ঢাকা, শুক্রবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০১৭ ৮:৩৯:৪৮

সোনিয়ার পছন্দের তারকা চঞ্চল

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০১:২১ পিএম, ১৬ নভেম্বর ২০১৭ বৃহস্পতিবার | আপডেট: ১১:৩৬ এএম, ১৭ নভেম্বর ২০১৭ শুক্রবার

সোনিয়া হোসেন। মডেলিং, অভিনয় ও উপস্থাপনা তিন মাধ্যমেই সমানতালে পথ চলছেন। গত তিন বছরে টিভি নাটক, চলচ্চিত্র দুটোতেই প্রতিভার স্বাক্ষর রেখে চলেছেন। আবার উপস্থাপনাতেও তার নান্দনিক উপস্থিতি ছিল চোখে পড়ার মতো। একুশে টেলিভিশন (ইটিভি) অনলাইনের সঙ্গে একান্ত আলাপচারিতায় সোনিয়া জানালেন মনের কথা। তার সঙ্গে কথা বলেছেন- সোহাগ আশরাফ

একুশে টিভি অনলাইন : অনেক ব্যস্ততার মাঝে কেমন যাচ্ছে সময়, কেমন আছেন?

সোনিয়া হোসেন : অনেক ভালো আছি। ব্যস্ততা মোটেও নেই। গত দেড় মাস আমি যুক্তরাষ্ট্রে ছিলাম। চারদিন হলো আমি দেশে এসেছি।

একুশে টিভি অনলাইন : যুক্তরাষ্ট্রে কেন গিয়েছিলেন?

সোনিয়া হোসেন : আসলে ছুটিতেই গিয়েছিলাম। আমার মামা থাকেন ওখানে। মায়ের কাজিন। তাই মাকে সঙ্গে নিয়ে গিয়েছিলাম। আমি অবশ্য এর আগে কয়েকবার গিয়েছি। মা এবারই প্রথম গেলেন। মূলত তাকে ঘুরাতে নিয়ে গিয়েছিলাম। তাছাড়া আমার ভক্ত, বন্ধুরা এবং কাছের মানুষ সবাই জানেন যে আমার মায়ের সঙ্গে আমার সম্পর্কটা অনেক ঘনিষ্ট। সময় পেলেই আমরা দুজন ঘুরতে বের হই। সত্যি কথা বলতে- আমার একজনই বেস্ট ফ্রেন্ড। আর সে হচ্ছে আমার মা।

একুশে টিভি অনলাইন : বিরতির পরে নতুন কোনো কাজ শুরু করেছেন?

সোনিয়া হোসেন : এখনও ওভাবে শুরু করা হয়নি। তবে একটা কাজ নিয়ে এই ছুটির মধ্যেও কিছুটা ব্যস্ত ছিলাম। আমি প্রথমবারের মত ইউটিউবে আমার নামে একটা শো শুরু করছি। ‘স্টেইং এলাইভ উইথ সোনিয়া’ শিরোনামে। মূলত আমি প্রতিটি শো’তে বিভিন্ন সেক্টরের সফল মানুষদের অতিথি হিসেবে নিয়ে আসতে চাচ্ছি। সেক্ষেত্রে তরুণদের প্রাধান্যই বেশি থাকবে। তবে আমি চাই নারী অতিথিরাই বেশি থাকুক। এ মাসের মধ্যেই শো’গুলো ইউটিউবে প্রকাশ করা হবে।  

একুশে টিভি অনলাইন : মডেল, উপস্থাপক, অভিনেত্রী কোন সেক্টরে আপনার টানটা বেশি? সবাই বলেন যে আপনার বেশি আগ্রহ উপস্থাপনায়। এ বিষয়ে কিছু বলবেন কি?

সোনিয়া হোসেন : আমি মনে করিনা যে আমি সবগুলোই পারি। এখনও আমি শিখছি। দশ বছর পরেও আমি বলবো আমি শিখছি। তবে উপস্থাপনার ক্ষেত্রে আমি বলতে চাই আমি যা পারি, যা আমার সঙ্গে যায়, যা আমি খুব ভালো বুঝি তাই করি। তবে হ্যাঁ; উপস্থাপনা আমি বেশ পছন্দ করি, এনজয় করি। অন্য সেক্টরের চেয়ে এখানে নিজের স্বাধীনতা নিয়ে কাজ করা যায়।   

একুশে টিভি অনলাইন : নাটকে অভিনয়ের পাশাপাশি আমরা আপনাকে চলচ্চিত্রেও পেয়েছি। নতুন কোনো চলচ্চিত্রে কি কাজ করছেন?

সোনিয়া হোসেন : বর্তমানে নতুন কোনো প্রজেক্টে হাতে নেই। ২০১৫ এর পরে যতগুলো অফার এসেছে আমার কাছে খুব একটা পছন্দ হয়নি। তবে নতুন করে ভাবতে শুরু করেছি। বিগত দিনগুলোতে চলচ্চিত্রের যে অবস্থা ছিলো তার থেকে অনেক ভালো কাজ হচ্ছে। বর্তমানে আমি চলচ্চিত্র নিয়ে অনেকটা পজেটিভ।    

একুশে টিভি অনলাইন : মিডিয়ার বাইরে অন্য কোন পেশার সঙ্গে জড়িত আছেন কি?

সোনিয়া হোসেন : হ্যাঁ। আমি একটি লিগ্যাল ফার্মের সঙ্গে যুক্ত আছি।

একুশে টিভি অনলাইন : মিডিয়াতে আগামীর পরিকল্পনা কি?

সোনিয়া হোসেন : নিজের কিছু প্রোডাকশন নিয়ে কাজ করার পরিকল্পনা আছে।

একুশে টিভি অনলাইন : টেলিভিশনে আপনার পছন্দের তারকা কে?

সোনিয়া হোসেন : জয়া আহসান।

একুশে টিভি অনলাইন : চলচ্চিত্রে আপনার পছন্দের তারকা কে?

সোনিয়া হোসেন : চঞ্চল চৌধুরী।

একুশে টিভি অনলাইন : পছন্দের রঙ কি?

সোনিয়া হোসেন : সাদা।

একুশে টিভি অনলাইন : পছন্দের খাবার কি?

সোনিয়া হোসেন : ফুচকা।

একুশে টিভি অনলাইন : প্রিয় মানুষ কে?

সোনিয়া হোসেন : মা।

একুশে টিভি অনলাইন : শখ কি?

সোনিয়া হোসেন : ছবি তোলা।

একুশে টিভি অনলাইন : জীবনের লক্ষ্য কি?

সোনিয়া হোসেন : সুখী মানুষ হওয়া।

একুশে টিভি অনলাইন : প্রিয় পোশাক ?

সোনিয়া হোসেন : আরামদায়ক যেকোনো পোশাক।

একুশে টিভি অনলাইন : মিডিয়ার কোন জায়গাটিতে  (মডেলিং, উপস্থাপনা ও অভিনয়) বেশি স্বাচ্ছন্দবোধ করেন?

সোনিয়া হোসেন : যেখানে কাজের স্বাধীনতা পাই, সেখানেই কাজ করে যেতে ভালো লাগে। অন্যান্যগুলোর চেয়ে উপস্থাপনায় স্বাধীনতা ভোগ করি।

একুশে টিভি অনলাইন : দেশে আপনার প্রিয় সঙ্গীত শিল্পী কে?

সোনিয়া হোসেন : ন্যান্সি, হাবিব।

একুশে টিভি অনলাইন : প্রিয় ফুল কি?

সোনিয়া হোসেন : বেলি।

একুশে টিভি অনলাইন : পরিবারে কে কে আছেন?

সোনিয়া হোসেন : মা-বাবা, ছোট ভাই ও আমি।

/ এআর /

 

 

 

 

 


 
 

© ২০১৭ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি