ঢাকা, শুক্রবার, ২২ জুন, ২০১৮ ১৭:৩১:৩৪

বাংলা টিভির ইউরোপে দুই দশক ও বাংলাদেশে দ্বিতীয় বর্ষে পদার্পণ 

স্যাটেলাইট টেলিভিশন চ্যানেল বাংলা টিভি ইউরোপে দুই দশক ও বাংলাদেশে দ্বিতীয় বর্ষে পদার্পণে "সুধী সমাবেশ ও ঈদ পুনর্মিলনী উৎসব" করেছে বাংলা টিভি দর্শক ফোরাম কাতার।  কাতারের স্থানীয় সময় বুধবার সন্ধ্যা রাজধানী দোহার নাজমা রমনা রেস্টুরেন্টে বাংলাদেশ কমিউনিটির বিশিষ্টজনদের অংশগ্রহণে প্রাণবন্ত এক মিলনমেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন আন্তর্জাতিক মিডিয়া ব্যক্তিত্ব ও বাংলা টিভির ভাইস চেয়ারম্যান সৈয়দ গোলাম দস্তগীর নিশাদ।  সভাপতিত্ব করেন প্রবাসী ব্যবসায়ী মোহাম্মদ ইয়াসিন। কবি মফিজুর রহমানের সঞ্চালনায় এ অনুষ্ঠানের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ছিলেন বাংলা টিভি কাতার প্রতিনিধি আকবর হোসেন বাচ্চু। বিশেষ অতিথি ছিলেন প্রকৌশলী আবু রায়হান, জামাল উদ্দিন আহমেদ তফাদার, বোরহান উদ্দিন মোল্লা, মোহাম্মদ কপিল উদ্দিন, মোল্লা রাজিব রাজ, শেখ ফারুক আহম্মেদ ও জিএম ওমর শরিফ টিটু। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন লেখক ও সাংবাদিক সাহাবুদ্দিন সামিম, মোহাম্মদ দিদারুল আলম, নাসির উদ্দিন চৌধুরী, কাজী আশরাফ হোসেন, আল আমিন, সাংবাদিক এম এ সালাম ও হারুনুর রশিদ মৃধা। বাংলা টিভির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে কেক কাটেন অনুষ্ঠানে আগত অতিথিরা। অনুষ্ঠান শেষে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে গান পরিবেশন করেন কাতারে জনপ্রিয় ব্যান্ডদল শ্রাবণ ও অতিথি শিল্পী রিভি চৌধুরী, এসময় নৈশভোজের মধ্যদিয়ে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘটে।  কেআই/এসি  

ফেসবুকে বিদ্রুপের শিকার আর্জেন্টিনার সমর্থকরা

বাংলাদেশে আর্জেন্টিনার ফুটবল দলের যে লাখ লাখ সমর্থক, বিশ্বকাপে গতরাতে ক্রোয়েশিয়ার কাছে শোচনীয় হারের পর এখন তারা সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক ব্যঙ্গ-বিদ্রুপের শিকার হচ্ছেন। ফেসবুক-টুইটারে গতরাত থেকেই রীতিমত মাতম চলছে এ নিয়ে। যারা আর্জেন্টিনার সমর্থক, তারা এতটাই স্তম্ভিত যে, বেশিরভাগই চুপ মেরে গেছেন। মৌ ইসলাম মিম নামে একজন লিখেছেন, "প্রতিক্রিয়া জানানোর মতো মানসিকতাও হারিয়ে গেছে গতকাল থেকে।" নাজিম উদ্দীন নামে আরেকজনের মন্তব্য, "আসলে মেসি হাল ছেড়ে দিয়েছে গত বিশ্বকাপেই। এবারের খেলাটা ছিল মনের বিরুদ্ধে জোর করেই। আর ফুটবলে দশজন প্লেয়ারের কি করার আছে, যদি একজন গোলকীপারের ভুলে দল বিপর্যয়ের মুখে পড়ে?" অসিত মুখোপাধ্যায় নামে আরেকজন লিখেছেন, "সত্যি কথা বলতে কি, ভাবা যাচ্ছে না। আমি কোন দলের সমর্থক নই, ভালো খেলা দেখতে চাই। এখনও বিশ্বাস হচ্ছে না। এত শোচনীয় অবস্থা আমি আর্জেন্টিনা দলের কখনো দেখিনি। ফেসবুকে অনেকে শেয়ার করেছেন দলের পরাজয়ে কান্নায় ভেঙ্গে পড়া এক ছেলের ভিডিও। কোনভাবেই তাকে শান্ত করা যাচ্ছে না আর্জেন্টিনার এই সমর্থককে। আর বাংলাদেশে তাদের প্রতিদ্বন্দ্বী শিবির ব্রাজিলের সমর্থক যারা, তারা আর্জেন্টিনার সমর্থকদের ব্যঙ্গ-বিদ্রুপে জর্জরিত করার এই সুবর্ণ সুযোগটি পুরোপুরিই কাজে লাগাচ্ছেন। আর্জেন্টিনার এই শোচনীয় অবস্থার পর যারা দল বদলের কথা ভাবছেন, তাদের জন্য একটি আবেদনপত্র ছেড়েছেন ব্রাজিল সমর্থকরা!  কিভাবে দল হেরে গেল দ্রুত জার্সি পাল্টে বিজয়ী দলের সমর্থক বনে যাওয়া যায়, সেটার উদাহারণ হিসেবে একটি ভিডিও শেয়ার করছেন অনেকে। ক্রোয়েশিয়ার কাছে শোচনীয় হারের পর আর্জেন্টিনার সমর্থকরা এখন যেরকম হতাশ অবস্থায় আছেন, তাদের প্রতি বিশেষ নজর রাখা দরকার বলে মন্তব্য করেছেন বিপুল রহমান নামে একজন। "আপনার আশে-পাশে থাকা আর্জেন্টিনার সাপোর্টারদের সঙ্গ দিন। তাদের পানির বোতল এগিয়ে দিন, নেশা জাতীয় দ্রব্য থেকে দূরে রাখুন।"   আরেকটি ছবিও অনেকের ফেসবুক ওয়ালে দেখা যাচ্ছে। একজন আর্জেন্টিনা সমর্থক দলের বিপর্যয়ে অজ্ঞান হয়ে গেছেন! তার মাথায় পানি ঢালছেন এক ব্রাজিল সমর্থক। সূত্র: বিবিসি বাংলা     এসি   

প্রচারের মাঠে নেই বিএনপি জোটের শরীক দলগুলো

সিটি নির্বাচনের প্রচার প্রচারনায় মুখর গাজীপুর। আওয়ামী লীগ প্রার্থীকে জেতাতে মাঠে নেমেছে জাতীয় পার্টি, ওয়ার্কার্স পার্টি, জাসদ, ত্বরিকত ফেডারেশনসহ মহাজোটের নেতাকর্মীরা। জাহাঙ্গীর আলম জানিয়েছেন, নির্বাচনে ঐক্যবদ্ধ আওয়ামী লীগের সঙ্গে আছে মহাজোট। এদিকে বিএনপি প্রার্থী হাসানউদ্দিন সরকার দাবি করেছেন তার সঙ্গে আছে জামাত কর্মীরা। তবে প্রচারের মাঠে পাওয়া যায়নি বিএনপি জোটের শরীক দলগুলোকে। আওয়ামীলীগ প্রার্থীর নির্বাচনী প্রচারনায় জাতীয় পার্টির স্বতঃস্ফুর্ত অংশগ্রহন। গণসংযোগ, পথসভা-সমাবেশে জাহাঙ্গীর আলমের সঙ্গে গিয়ে ভোট চাইছেন জাতীয় পার্টির নেতা কর্মীরা। শুধু জাতীয় পার্টি নয় ওয়ার্কার্স পার্টিসহ অন্য দলের নেতাকর্মীরাও আছেন প্রচারের মাঠে। আওয়ামী লীগ প্রার্থীও জানালেন, নির্বাচনে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করছে আওয়ামী লীগ।  মহাজোটের দলগুলোর সমর্থনে উজ্জীবিত তিনি। এদিকে বিএনপি প্রার্থীর সভা সমাবেশে পাওয়া যায়নি শরিক দলগুলোর নেতা কর্মীদের। তবে হাসান উদ্দিন সরকারের দাবি, জামাতসহ জোটের দলগুলো তার সঙ্গেই আছে। পাল্টাপাল্টি অভিযোগে প্রচার চললেও জয়ের ব্যাপারে দুই প্রার্থীই আশাবাদী।   একে//

খালেদার মুক্তি দাবিতে রিজভীর নেতৃত্বে বিক্ষোভ মিছিল

কারাবন্দী খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি ও সুচিকিৎসার দাবিতে রাজধানীতে বিক্ষোভ মিছিল করেছে বিএনপিসহ অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা। মিছিলের নেতৃত্ব দেন দলটির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। শুক্রবার সকাল ৮টায় রাজধানীর কল্যাণপুরে তারা এ বিক্ষোভ মিছিল করে। মাত্র ১৫ মিনিটের ওই মিছিলটি কল্যাণপুর বাসস্ট্যান্ড থেকে শুরু করে শ্যামলী গিয়ে শেষ হয়। এ সময় রিজভী বলেন, এটা কোনো ঘোষিত কর্মসূচি নয়। আমাদের নেত্রী জেলে। আমরা প্রতিবাদের মধ্যে আছি। যে কেউ যেকোনো সময় ও স্থানে এই প্রতিবাদ মিছিল করতে পারে। মিছিলে ঢাকা মহানগর পশ্চিম বিএনপি, যুবদল, ছাত্রদল ও বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের প্রায় শতাধিক নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য, গত ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে দুর্নীতির একটি মামলায় সাজা পেয়ে কারাগারে রয়েছেন খালেদা জিয়া। তার মুক্তি দাবিতে তখন থেকেই শান্তিপূর্ণ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করে আসছে বিএনপি ও বিভিন্ন সংগঠন। একে//

গুলশান চেকপোস্টে পুলিশকে গুলি, সিসিটিভির ফুটেজে সেই দৃশ্য

গুলশান-১ নম্বরের গুদারাঘাট চেকপোস্টে গত শুক্রবার (১৫ জুন) পুলিশের তল্লাশির মুখে পড়ে দুই তরুণ। তল্লাশির একপর্যায়ে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ে তাদের একজন। হঠাৎ ছোড়া গুলিতে পিছু হটে পুলিশ। এই সুযোগে পালিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা। ধারণা করা হচ্ছে, ওইদিন উত্তর বাড্ডায় আওয়ামী লীগ নেতা ফরহাদ আলীকে গুলি করে হত্যার পর দুই সন্দেহভাজন খুনি গুলশান হয়ে পালাতে চেয়েছিল।গত শুক্রবার দুপুর ১টা ৫৪ মিনিটে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলির চালানোর এই ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থলের পাশেই রাস্তার ওপরে থাকা সিসিটিভির ফুটেজে দৃশ্যটি ধরা পড়ে।এর আগে উত্তর বাড্ডার বায়তুস সালাম জামে মসজিদের সামনে ফরহাদ আলীকে গুলি করে পালানোর সময় পাশের একটি ভবনে থাকা সিসিটিভি ফুটেজে একই পোশাকে থাকা দুজনকে চিহ্নিত করে পুলিশ। ওই ফুটেজে দেখা গেছে, দুই যুবক দৌড়ে পালাচ্ছে। সাদা টি-শার্ট পরা জুয়েল সামনে দৌড়াচ্ছে। পেছনে তাকে অনুসরণ করে যাচ্ছে লাল টি-শার্ট গায়ে মিরাজুল। জুয়েলের হাতে ছোট আগ্নেয়াস্ত্র দেখা যায়।ঘটনার ৩০ মিনিটেরও কম সময়ের ব্যবধানে গুলশান-১ গুদারাঘাট এলাকায় চেকপোস্টে তল্লাশির মুখোমুখি হয় অস্ত্রধারী জুয়েল ও মিরাজুল। চেকপোস্টের পাশে থাকা সিসিটিভি ফুটেজ বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, ১টা ৫৩ মিনিটে গুলশান-১ থেকে আসা একটি সিএনজি অটোরিকশাকে থামার নির্দেশ দেন চেকপোস্টের দায়িত্বে থাকা এক পুলিশ সদস্য। এসময় তার সামনে ও পেছনে উপস্থিত ছিলেন এপিবিএন এর আরও দুজন সদস্য। তাদের দুজনকেই রাইফেল হাতে দেখা গেছে। সিএনজি থেকে প্রথমে নেমে আসে মিরাজুল, তার পিছু পিছু জুয়েল।মিরাজুলকে পাশে রেখে জুয়েলকে তল্লাশি শুরু করেন ওই পুলিশ সদস্য। এসময় মিরাজুল প্রথমে ফুটপাতে কিছুসময় দাঁড়িয়ে থাকলেও পুলিশ সদস্য যখন জুয়েলকে তল্লাশিতে ব্যস্ত হয়ে পড়েন, তখনই মোবাইল ফোনে কিছু একটা করার ভান করে সামনের দিকে হেঁটে যেতে থাকে মিরাজুল।হেঁটে চলে যাওয়ার দৃশ্যটি চোখে পড়ার পর সিএনজির পেছনে থাকা এপিবিএন সদস্য মিরাজুলকে ডাক দেন। সঙ্গে সঙ্গে তৎপর হন সিএনজির সামনে থাকা এপিবিএন সদস্য। কাছে আসার জন্য ডাকা হয় মিরাজুলকে। এতে ফুটপাতের ওপরে থাকা ছাতার নিচে এসে দাঁড়ায় সে। এর পর মুহূর্তেই কোমর থেকে পিস্তল বের করে তাক করে পুলিশ সদস্যদের দিকে। পিছু হঁটেন পুলিশ সদস্যরা। এতে পালানোর সুযোগ পায় তল্লাশির মুখে থাকা জুয়েল। সে তখন সিএনজিতে লুকিয়ে রাখা পিস্তলটি নিয়ে গুদারাঘাটের দিকে দৌড়ে পালায়। জুয়েল দৌড় দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে পরপর দুই রাউন্ড গুলি ছুড়ে মিরাজুল। এতে আরও পেছনে নিরাপদ স্থানে সরে যান পুলিশ সদস্যরা। এসময় পালিয়ে যায় দুই সন্দেহভাজন। গুলশান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু বকর সিদ্দিক বলেন, ‘চেকপোস্টে নিয়মিত চেক চলছিল। উপস্থিত পুলিশ সদস্যরা জানতেন না বাড্ডাতে মার্ডার হয়েছে। ওই সময় একজন এএসআইয়ের নেতৃত্বে চারজন পুলিশ সদস্য ছিলেন। পুলিশের ওপর আক্রমণের ঘটনায় আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।’বাড্ডা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) নজরুল ইসলাম বলেন, ‘আমরা ধারণা করছি ফরহাদ আলীকে গুলি করে যারা পালিয়েছিল, তারাই গুলশান চেকপোস্টে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি করেছে।’এসএ/

আজ থেকে গোপালগঞ্জে জাতীয় নজরুল সম্মেলন শুরু

আজ থেকে জেলায় শুরু হচ্ছে তিন দিনব্যাপী জাতীয় নজরুল সম্মেলন। এ উপলক্ষ্যে ৫০ জন প্রশিক্ষণার্থীদের প্রশিক্ষণ ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।জানা গেছে, স্থানীয় শেখ ফজলুল হক মনি স্মৃতি মিলনায়তনে জাতীয় সম্মেলন নজরুল ইনিস্টিটিউটের উদ্যোগে এবং জেলা প্রশাসনের সহযোগিতায় জাতীয় নজরুল সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। এ উপলক্ষে পাঁচ দিনব্যাপী শুদ্ধ বাণী ও সুরে নজরুল সংগীত প্রশিক্ষক সৃজনের প্রশিক্ষণ কর্মশালা শুরু হয়েছে। জেলা শিল্পকলা একাডেমী হল রুমে ঢাকা থেকে আগত প্রশিক্ষকরা ৫০ জন প্রশিক্ষণার্থীদের প্রশিক্ষণ দিচ্ছেন।এ উপলক্ষে জেলা সার্কিট মিলনায়তনে স্থানীয় সাংবাদিকদের সাথে আযোজকদেও এক আলোচনা সভা হয়। এসময় নজরুল একাডেমীর উপ-সচিব রেজা উদ্দিন আহেম্মেদ, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আব্দুল্লাহ আল বাকী, জেলা তথ্য অফিসার হাসিবুল হাসান বক্তব্য রাখেন। এ আলোচনা সভায় এসএ টিভির বাদল সাহা, দেশ টিভির সলিল বিশ্বাস মিঠুসহ জেলার বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।২২ জুন সকাল সাড়ে ১০টায় জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সমানে থেকে একটি র‌্যালি বের করা হবে। র‌্যালী শেষে সম্মেলন উদ্বোধন করা হবে। পরে বিকাল সাড়ে ৫টায় আলোচনা সভা, পুরস্কার বিতরণ, তথ্যচিত্র প্রদর্শন এবং সন্ধ্যায় ৭টায় সাংস্কৃতিক অন্ষ্ঠুান অনুষ্ঠিত হবে। পরদিন ২৩ জুন বিকাল সাড়ে ৫টায় আলোচনা সভা, পুরস্কার বিতরণ, তথ্যচিত্র প্রদর্শন এবং সন্ধ্যায় ৭ টায় সাংস্কৃতিক অন্ষ্ঠুান অনুষ্ঠিত হবে। শেষ দিনে ২৪ জুন বিকেল সাড়ে ৫টায় আলোচনা সভা, পুরস্কার বিতরণ, তথ্যচিত্র প্রদর্শন এবং সন্ধ্যায় ৭টায় সাংস্কৃতিক অন্ষ্ঠুানের মাধ্যমে সম্মেলন শেষ হবে। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে ঢাকা থেকে আগত ও স্থানীয় শিল্পীরা অংশগ্রহণ করবেন। আগামী ২৪ জুন এ সম্মেলন শেষ হবে।সূত্র : বাসসএসএ/

আজ শুরু জাতীয় ফলদবৃক্ষ রোপণ পক্ষ ও ফল প্রদর্শনী

রাজধানীতে আজ থেকে শুরু হচ্ছে জাতীয় ফলদবৃক্ষ রোপণ পক্ষ ও জাতীয় ফল প্রদর্শনী। প্রদর্শনী চলবে ২৪ জুন পর্যন্ত। আর পক্ষ শেষ হবে ৬ জুলাই। দিবসটি উপলক্ষে এবারের প্রতিপাদ্য বিষয় হচ্ছে- ‘অপ্রতিরোধ্য দেশের অগ্রযাত্রা, ফলের পুষ্টি দিবে নতুন মাত্রা।’জাতীয় ফলদবৃক্ষ রোপণ পক্ষ ও জাতীয় ফল প্রদর্শনী উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পৃথক বাণী দিয়েছেন।‘বছরব্যাপী ফল উৎপাদনের মাধ্যমে পুষ্টি উন্নয়ন প্রকল্প’ পরিচালক মো. মেহেদী মাসুদ বলেন, রাজধানীর ফার্মগেটে কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশনের অডিটরিয়ামে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে। ফল প্রদর্শনী হবে খামারবাড়ির কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের আ কা মু গিয়াসউদ্দীন মিলকী অডিটরিয়াম চত্বরে। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের পর একই স্থানে ফলদ বৃক্ষ রোপণ ও এর পরিচর্যার ওপর একটি সেমিনার হবে। এই সেমিনারে জেলা ও উপজেলা পর্যায় থেকে ১০ জন সফল কৃষককে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে।সেমিনারে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক প্রধান অতিথি এবং কৃষিমন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত থাকবেন।এসএ/

গাজীপুরে ভোটের দিন কারখানা বন্ধ

সিটি করপোরেশনের নির্বাচনের দিন গাজীপুরের সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের সব কলকারখানা বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। বৃহস্পতিবার দুপুরে আগারগাঁওয়ের ইসি ভবনে ব্যবসায়ীদের সঙ্গে এক বৈঠকে এ আহ্বান জানানো হয়। বৈঠকে ব্যবসায়ীদের সংগঠন বিজেএমইএ, বিকেএমইএ, সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়সহ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। বৈঠক শেষে সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ বলেন, ‘গাজীপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ব্যবসায়ী সংগঠনের নেতাদের সঙ্গে বৈঠক হয়েছে। বৈঠকে নির্বাচন কমিশন ভোটের দিন ব্যবসায়ীদের গাজীপুরের সব কলকারখানা বন্ধ রাখাতে আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি আরও বলেন, গাজীপুরের ৫৭টি ওয়ার্ডের জন্য ৩৪ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। নির্বাহী হাকিম থাকবে ৫৭ জন, বিচারিক হাকিম থাকবে ১৯ জন, প্রতি কেন্দ্রে ২২ জন এবং গুরুত্বপূর্ণ কেন্দ্রে ২৪ জন করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য থাকবেন। ইসির নির্দেশনা কার্যকর করার জন্য পুলিশকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে জানান ইসি সচিব। কমিশনের নিজস্ব ৫৭ জন নির্বাচন পর্যবেক্ষক ছাড়াও দেশি-বিদেশি পর্যবেক্ষক থাকবেন বলে ইসি পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে। হেলালুদ্দীন আহমদ বলেন, আগামী ২৪ জুন রাত ১২টা থেকে জরুরি সার্ভিস ব্যতীত অন্য সব যানবহন বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। পণ্যবাহী ট্রাক, বিশেষ করে শিপমেন্ট ২৫ জুন মধ্যরাত থেকে ২৬ জুন মধ্যরাত পর্যন্ত বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এদিকে অ্যাম্বুলেন্স, ডাক বিভাগ, ফায়ার সার্ভিস ও সিটির ময়লাবাহী গাড়িগুলো জরুরি সার্ভিসের আওতায় পড়বে বলে জানানো হয়েছে।     এমএইচ/ এসএইচ/  

রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে আটক ২৪

রাজধানীর পুরান ঢাকায় মাদকবিরোধী অভিযান চালিয়ে ২৪ জনকে আটক করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত এই মাদক বিরোধী অভিযান চালানো হয়। পুলিশের ভাষ্য মতে, আটক ব্যক্তিদের মধ্যে দুজন তালিকাভূক্ত মাদক ব্যবসায়ী রয়েছেন। অভিযান নিয়ে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) লালবাগ বিভাগের উপ-কমিশনার (এডিসি) ইব্রাহিম খান গণমাধ্যমকে বলেন, আমরা শাঁখারীবাজার, রাজার দেউড়ি, বাসা বাড়ি লেনের সুইপার কলোনি এসব জায়গায় অভিযান চালিয়ে ২৪ জনকে আটক করেছি। আটক ব্যক্তিদের মধ্যে দুইজন তালিকাভুক্ত মাদক ব্যবসায়ী রয়েছে। তিনি আরও জানান, ঘটনাস্থল থেকে ২০৫ পিচ ইয়াবা, ২ হাজার ৫০০ পুরিয়া হেরোইন, ৬ কেজি গাঁজা, প্যাথেড্রিন ইনজেকশন ৪০টি এবং প্রায় ৫০ লিটার দেশি মদ জব্দ করা হয়েছে। আটক ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে।   এমএইচ/ এসএইচ/    

গাজীপুরের প্রার্থীরা প্রচার-প্রচারণায় ব্যস্ত (ভিডিও)

গাজীপুরে ভোটের দিন ঘনিয়ে আসার সাথে সাথে প্রচার-প্রচারণায় ভীষন ব্যস্ত মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীরা। সুষ্ঠু নির্বাচনে কমিশনকে সহযোগিতারও আশ্বাস দিয়েছেন প্রার্থীরা। এই আশ্বাসে শান্তিপূর্ণ নির্বাচনে আরো বেশি আশাবাদী হয়েছেন নগরবাসী। ভোটাররা চান উন্নত-আধুনিক, সন্ত্রাস ও মাদকমুক্ত নগরী। সেই প্রতিশ্র“তিও মিলছে দুই মেয়র প্রার্থীর কাছ থেকে। গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের নির্বাচনে নির্বাচন কমিশনকে সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীরা। প্রচারণার ৪র্থ দিনেও নির্বাচন ঘিরে গাজীপুর এখন উৎসবের নগরী। তবে ভোটাররা তাদের ভবিষৎ মেয়রের কাছে রাস্তাঘাটের উন্নয়ন, যানজট ও মাদক মুক্ত একটি সুন্দর নগরীর প্রত্যাশা করেন। মেয়র প্রার্থীরা ভোটারদের সমর্থন আদায়ে প্রতিশ্র“তির কার্পন্য করছেন না। প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থীর দোষ ত্র“টি তুলে ধরতেও ভুল করছেন না। নির্বাচনে জয় পরাজয় থাকবে বিরোধীতাও থাকবে কিন্তু নগরীর উন্নয়নে সবাই এক হয়ে কাজ করবেন-এই প্রত্যাশা নগরবাসীর।

ফরিদপুরে নতুন জাতের গম চাষে সফলতা (ভিডিও)

ফরিদপুর জেলায় এ’বছর ব্লাস্ট রোগ-সহনশীল নতুন জাতের গম চাষে সফলতা পেয়েছেন কৃষকেরা। উন্নত জাতের এ গমেরও ফলন হয়েছে ভালো। তবে উৎপাদন খরচ বেশি হওয়ায় সরকারের কাছে ন্যায্য দামের আশা করছেন কৃষকেরা। ব্লাস্ট রোগের কারনে ফরিদপুরে গত বছর গমের বেশ ক্ষতি হওয়ায় এবার আবাদ কমিয়ে দেন কৃষকেরা। আবাদ হয় ২৭ হাজার ৪শ’ ৭৫হেক্টর জমিতে। তবে এ বছর চারটি জাতের ব্লাস্ট রোগ সহনশীল গম চাষে সফলতা পেয়েছেন কৃষকেরা। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা সম্পন্ন এ গমের ফলনও বেশ ভালো। তবে উৎপাদন খরচ বেশি হওয়ায় ন্যায্য দাম নিয়ে চিন্তিত কৃষকেরা। রোগ সহনশীল নতুন এ জাতের গম চাষাবাদে উৎসাহ দিচ্ছে কৃষি বিভাগ। গম আবাদে দেশের অন্যান্য জেলার তুলনায় ফরিদপুর বেশ এগিয়ে রয়েছে।

© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি