ্য রপ্তানিতে ১ হাজার ৪৩৯ কোটি ২৫ লাখ ৯০ হাজার ডলার।

এছাড়া হিমায়িত ও জীবিত মাছ রপ্তানি আয় ১ দশমিক ৯৮ শতাংশ কমেছে। অন্যদিকে বছরের ব্যবধানে রপ্তানি আয় বাড়ার তালিকায় রয়েছে পাট ও পাটজাত দ্রব্য, হোম টেক্সটাইল পণ্য, চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য, রাবার, প্লাস্টিক পণ্য, কেমিকেল পণ্য ইত্যাদি।

আর/ডব্লিউএন

© ২০১৭ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি