ঢাকা, শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ০:১৮:৫৮

দিনে ফুচকা বিক্রেতা, রাতে চিত্রশিল্পী [ভিডিও]

দিনে ফুচকা বিক্রেতা, রাতে চিত্রশিল্পী [ভিডিও]

ফুচকা বিক্রেতা সবার প্রিয় আজিজ ভাই। দিনের আলোতে যেমন নিপুন হাতে বানান সুস্বাদু ফুচকা। তেমনি নিঝুম রাতে পেন্সিলের আঁচরে মনের মাধুরী মিশিয়ে আঁকেন ছবি। প্রকৃতি, মানুষ, গ্রামীন জীবন-সহ এ পর্যন্ত অর্ধ শতাধিক ছবি এঁকেছেন তিনি। নিজের আকা ছবি নিয়ে প্রদর্শনী করার ইচ্ছে থাকলেও তা কখনো করা হয়ে ওঠেনি। অবশেষে জেলা প্রশাসকের উদ্যোগে স্থানীয় একুশের বই মেলায় চলছে আব্দুল আজিজের আঁকা ছবির প্রদর্শনী। আব্দুল আজিজ বলেন, ছবিগুলো নিয়ে প্রদর্শনী করার ইচ্ছে থাকলেও অর্থের অভাবে তা কখনো হয়ে ওঠেনি। জেলা প্রশাসন একুশের বই মেলা চত্বরে তার আঁকা ছবির প্রদর্শনী করায় কৃতজ্ঞ তিনি। এদিকে বই মেলায় আসা পাঠক-দর্শক তার আঁকা ছবি দেখে মুগ্ধ। প্রাতিষ্ঠানিক কোনো শিক্ষা না পেয়েও একজন সাধারণ মানুষের মাঝে এমন প্রতিভা দেখে অবাক অনেকেই। এদিকে ভবিষ্যতে এমন আরও প্রতিভাবান খুঁজে বের করার আশ্বাস দিয়েছেন জেলা প্রশাসক। ভিডিও লিংক:
মানিকগঞ্জে ছুরিকাঘাতে ইটভাটা মালিককে হত্যা

মানিকগঞ্জের সিংগাইর উপজেলায় প্রতিপক্ষের ছুরিকাঘাতে হাশেম মোল্লা (৬০) নামে এক ইটভাটার মালিক নিহত হয়েছেন। শুক্রবার দুপুরে উপজেলার সোনাডাঙ্গা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত হাশেম মোল্লা স্থানীয় এসএমবি ব্রিকস ফিল্ডের মালিক। তিনি সোনাডাঙ্গা গ্রামের লালু মোল্লার ছেলে বলে জানা গেছে। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, শুক্রবার সকালে হাশেম মোল্লার ইটভাটার ওপর দিয়ে একই গ্রামের আনোয়ার শিকদার পাশের আরেকটি ইট ভাটায় ট্রাকে করে মাটি নেওয়ার চেষ্টা করলে হাশেম মোল্লার লোকজন বাধা দেয়। এরই জের ধরে আনোয়ার শিকদার তার বাড়ির সামনের রাস্তা থেকে হাসেম মোল্লার ইটবোঝাই দুটি ট্রাক আটকে দিলে হাশেম মোল্লা তার ভাই-ভাতিজাদের নিয়ে ঘটনাস্থলে যান। তর্কবিতর্কের একপর্যায়ে আনোয়ার শিকদারের লোকজন লাঠিসোটা নিয়ে তাদের ওপর হামলা চালালে হাশেম মোল্লাকে পেছন থেকে ছুরিকাঘাত করা হয়। পরে তাকে দ্রুত সিংগাইর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছেন সিংগাইর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খন্দকার ইমাম হোসেন।   একে//এসএইচ/

মাদারীপুরে ট্রাক চাপায় ২ ভ্যান আরোহী নিহত

মাদারীপুর সদর উপ‌জেলায় ট্রাক চাপায় দুই ভ্যান আরোহী নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও ২ জন।  পুলিশ সূত্রে জানা যায়, সদস উপজেলার আচমত আলী খাঁন সেতুর টোল প্লাজার কাছে একটি ট্রাক দ্রুত গতিতে এসে একটি ভ্যানগাড়িকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই দুই ভ্যান আরোহী নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন অন্তত আরও ২ জন। শুক্রবার বেলা সোয়া ২ টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে হতাহতদের নাম-পরিচয় জানা যায়নি। সদর থানার ওসি কামরুল হাসান জানান, ট্রাকটি মাদারীপুর থেকে শরীয়তপুরে যাওয়ার পথে ট্রাক চালক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে একটি ভ্যানকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই ভ্যানের দুই যাত্রী নিহত হয়। এবং আহত হয় আরও দুইজন। খবর পেয়ে পুলিশ আহতদের উদ্ধার করে মাদারীপুর সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। একে/ এমজে

নাটোরে সড়ক দুর্ঘটনা নিহত ৩

নাটোরের গুরুদাসপুরে যাত্রীবাহী বাসের ধাক্কায় মোটরসাইকেলের তিন আরোহী নিহত হয়েছেন। এ সময় যাত্রীবাহী বাসটির সিলিন্ডার বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। শুক্রবার দুপুর ১২টার দিকে এই দুর্ঘটনা ঘটে। তবে নিহতের পরিচয় এখনও জানা সম্ভব হয়নি। গুরুদাসপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দিলিপ কুমার জানান, সিরাজগঞ্জ থেকে ছেড়ে আসা কাজী পরিবহন নামে নাটোরগামী একটি যাত্রীবাহী বাসের সঙ্গে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি মোটারসাইকেলের সংঘর্ষ হয়। এতে মোটরসাইকেলটি বাসটির ভেতর ঢুকে গেলে ঘটনাস্থলেই তিন আরোহী নিহত হন। এ সময় গ্যাস চালিত বাসটির সিলিন্ডার বিস্ফোরণ হয়ে বাসটিতে আগুন ধরে যায়। পরে ফায়ার সার্ভিস ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। একে//এসএইচ/

শেরপুরে ব্যবসায়ীকে গলা কেটে হত্যা

  শেরপুর শহরের দীঘারপাড় এলাকায় একটি ধানখেত থেকে মাহবুব ইসলাম রাজু মিয়া (২৮) নামে এক ব্যবসায়ীর গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শুক্রবার সকাল ৯টার দিকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। নিহত মাহবুব ইসলাম রাজু শহরের শেখহাটি এলাকার আব্দুল কুদ্দুস মিয়ার ছেলে। তিনি শহর বিএনপির আহ্বায়ক সাবেক ভারপ্রাপ্ত পৌর চেয়ারম্যান আব্দুল মান্নানের ছোট ভাই বলে জানা গেছে। সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. নজরুল ইসলাম জানিয়েছেন, নিহত রাজুকে গলাকাটা এবং গলায় ওড়না পেঁচানো অবস্থায় পাওয়া যায়। নিহতের পরিবার সূত্রে জানা গেছে, গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার একটু পরে কেউ একজন ফোন করে পাওনা টাকা দেওয়ার কথা বলে রাজুকে বাড়ি থেকে ডেকে নেয়। বাড়ি থেকে বের হয়ে যাওয়ার পর থেকেই তার মোবাইল ফোনটি বন্ধ পাওয়া যায়। আজ শুক্রবার সকালে তার লাশ পড়ে আছে এমন খবর পেয়ে শনাক্ত করা হয়। একে//এসএইচ/

ময়মনসিংহে বাস খাদে পড়ে নিহত ৪

ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলায় এক সাইকেল আরোহীকে বাঁচাতে গিয়ে যাত্রীবাহী বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদে পড়ে চারজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও অন্তত ১৭ জন। শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার রহোসেনপুর ভুইয়া ফিলিং স্টেশনের কাছে যায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।।   নিহত তিনজনের পরিচয় জানা গেছে। তারা হলেন— সাইকেল আরোহী রতন মিয়া (২৮)। তিনি ঈশ্বরগঞ্জের জাতিয়া ইউনিয়নের ঘাগড়াপাড়া গ্রামের আব্দুস সাত্তার খাঁর ছেলে। এছাড়া বাসের যাত্রী নান্দাইলের বাসিন্দা হাবিব মিয়া (৩৫) ও জামালপুরের বাসিন্দা হাসিনা খাতুন (৭৫)। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ময়মনসিংহ থেকে কিশোরগঞ্জগামী শ্যামল ছায়া পরিবহনের একটি বাস সকাল সাড়ে ১০টার দিকে চরহোসেনপুর ভুইয়া ফিলিং স্টেশনের কাছে রতন মিয়া নামের এক সাইকেল আরোহীকে বাঁচাতে গিয়ে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে মহাসড়কের পাশে খাদে পড়ে যায়। তবে বাঁচতে পারেননি রতন মিয়া। গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে হাসপাতাল নেওয়ার পথে তিনি মারা যান। এ দুর্ঘটনায় ঘটনাস্থলে বাসের যাত্রী এক নারী নিহত হন। এ ছাড়া হাসপাতালে নেওয়ার পথে আরও দু`জনের মৃত্যু হয়। একে//এসএইচ/

আত্মহত্যা করলেন সেই বাবলি!

মেয়ে হয়ে জন্মানোটাই ছিলো তার অপরাধ। এ কারণেই জন্মের ছয় মাসের মাথায় হত্যার জন্য মুখে অ্যাসিডে ঢেলে দিয়েছিলেন পিতা। কিন্তু তখন বেঁচে গেলেও ১৭ বছর পর গত বুধবার রাতে আত্মহত্যা করেছেন সেই মেহিয়া আক্তার বাবলী। তিনি এবার টাঙ্গাইলের ভারতেশ্বরী হোমস থেকে এসএসসি পরীক্ষা দিচ্ছিলেন। পুলিশ ধারণা করছে, বাবলী আত্মহত্যা করেছে। তবে এ ঘটনার কারণ জানাতে পারেনি পুলিশ। বাবার সেই অ্যাসিড আক্রমণ থেকে শেষ পর্যন্ত বেঁচে গেলেও বাবলী শারীরিকভাবে দারুণ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিলেন। এমনকি কথা বলতেও পারতেন না ঠিকমত। তবে নানা মানুষের সহায়তায় ভর্তি হতে পেরেছিলেন টাঙ্গাইলের নামকরা একটি স্কুলে। জানা গেছে, কন্যাসন্তান হওয়ার তথ্য জেনে জন্মের আগে থেকেই বাবলীর মা`কে গর্ভপাত করার জন্য চাপ প্রয়োগ করতেন বাবলীর পিতা। পরে কন্যাসন্তান হিসেবে জন্ম হওয়ার ছয় মাসের মাথায় অ্যাসিড দিয়ে বাবলীকে হত্যার চেষ্টা চালানো হয়। ওই হামলায় বাবলীর একটি কান নষ্ট হয়ে যায়। এ ছাড়াও আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত হয় গলা, জিহ্বা ও মুখ। ওই সময় এ নিয়ে মামলা হলে কিছুদিন পলাতক ছিলেন বাবলীর পিতা। কিন্তু পরে ওই মামলার আর কোনও অগ্রগতি না হওয়ায় বাবলী এবং তার মা আর তার সঙ্গে সম্পর্ক রাখেননি। স্থানীয়রা জানিয়েছেন, বাংলাদেশ অ্যাসিড সারভাইভার্স ফাউন্ডেশনের শিক্ষাবৃত্তির সহায়তায় পড়াশোনা চালিয়ে যাচ্ছিল বাবলী। শারীরিক বিকলঙ্গতার জন্য প্রায়ই অন্যান্য ছাত্রীদের বিদ্রুপের শিকার হতে হতো তাকে। মির্জাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এ কে এম মিজানুল হক জানান, ভারতেশ্বরী হোমসের ছাত্রীনিবাসে থেকে পড়াশোনা করতেন বাবলী। তবে আট-দশ মাস আগে শৃঙ্খলাজনিত কারণে তাকে ছাত্রীনিবাস থেকে বহিস্কার করা হয়। বাবলীর মা পারুল বেগম জানান বহিস্কার হওয়ায় ভারতেশ্বরী হোমসের একজন শিক্ষার্থী ও তার মায়ের সঙ্গে মির্জাপুরে একটি বাসা ভাড়া নিয়ে এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিচ্ছিলেন বাবলী। সেই শিক্ষার্থী ও তার মা বাবলীকে মৌখিকভাবে তিরস্কার করতো বলে জানান পারুল বেগম। একে/এসএইচ/

চট্টগ্রামে র‍্যাবের গুলিতে ডাকাত নিহত

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডের কুমিরা বাইপাস এলাকায় বরযাত্রীর গাড়িতে ডাকাতির পর র‍্যাবের গুলিতে এক ডাকাত নিহত হয়েছে বলে জানিয়েছে র‌্যাব। শুক্রবার ভোর সাড়ে ৩টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। তবে নিহত ওই ডাকাতের পরিচয় জানাতে পারেননি র‍্যাব-৭ এর ফেনী ক্যাম্পের অধিনায়ক স্কোয়াড্রন লিডার শাফায়াত জামিল ফাহিম। তিনি জানান, চট্টগ্রামের হাটহাজারি থেকে মাইক্রোবাসে করে ২১ বরযাত্রী লাকসামে ফেরার পথে রাত সাড়ে ৩টার দিকে বাসটি কুমিরা বাইপাস এলাকায় পৌঁছালে ছয় থেকে সাতজনের একদল ডাকাত অস্ত্রের মুখে মাইক্রোবাসটিতে ডাকাতি করে। সর্বস্ব হারিয়ে ছোট কুমিরায় দাঁড়িয়ে থাকা র‍্যাবের টহল দলকে দেখে অভিযোগ করেন বরযাত্রীরা। এ সময় দ্রুত র‍্যাব সদস্যরা ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখতে পান ডাকাতরা জঙ্গলে ডাকাতির জিনিসপত্র ভাগাভাগি করছিল। হঠাৎ র‍্যাবকে দেখে ডাকাতরা গুলি ছোড়লে র‍্যাবও পাল্টা গুলি ছোড়ে। এতে এক ডাকাত নিহত হয়। আর বাকিরা পালিয়ে যায় বলে জানান ফাহিম। একে//এসএইচ/

ফেনীতে সড়ক দুর্ঘটানায় নিহত ২

ফেনী সদর উপজেলার ছনুয়ায় রাস্তার পাশে দাঁড়িয়ে থাকা পিকআপে কভার্ডভ্যানের ধাক্কায় দুইজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও একজন। শুক্রবার ভোরে এ দুর্ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছেন ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের মুহুরীগঞ্জ পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই মো. মাহবুবুল আলম। তবে তাৎক্ষণিকভাবে হতাহতদের নাম জানাতে পারেননি তিনি। আহত ব্যক্তিকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। এসআই মাহবুবুল বলেন, ছনুয়ায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের পাশে পার্ক করা ছিলো একটি পিকআপ। শুক্রবার ভোর ৪টার দিকে চট্টগ্রামগামী একটি কভার্ডভ্যানের ধাক্কায় পিকআপটি উল্টে গেলে কভার্ডভ্যানের চালক ও সহকারীসহ তিনজন আহত হন। পরে পুলিশ আহতদের উদ্ধার করে ফেনী জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক দুইজনকে মৃত ঘোষণা করেন। আহত অন্য ব্যক্তিকে ‘আশংকাজনক’ অবস্থায় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলে জানান তিনি। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছেন এসআই। একে/এসএইচ/

গোপালগঞ্জে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৩

গোপালগঞ্জে যাত্রীবাহী বাস ও মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে তিনজন নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ঢাকা-খুলনা মহাসড়কে বীণা উপকেন্দ্রের সামনে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতদের মধ্যে একজনের পরিচয় জানা গেছে। তার নাম তানভীর আহম্মেদ (৩০)। তিনি মাগুরার মহম্মদপুর থানায় কর্মরত এসআই কবির আহম্মেদের ছেলে। গোপীনাথপুর পুলিশ ফাঁড়ি সূত্রে জানা গেছে, গোপালগঞ্জ থেকে ঢাকাগামী ইমাদ পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাসের সঙ্গে বিপরীতগামী মাইক্রোবাসটির মুখোমুখি সংঘর্ষ হলে মাক্রোবাসটি দুমড়ে-মুচড়ে যায়। এ সময় যাত্রীবাহী বাসটি মহাসড়ক থেকে পার্শ্ববর্তী খাদে পরে যায়। এতে মাইক্রোবাসের তিন যাত্রী নিহত হন। একে//এসএইচ/

পঞ্চগড়ে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২

পঞ্চগড়ে ব্যারিস্টার বাজার এলাকায় ট্রাকচাপায় দুই মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত দুইজনই সবজি ব্যবসায়ী বলে জানা গেছে। নিহতরা হলেন- জেলা সদরের ধাক্কামারা এলাকার আব্দুল কাদেরের ছেলে মাহাবুবার রহমান জনি (৪০) এবং নতুন বস্তি এলাকার খতিব উদ্দিনের ছেলে নুরুজ্জামান খান (৪৩)। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, নুরুজ্জামান ও মাহাবুবার রহমান মোটরসাইকেলযোগে শহরে ফিরছিলেন। ব্যারিস্টার বাজার এলাকায় পাশের রাস্তা থেকে মহাসড়কে উঠার সময় পঞ্চগড় থেকে তেঁতুলিয়াগামী একটি ট্রাক তাদের চাপা দিয়ে চলে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই নুরুজ্জামানের মৃত্যু হয়। পরে গুরুতর আহত অবস্থায় মাহাবুবার রহমানকে হাসপাতালে নেওয়ার পথে তারও মৃত্যু হয়। একে//এসএইচ/

জাতিসংঘের উদ্যোগে প্রজনন সামগ্রী প্রদান

জাতিসংঘ জনসংখ্যা তহবিল (ইউএনএফপিএ) সুবিধা বঞ্চিত নারী ও মেয়েদের যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য রক্ষায় প্রয়োজনীয় দ্রব্য সামগ্রী হস্তান্তর করেছে।  বৃহস্পতিবার (২২ শে ফেব্রুয়ারী) কক্সবাজারের টেকনাফ ও উখিয়া উপজেলার অন্তর্গত সরকারী ও বেসরকারী স্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিনিধিদের হাতে এ সামগ্রী তুলে দেওয়া হয়। যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য রক্ষায় প্রয়োজনীয় দ্রব্য সামগ্রী বন্টনের লক্ষ্য হলো উন্নত মাতৃত্বকালীন ও নবজাতকের সেবা প্রদান নিশ্চিত করণ এবং নারীর প্রতি সহিংসতার ঝুঁকি থেকে নারী ও মেয়েদের রক্ষা করা। হস্তান্তর অনুষ্ঠানে নারীদের ক্ষমতায়ন, নিরাপত্তা নিশ্চিত করণে স্বাস্থ্য কেন্দ্রের ভূমিকা এবং নারী ও মেয়েদের মর্যাদা রক্ষায় বর্ণিত কার্যক্রম ও প্রজনন সামগ্রীর ব্যাবহারের বিষয়গুলি তুলে ধরা হয়। যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য রক্ষায় প্রয়োজনীয় দ্রব্য সামগ্রীগুলোর মধ্যে রয়েছে নিরাপদ ডেলিভারি কিট, যা গর্ভবতী নারীদের নিরাপদ প্রসব নিশ্চিত করতে পারে। এছাড়াও রয়েছে স্বাস্থ্য কেন্দ্রগুলোতে উন্নত সেবা দেওয়ার জন্যে সামগ্রী ও যৌন সহিংসতায় আক্রান্ত নারীদের জন্যে ব্যাবস্থাপনা কিট। কক্সবাজার জেলা হাসপাতাল, হোপ হসপিটাল, আরটিআই ক্লিনিক, টেকনাফ এবং উখিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সগুলোতে এই সামগ্রীগুলো সরবরাহ করা হয়েছে। ইয়োরি কাটো, ইউএনএফপিএ বাংলাদেশের ডেপুটি রিপ্রেজেন্টেটিভ বলেন, ‘নিরাপদ সন্তানের প্রসব নিশ্চিত করণ এবং যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য সেবা ও অধিকার এর জন্য প্রয়োজনীয় উপকরণ পর্যাপ্ত সরবরাহ না থাকার কারণে অনেক নারী ও মেয়েরা তাদের প্রজনন অধিকার পায় না। এ বিষয়গুলো নিশ্চিত করার জন্য আমরা মোট ৩৮৪ আরএইচ কিট বিতরণ করেছি। যেমন, নিরাপদ ডেলিভারি কিট, যৌন সহিংসতায় আক্রান্ত নারীদের জন্য ব্যাবস্থাপনা কিট এবং এসটিআই ট্রিটমেন্ট কিট, পুরুষ কনডম, আইইউডি, ইনজেকটেবলস। এছাড়া কক্সবাজারের মোট ৩১,২৯৫ জন মানুষের জন্য ইউএনএফপি প্রায় ১০ লাখ মার্কিন ডলার মূল্যের জীবন রক্ষাকারী সামগ্রী প্রদান করেছে। এর মধ্যে অ্যাম্বুলেন্স, স্ট্রেচার, হুইলচেয়ার, টেবলেট মিসোপ্রস্ট্রোল এবং ইনজেকশন অক্সিটোসিন ওষুধ প্রদান করেছে। স্বাস্থ্য সেবা অধিদপ্তরের পরিচালক (প্রশাসন) ডঃ মাজাহারুল ইসলাম বলেন, ‘এই যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য রক্ষায় প্রয়োজনীয় দ্রব্য সামগ্রী গুলোর সরবরাহের মাধ্যমে এ এলাকার জনসাধারন পরিবার পরিকল্পনার পদ্ধতি ব্যাবহার করতে পারবেন এবং অনিয়মিত গর্ভধারণ, এসটিআই এবং অন্যান্য স্বাস্থ্য ঝুঁকি থেকে রক্ষা পাবেন’। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ডাঃ মোঃ আব্দুস সালাম, সিভিল সার্জন, কক্সবাজার। তিনি বলেন, ‘যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য রক্ষায় সেবা প্রদানের জন্যে প্রয়োজনীয় দ্রব্য সামগ্রীর প্রাপ্যতা একটি প্রয়োজনীয় বিষয়। এই সরবরাহের মাধ্যমে আমরা প্রয়োজনীয় সামগ্রী প্রাপ্তির বাধা দূর করতে পেরেছি এবং আমি বিশ্বাস করি সরকারী ও বেসরকারী প্রতিষ্ঠানগুলো এ প্রাপ্ত সরবরাহের মাধ্যমে উন্নত প্রজনন স্বাস্থ্য সেবা প্রদান করতে পারবে। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জনাব সাইমুম সরওয়ার কমল, সংসদ সদস্য, সদর, কক্সবাজার। তিনি বলেন, ‘আমরা এই উদ্যোগের জন্যই ইউএনএফপিএ এর প্রতি অত্যন্ত কৃতজ্ঞ এবং নিশ্চিত যে এই জীবন রক্ষাকারী পণ্যগুলি রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠী ও স্থানীয় জনসাধারনের মাঝে সেবা আরও বৃদ্ধি করতে পারবে। এই উদ্যোগ নারীর ক্ষমতায়ন, প্রজনন স্বাস্থ্য বিষয়ক তথ্য ও সেবা পাওয়ার সুযোগ বৃদ্ধি করবে এবং সামগ্রিকভাবে বাংলাদেশের জনগনকে স্বাস্থ্য সেবা প্রদানের অঙ্গীকারকে পূরণ করতে সহায়তা করবে।’ ইউএনএফপিত্র এর ডেপুটি রিপ্রেজেন্টেটিভ উপসংহারে বলেন ‘এই প্রচেষ্টার মাধ্যমে, সরবরাহ নিশ্চিত করে, আমি আশা করি যে কক্সবাজারে যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য রক্ষায় প্রয়োজনীয় দ্রব্য সামগ্রীর চাহিদা পূরণ হবে।’ তিনি এ প্রকল্পের উন্নয়নসহ সহযোগীদের তাদের সহায়তার জন্যে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন এবং পাশাপাশি বাংলাদেশ সরকার ও এনজিওদের কক্সবাজারের নারী ও মেয়েদের জন্য প্রজনন স্বাস্থ্য বিষয়ক নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য ধন্যবাদ জানান। অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে সরকার, স্থানীয় সরকার ও এনজিও প্রতিনিধিরা বক্তব্য রাখেন।  এসি/

© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি