ঢাকা, শুক্রবার, ২২ জুন, ২০১৮ ১৭:৩৪:২৭

চুরির দায়ে লজ্জায় লাল রিহানা

চুরির দায়ে লজ্জায় লাল রিহানা

লজ্জায় পড়লেন বিশ্বখ্যাত গায়িকা রিহানা। এক টেলিভিশন শো-তে এসে তিনি কঠিন ভাবে বিব্রত হন। দ্য গ্রাহাম নর্টন শো নামে ওই অনুষ্ঠানে সঞ্চালক সবার সামনে তাকে গ্লাস চুরির দায়ে অভিযুক্ত করেন। রিহানা নাকি বিভিন্ন পার্টি আর ক্লাবে গিয়ে হাতে করে দিব্যি পানপাত্র নিয়ে বেরিয়ে আসেন। ক্যামেরায় বারবার ধরা পড়েছে তার এই হাত সাফাইয়ের চিত্র। সঞ্চালক গ্রাহাম নর্টন রিহানার গ্লাস চুরির একের পর এক ছবি দেখিয়ে তাকে অপ্রস্তুত করে দেন। নার্ভাসভাবে ফ্যাকাসে হাসি হাসতে হাসতে রিহানা শুধু বলেন, অন্তত এক ক্ষেত্রে হোটেল থেকে নেওয়া গ্লাস ফেরত দিয়েছিলেন তিনি। নর্টন তো এ কথাও বলে দেন, যে রিহানার মধ্যে অপরাধের প্রবণতা রয়েছে। অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়া অন্যান্যদের এ কথা বলে সতর্ক করে দেন তিনি। শুধু মেয়েদের নিয়ে তৈরি একটি সিনেমাতে রিহানা কম্পিউটার হ্যাকারের চরিত্র করছেন। নিজের চুরির দৃশ্য দেখে ঘাবড়ে যাওয়া গায়িকা বলেন, আমার মাও এগুলো দেখতে পাবে। এসএ/
এমটিভি অ্যাওয়ার্ডে সেরা ‘ব্ল্যাক প্যান্থার’

এমটিভি চলচ্চিত্র ও টিভি অ্যাওয়ার্ডে সেরা সিনেমার পুরস্কার জিতেছে ‘ব্ল্যাক প্যান্থার’। সোমবার রাতে বিজয়ীদের তালিকা ঘোষণা করা হয়। এ আসরে সেরা পারফর্মেন্স, সেরা নায়ক, সেরা খলনায়ক ক্যাটাগরিতেও পুরস্কার জিতেছে ‘ব্ল্যাক প্যান্থার’ সিনেমাটি। সেরা অনস্ক্রিন টিমের খেতাব জিতেছে ‘ইট’`। আর সেরা অ্যাকশন সিনেমার পুরস্কার জিতেছে ‘অস্কার ওম্যান’। এ পুরস্কার আসরে সেরা অ্যাকশন দৃশ্য, পর্দায় সেরা চুমু`র মতো বিতর্কিত ক্যাটাগরিতেও পুরস্কার দেয়া হয়েছে। সেরা ড্রামা সিরিজ, পারফর্মেন্স, ভয়াল পারফর্মেন্স এবং সংগীতে সেরা মুহূর্ত বিভাগে পুরস্কার জিতেছে ‘স্ট্রেঞ্জার থিংস’। সেরা সংগীত প্রামাণ্যচিত্র নির্বাচিত হয়েছে ‘গাগা: ফাইভ ফুট টু’। আর সেরা রিয়েলিটি শোর খেতাব জিতেছে কিম কার্দাশিয়ানের ‘কিপিং আপ উইথ দ্য কার্দাশিয়ানস’। এসএ/

ডাক্তারের কাছে হেনস্থার শিকার কেটি পেরি!  

যৌন হেনস্থা নিয়ে একের পর এক হলিউডের অভিনেত্রীরা মুখ খুলছেন৷ সম্প্রতি আমেরিকান সঙ্গীতশিল্পী কেশা এবং ডাক্তার লিউকের মধ্যে আইনি বিবাদের মধ্যে হঠাৎ উঠে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য৷ কোর্টে জমা দেওয়া কয়েকটি নথিপত্রের থেকে জানা গেছে, লেডি গাগাকে মেসেজ করে কেশা জানিয়েছিলেন যে, ডাক্তার লিউক কেটি পেরিকেও ধর্ষণ করেছেন৷ লেডি গাগা এবং কেশার টেক্সট মেসেজের কথপোকথন নিয়ে ইতোমধ্যে নানা জল্পনা শুরু হয়েছে।   কথোপকথনের কোথাও ডাক্তার লিউকের নাম লেখা নেই ঠিকই৷ তবে মেসেজে মেনশন করা ছিল, যে কেশাকে ধর্ষণ করেছেন, সেই রেকর্ডিং আর্টিস্টই কেটিকেও ধর্ষণ করেছেন৷ এর থেকেই সকলে ধারণা করে নিয়েছেন যে কেশা, লিউকের কথাই বলেছেন৷ কেশার এই অভিযোগের পর, লিউকের আইনি টিম নিজেদের স্টেটমেন্ট দিয়েছেন৷ তাদের কথামতো, কেটি পেরি নিজে জানিয়েছেন, ডাক্তার লিউক কেটি পেরি ধর্ষণ করেননি৷ কেশার প্রতিটি অভিযোগ পুরোপুরি সাজানো, মিথ্যে৷ কেশা সাংঘাতিক মিথ্যেবাদী৷ ডাক্তার লিউকের বিরুদ্ধে প্রতিটি অভিযোগই মিথ্যে৷ কেশার কথাগুলি কেটি পেরি এবং ডাক্তার লিউক উভয়ের জন্যই অসম্মানের। লেডি গাগাকে, কেশা যে মেসেজগুলি করেন, তার ওপর ভিত্তি করে লেডি গাগা প্রেস কনফারেন্স ডেকে লিউকের বিরুদ্ধে নেগেটিভ কথা ছড়িয়েছিলেন৷ এমনকি সোশ্যাল মিডিয়াতেও লিউকের সম্বন্ধে বিভিন্ন ধরণের মন্তব্য করতে শুরু করেছিলেন৷ আদালতে জমা করা প্রতিটি ডকিউমেন্ট প্রকাশ্যে আসার পর ডাক্তার লিউকের আইনজীবি আরেকটি কেস জারি করেন৷ কেশার দায়িত্বহীনতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন তারা৷ এমনকি কেশা এও জানিয়েছিলেন, কেটি পেরি নাকি তাকে নিজে থেকে বলেছিলেন যে লিউক তাকে ধর্ষণ করেছেন৷ সূত্র: দ্যা গার্ডিয়ান  এমএইচ/এসি   

সন্তানদের অধিকার নিয়ে সমস্যায় অ্যাঞ্জেলিনা

ব্র্যাড পিট এবং অ্যাঞ্জেলিনা জোলির সম্পর্কের তিক্ততা আরও বাড়ল। বিচ্ছেদের পর থেকেই একে অপরের মুখ দেখাদেখি বন্ধ করে দিয়েছেন দুই তারকা। তাদের এই তিক্ততাভরা সম্পর্কে আরও ঝামেলা বাড়ল। সন্তানের আইনি অধিকার নিয়ে সমস্যার মুখে অ্যাঞ্জেলিনা এবং ব্র্যাড। অ্যাঞ্জেলিনার কিছু পদক্ষেপের কারণে তিনি হারাতে পারেন নিজের সন্তানদের প্রাথমিক অধিকার। কোর্টের রায়ের পরও অভিনেত্রী, ব্র্যাডের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিক করতে রাজি নন। তাদের সম্পর্ককে বাচ্চাদের কারণেই স্বাভাবিক রাখার রায় দেওয়া হয়েছিল। যার পর অ্যাঞ্জেলিনার পক্ষ থেকে কোনও প্রচেষ্টা দেখতে পাচ্ছে না আদালত। তাদের ডিভোর্স মামলা এখনও চলছে। সেটি চলাকালীনই বিচারপতি জানিয়েছিলেন, ‘ছয় বাচ্চার জন্য মা এবং বাবা উভয়ের সঙ্গেই সুস্থ সম্পর্ক বজায় রাখা সম্ভব হচ্ছে না।’ সে কারণেই অ্যাঞ্জেলিনাকে বলা হয়েছিল ব্র্যাডের সঙ্গে সুস্থ সম্পর্ক মেনটেন করতে। ব্র্যাডের পক্ষ থেকে কোনও সমস্যা দেখতে পায়নি আদালত। বরং ব্র্যাডের সঠিক পদক্ষেপের কারণে সন্তানদদের কাস্টাডি তিনিই পেতে পারেন। এ বিষয় অ্যাঞ্জেলিনা এবং ব্র্যাড কেউই এখনও পর্যন্ত কোনও মন্তব্য করেননি। পারিবারিক আইনজীবি ডেভিড গ্লাস এ কেসের সঙ্গে যুক্ত নন, তবুও তিনি জানিয়েছেন, ‘আদালতে এধরণের সিদ্ধান্ত খুব কমই নেওয়া হয়। আদালত এই কেসটিতে মারাত্মকভাবে হস্তক্ষেপ করেছেন ঠিকই। তবুও তারা চেষ্টা করছেনব যাতে অভিভাবকের সঙ্গে একজন বাচ্চারও বিচ্ছেদ না ঘটে। আমার মনে হয় বিচাপতি বিরহ এবং বিচ্ছেদের পার্থক্যটা ঠিক বুঝতে পারছেন না। যেমন বিরহ একটা আলাদা জিনিস। মা-বাবা কিছু করলে, তাতে সন্তানরা প্রভাবিত হয়। যেমন পিতা যদি সন্তানের ওপর চিৎকার করে ওঠে, বা ভালো ব্যবহার না করে, তাহলে সন্তান তখন বাবার সঙ্গে দূরত্ব বাড়াতে শুরু করে। এটার থেকে বিচ্ছেদ একেবারেই আলাদা জিনিস। যখন সন্তাকে মা-বাবার থেকে আলাদা থাকার আদেশ দেওয়া হয়, সেটাকে বিচ্ছেদ বলে।’ আদালত অ্যাঞ্জেলিনাকে আদেশ দিয়েছে যাতে তিনি ব্র্যাড ও ছয় সন্তানের সঙ্গে নিয়মিত দেখা করতে পারেন। প্রত্যেক গ্রীষ্মে ব্র্যাডের সঙ্গে সন্তানদের ছুটি কাটাতে দিতে হবে অভিনেত্রীকে। ফোনে বাচ্চাদেরকে ব্র্যাডের সঙ্গে কথা বলার অনুমতি দিতে হবে এবং এই প্রতিটি কাজই অভিনেত্রীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই করতে পারবে। উল্লেখ্য, অ্যাঞ্জেলিনা এবং ব্র্যাডের ছয় সন্তান। সব থেকে বড় ম্যাডক্স। তার ১৬ বছর বয়স। আরেকজন ম্যাক্স (১৪)৷ বাকিরা প্যাক্স (১৪), জাহারা (১৩), শিলো (১২) এবং সবথেকে ছোট নয় বছর বয়সী দুই জমজ ভিভিয়ান এবং নক্স। এসএ/

বিশ্ব সেরা আবেদনময়ী কেট আপটন

বয়স যখন মাত্র ১৬, ঠিক তখন থেকেই আলোচনায় আসেন কেট আপটন। সেদিন শখের বসে গিয়েছিলেন এলিট মডেল ম্যানেজমেন্ট কোম্পানির একটি কাস্টিং কল-এ। তাকে দেখে চিনে নিতে দেরি হয়নি এজেন্সির। সেদিনই তাকে চুক্তিবদ্ধ করে কোম্পানি। এর কয়েক দিনের মধ্যেই পাড়ি দেন নিউইয়র্ক। সেই থেকে শুরু। এর পরে আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি তাকে। হলিউড সিনেমা থেকে আন্তর্জাতিক ফ্যাশন ম্যাগাজিন ‘ভোগ’-এর কভার পেজের মডেল সবই তার হাতের মুঠোয়। সম্প্রতি ম্যাক্সিম ম্যাগাজিন তাকে পৃথিবীর সেরা যৌন আবেদনময়ীর তকমা দিয়েছে। ওই ম্যাগাজিনের সাম্প্রতিক ইস্যুতে প্রকাশিত হয়েছে এই বছরের হট হান্ড্রেড তালিকা। সেই তালিকায় কার্দাশিয়ান বোনেদেরও পেছনে ফেলে দিয়েছেন কেট। কেট আপটন জন্ম গ্রহণ করেন আমেরিকার মিশিগানে। স্পোর্টস ইলাস্ট্রেটেড-এর সুইমস্যুটে তার সিনেমা ঝড় তুলেছিল ২০১০-১১ সালে। ২০১১ সালেই তার একটি হিপ-হপ ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় লিক হতেই তার জনপ্রিয়তা তুঙ্গে উঠে। এরপর ২০১৪ সালে ইন্টারনেটে তার নগ্ন ছবি ফাঁস হওয়া নিয়ে প্রবল বিতর্কও তৈরি হয়। তবে সেই সব নিয়ে মাথা ঘামাননি কেট। মাত্র ২৬ বছর বয়সেই পৃথিবীর সর্বোচ্চ সম্মানির মডেল হিসেবে উঠে এসেছে তার নাম। আর ম্যাক্সিম হট হান্ড্রেড হওয়ার পরে স্বাভাবিক ভাবেই আরও বেড়েছে তার তারকামূল্য।   এসএ/  

টেনিস কোর্ট থেকে হলিউডে

রাশিয়ান টেনিস তারকা মারিয়া শারাপোভা। ফ্রেঞ্চ ওপেনে স্প্যানিশ গারবিন মুগুরুজার কাছে সরাসরি সেটে হেরে কিছুদিন আগেই কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বিদায় নিয়েছেন। টেনিস কোর্টে ব্যর্থ হলেও, কোর্টের বাইরে দারুণ সময় কাটাচ্ছেন এই সুন্দরি। এরই মধ্যে মুক্তি পেয়েছে তার অভিনীত হলিউড সিনেমা ‘ওশান ৮’। যদিও মূল কোনো ভূমিকায় নয়, ছোট্ট এক কেমিও দিয়েছেন শারাপোভা এই সিনেমায়। সিনেমা মুক্তি পেলেও শারাপোভা নিজেও অনেকটা দুশ্চিন্তায় ছিলেন তাকে ঘিরে ধারণ করা দৃশ্য নিয়ে। মূলতয়ঃ সিনেমায় অনেক বড় বড় তারকারাও ছোট ছোট ভূমিকায় ছিলেন। সেরেনা উইলিয়ামস, কিম কারদাশিয়ান, জ্যান মালিক, কেটি হোমসের মত তারকারাও ছিলেন এই সিনেমায়। তবে কানাডায় সিনেমাটি মুক্তির পরই শারাপোভার এক ভক্ত তার দৃশ্য ভিডিও করেও টুইটারে টুইট করে মজা করে লিখেন, ‘এবার অস্কার জিতে নাও মারিয়া!’ নিজের দৃশ্য সম্পর্কে নিশ্চিত হয়ে শারাপোভাও সঙ্গে সঙ্গে টুইটারে রিপ্লাই দেন। শারপোভা লেখেন, ‘সত্যিই আমি আছি মুভিতে? আমি আজই হলে যাচ্ছি!’ ২০০১ সালে মুক্তি পাওয়া ‘ওশান ইলিভেন’- সিনেমার সিক্যুয়েল এটি। এ সপ্তাহে সারা বিশ্বব্যাপী মুক্তি পেয়েছে সিনেমাটি। এসএ/

‘বিকিনি’কে বিদায় জানালো মিস আমেরিকা

যুক্তরাষ্ট্রের সেরা সুন্দরী নির্বাচনের আয়োজন, মিস আমেরিকা প্রতিযোগিতায় এখন থেকে আর বিকিনি পড়া কোন পর্ব থাকবে না। বিচারকদের সামনে বিকিনি পড়ে আর প্রতিযোগীদের আসতে হবে না।সান্ধ্যকালীন পোশাকের পর্বে প্রতিযোগীদের এমন পোশাক পড়ে আসতে বলা হবে, যা পড়ে তারা স্বাচ্ছন্য বোধ করেন এবং তাদের নিজস্ব ধরণ প্রকাশ পায়।এই তথ্য প্রকাশ করেছেন এই আয়োজনের সাবেক বিজয়ী গ্রেচেন কারসন।তিনি বলছেন, ‘আমরা এখন থেকে আর প্রতিযোগীদের শরীর দেখে তাদের বিচার করবো না। এটা একটি বিরাট অর্জন।’সাবেক এই মিস আমেরিকা বলেছেন, ‘আমরা আর কোন প্রদর্শনী নই, বরং এটা একটি প্রতিযোগিতা।’  সাঁতারের পোশাক পর্বের পরিবর্তে এ সময় প্রতিযোগীদের একটি সাক্ষাৎকার পর্ব হবে। যেখানে তাদের ভালোলাগা, বুদ্ধিমত্তা আর মিস আমেরিকা হিসাবে দায়িত্ব পালনের বিষয়ে প্রশ্ন করা হবে। তিনি বলছেন, ‘কে নিজেকে তুলে ধরতে না চায় বা নেতৃত্বের গুণাবলী শিখতে চায় অথবা কলেজের ফি দিতে চায়? সারা বিশ্বের কাছে কে নিজের ভেতরের গুণাবলী তুলে ধরতে না চায়? এখন থেকে আমরা এসবের ভিত্তিতেই তাদের বিচার করবো।’মিস আমেরিকার সাবেক নির্বাহী পরিচালক স্যাম হ্যাসকেল, প্রেসিডেন্ট জোশ র‍্যান্ডেল আর অন্য বোর্ড সদস্যরা অশ্লীল ইমেইল কেলেঙ্কারির জের ধরে গত বছর পদত্যাগ করেছেন।সেসব ইমেইলে এই কর্মকর্তারা সাবেক বিজয়ীদের চেহারা, বুদ্ধি আর যৌন জীবন নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্য করেছিলেন, যা হাফিংটন পোস্টে প্রকাশিত হয়।এরপরেই সব নারী প্রধান দলের মিস আমেরিকা সংস্থায় যুক্ত হন মিজ কারসন। ১৯৮৯ সালে তিনি মিস আমেরিকা হয়েছিলেন।২০১৯ সালের মিস আমেরিকা প্রতিযোগিতা মার্কিন টেলিভিশন এবিসি টেলিভিশনে সরাসরি প্রচারিত হবে ৯ সেপ্টেম্বর থেকে। সূত্র : বিবিসিএসএ/  

মানবহিতৌষী জোলির জন্মদিন আজ

অ্যাঞ্জেলিনা জোলি। (ইংরেজি : Angelina Jolie; জন্ম : অ্যাঞ্জেলিনা জোলি ভইট; ৪ জুন, ১৯৭৫)। একজন মার্কিন অভিনেত্রী, চলচ্চিত্র নির্মাতা ও মানবহিতৌষী। তিনি বেশ কয়েকবার গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কার, স্ক্রিন অ্যাক্টরস গিল্ড পুরস্কার এবং একবার একাডেমি পুরস্কার লাভ করেছেন। চলচ্চিত্র জগতের বাইরে ২০০১ সালে তিনি জাতিসংঘের শরণার্থী সংস্থার শুভেচ্ছাদূত মনোনীত হয়েছেন। বিশ্বব্যাপী মানবতার প্রচার, এবং বিশেষ করে শরণার্থীদের নিয়ে কাজ করার জন্য জোলি বিশেষভাবে সমাদৃত। একাধিকবার তিনি ‘বিশ্বের সেরা সুন্দরী’ নির্বাচিত হয়েছেন। রূপালী পর্দার অন্তরালে তার ব্যক্তিগত জীবন প্রায় সময়ই গণমাধ্যমে ব্যাপক প্রচার লাভ করেছে।১৯৮২ সালে লুকিন’ টু গেট আউট চলচ্চিত্রে বাবা জন ভইটের সঙ্গে একটি শিশু চরিত্রে অভিনয়ের মধ্য দিয়ে চলচ্চিত্র জগতে জোলির আবির্ভাব হয়। তবে পেশাদার চলচ্চিত্র অভিনেত্রী হিসেবে তার অভিষেক ঘটে স্বল্প বাজেটের সিনেমা সাইবর্গ ২ (১৯৯৩)-এ অভিনয়ের মাধ্যমে। তার অভিনীত প্রথম বড় মাপের চলচ্চিত্র হ্যাকারস (১৯৯৫)। এ সিনেমাতে তিনি নামভূমিকায় অভিনয় করেন। পরবর্তীতে তাকে জর্জ ওয়ালেস (১৯৯৭) ও জিয়া (১৯৯৮)-এর মতো সমালোচক-নন্দিত চলচ্চিত্রে অভিনয় করতে দেখা যায়। নাট্য চলচ্চিত্র গার্ল, ইন্টারাপ্টেড (১৯৯৯)-এ অনবদ্য অভিনয়ের জন্য তিনি সেরা পার্শ্ব অভিনেত্রী বিভাগে একাডেমি পুরস্কার লাভ করেন। ভিডিও গেম নায়িকা লারা ক্রফ্‌ট চরিত্র নিয়ে লারা ক্রফ্‌ট: টুম্ব রেইডার (২০০১) চলচ্চিত্রে অভিনয় তার তারকাখ্যাতি আরও বাড়িয়ে দেয়। মূলত এরপর থেকেই জোলি হলিউডের অন্যতম ও সর্বোচ্চ পারিশ্রমিক-প্রাপ্ত একজন অভিনেত্রী হিসেবে বিবেচিত হয়ে আসছেন। তার চলচ্চিত্র-জীবনের সর্বোচ্চ ব্যবসায়িক সাফল্য যে দুটি চলচ্চিত্র থেকে এসেছে সেগুলো হলো অ্যাকশন-কমেডিধর্মী মি. এন্ড মিসেস. স্মিথ (২০০৫) এবং অ্যানিমেশন চলচ্চিত্র কুং ফু পান্ডা (২০০৮)।ব্যক্তিগত জীবনে জোলি তিনবার বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়েছেন। প্রথমবার অভিনেতা জনি লি মিলার, দ্বিতীয়বার বিলি বব থর্নটন ও তৃতীয়বার ব্রাড পিটের সঙ্গে। পরবর্তীতে সকলের সঙ্গেই তার বিবাহবিচ্ছেদ ঘটে। জোলি-পিট যুগলের দাম্পত্য সম্পর্ক বিশ্বের গণমাধ্যমগুলোতে বারংবার আলোচিত হয়েছে। তাদের সন্তান-সন্ততির সংখ্যা ছয়; এর মধ্যে রয়েছে নিজেদের তিন সন্তান শিলোহ, নক্স ও ভিভিয়ান; এবং বিভিন্ন সময়ে দত্তক নেয়া তিন সন্তান ম্যাডক্স, প্যাক্স ও জাহারা।যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের লস অ্যাঞ্জেলেসে জোলির জন্ম। তার মা-বাবার নাম যথাক্রমে মার্শেলিন বার্ট্রান্ড ও জন ভইট; মা-বাবা উভয়েই ছিলেন পেশাদার অভিনয়শিল্পী। এছাড়া জোলির আত্মীয়বর্গের ভেতরেও সাংস্কৃতিক অঙ্গনের ছাপ সুস্পষ্ট। সম্পর্কের দিক থেকে জোলি, চিপ টেইলরের ভ্রাতুষ্পুত্রী, জেমস হ্যাভেনের বোন, এবং জ্যাকুইলিন বিসেট ও ম্যাক্সিমিলিয়ান শেলের ধর্মকন্যা। বাবার দিক থেকে জোলি চেকোস্লোভাকীয় ও জার্মান বংশোদ্ভূত। আর মায়ের দিক থেকে ফরাসি কানাডীয় বংশোদ্ভূত। তার মায়ের ভাষ্য অনুসারে তার মধ্যে ইরোকয় বংশের ছাপও বিদ্যমান। যদিও তাদের এমন কথার প্রেক্ষিতে ভইটের ভাষ্য, তার স্ত্রী বার্ট্রান্ড ‘ঠিক ইরোকয় নয়’, এবং তাঁর সাবেক স্ত্রীর বংশকে চমকপ্রদ হিসেবে প্রচার করার উদ্দেশ্য থেকেই তারা এমনটি বলে থাকে। আজ এই অভিনেত্রীর জন্মদিন। ইটিভি অনলাইনের পক্ষ থেকে অনেক অনেক শুভেচ্ছা। সূত্র : উইকিপিডিয়া এসএ/    

নতুন প্রেমিকের সঙ্গে ডেটে গেলেন প্রিয়াঙ্কা!

কেরিয়ারের শুরুর দিকে শোনা গিয়েছিল তিনি নাকি অক্ষয় কুমারের প্রেমিকা। আবার অনেকে বলেন, তিনি শাহরুখ খানকে ভালবাসেন বলে কখনও নাকি বিয়েই করবেন না! এ হেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া নাকি প্রেমে পড়েছেন। দিন কয়েক আগেই মার্কিন গায়ক নিক জোনসের সঙ্গে নাম জড়িয়েছিল প্রিয়াঙ্কার। এই দুই তারকা ডেট করছেন কিনা তা নিয়ে গসিপ হয়েছিল। ফের একবার এক সঙ্গে পাপারাত্‌জিদের ক্যামেরাবন্দি হলেন এই দুই তারকা। গত বৃহস্পতিবার রাতে নাকি ডিনারে গিয়েছিল নিক এবং প্রিয়াঙ্কা। ওয়েস্ট হলিউডে ‘টোকা মাদেরা’ রেস্তোরাঁয় রাত আটটা নাগাদ পৌঁছন যুগল। আগে থেকেই বুকিং ছিল। অন্য এক সূত্র জানিয়েছেন, সে দিন রেস্তোরাঁয় গল্পে মশগুল ছিলেন এই কাপল। অন্য কোনও দিকে নজর ছিল না তাদের। গত উইকেন্ডে ঘনিষ্ঠ বন্ধুদের নিয়ে নাকি পার্টিও করেছিলেন প্রিয়াঙ্কা-নিক। গত বছর ‘মিট গালা রেড কার্পেট’-এ প্রথম প্রকাশ্যে এক সঙ্গে দেখা যায় এই জুটিকে। রাল্ফ লাউরেনের পোশাকে নজর কেড়েছিলেন তারা। সে সময় নিককে প্রিয়াঙ্কা সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করা হলে নিক শুধু বলেন, ‘প্রিয়াঙ্কা ভালো মানুষ’। অন্যদিকে প্রিয়াঙ্কা বলেছিলেন, ‘আমরা দু’জনে রাল্ফের পোশাক পরব ঠিক করেছিলাম, সেটাই পরেছি। মজা হয়েছে।’ তথ্যসূত্র: আনন্দবাজার। এসএইচ/

এমা ওয়াটসনের প্রেমে ভাঙন

এমা ওয়াটসনের পরিচিতি বিশ্বব্যাপি। জনপ্রিয় হ্যারি পটার চলচ্চিত্রের বদৌলতে হারমায়োনি গ্রেঞ্জারের চরিত্রে অভিনয় করে বিশ্বখ্যাতি অর্জন করেছেন এমা ওয়াটসন। বছর তিনেক আগে তিনি প্রেমে পড়েছেন। এক সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার বন্ধু উইলিয়াম নাইটের সঙ্গে প্রেমে জড়ান এই ব্রিটিশ তারকা। গেল বছর সেই সম্পর্ক ভেঙে গেছে। প্রায় দীর্ঘ দু`বছর প্রেম করার পর বনিবনা না হওয়ায় এ সম্পর্ক আর টেকেনি। ছয় মাস আগে চোর্ড অভর্সট্রিটের প্রেম শুরু হয় তার। সেটি নিয়ে বেশ আলোচনাও হয়। আবারও ভাঙল এই প্রেমের সম্পর্কটাও। `দ্য সান`-এ দেওয়া এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, `তাদের মধ্যে কোনো যোগাযোগ হচ্ছে না এবং উভয়ই এখন একা।` এই যুগলের প্রথম দেখা হয় ২০১৭-এর শেষের দিকে। তখন এমা তার দুই বছরের সম্পর্কের ছেদ ঘটিয়েছিলেন উইলিয়াম নাইটের সঙ্গে। এরপরই এমা-চোর্ড প্রেমে পড়েন। এই যুগলের ঘনিষ্ঠতা ছিল ঈর্ষা করার মতো। এরপর তারা লস অ্যাঞ্জেলেসে দীর্ঘসময় অতিবাহিত করেন এবং আনন্দঘন মুহূর্তের স্থিরচিত্র ধারণ করেন। এটা ছিল মাত্র কয়েক মাস আগের ঘটনা। এখন সবই স্মৃতি। এসি  

ধর্ষণের অভিযোগে ওয়েনস্টেইনের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন

হলিউডের ‘মোঘল’ হিসেবে খ্যাত হার্ভি ওয়েনস্টেইনের বিরুদ্ধের ধর্ষণের অভিযোগে চার্জ গঠন করা হয়েছে। প্রায় অর্ধ বছর বিষয়টি আলোচনায় থাকার পর শেষ পর্যন্ত হার্ভির বিরুদ্ধে আনুষ্ঠানিক আইনী প্রক্রিয়ায় এই চার্জ গঠন করা হলো। গতকাল বুধবার নিউ ইয়র্কের ম্যানহাটন অপরাধ আদালতে এই চার্জ গঠন করা হয়। ম্যানহাটন জেলার অ্যাটর্নী কাইরাস ভেন্স বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেন। চার্জ গঠনের সময় আদালতে নিজ পক্ষের আইনজীবী বেঞ্জামিন ব্রাফম্যানসহ উপস্থিত ছিলেন হার্ভি ওয়েনস্টেইন। অ্যাটর্নী জেনারেল কাইরাস ভেন্স স্থানীয় গণমাধ্যমকে বলেন, “এই চার্জ গঠনের পরে ওয়েনস্টেইনকে তাঁর কৃতকর্মের জন্য আইনের কাছে জবাব দেওয়ার প্রক্রিয়া আরও এক ধাপ এগিয়ে গেল”। তিনি আরও বলেন, প্রথম ও তৃতীয় মাত্রার ধর্ষণ এবং অপরাধমূলক যৌন অপরাধের প্রথম মাত্রায় ওয়েনস্টেইনের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়েছে। এর আগে গত সপ্তাহের শুক্রবার ওয়েনস্টেইনকে আটকের নির্দেশ দেয় ম্যানহাটনের জেলা অপরাধ আদালত। সেই সাথে গতকাল বুধবার স্বশরীরে তাঁকে আদালতে উপস্থিত থাকার আদেশ দেয় আদালত। তবে এক লক্ষ মার্কিন ডলার ও শরীরে ‘ট্রাকিং ডিভাইস’ পরিধানের শর্তে জামিনে মুক্ত আছেন হার্ভি। সেইসাথে কানেক্টিকাট এবং নিউ ইয়র্কের বাইরে যেতে পারবেন না হলিউডের এই চলচিত্র প্রযোজক। ওয়েনস্টেইনের প্রধান আইনজীবী বেঞ্জামিন ব্রাফম্যান বলেন যে, তাঁর মক্কেল (ওয়েনস্টেইন) আদালতে নিজের নির্দোষ আবেদন করবেন। একই সাথে, গঠন করা চার্জের বিরুদ্ধেও আইনী প্রক্রিয়ায় জবাব দেওয়া হবে বলেও জানান তিনি। দুই নারী ওয়েনস্টেইনের বিরুদ্ধে এই ধর্ষণের অভিযোগসহ যৌন নির্যাতনের অভিযোগ আনেন। এরপর কয়েক মাসব্যাপী পুলিশ এই মামলার তদন্ত করে। পুলিশের দেওয়া তদন্ত প্রতিবেদনের ওপর ভিত্তি করেই হার্ভির বিরুদ্ধে চার্জ গঠন করা হয়। হার্ভি যদি শেষ পর্যন্ত এসব চার্জে দোষী সাব্যস্ত হন তাহলে তাঁর পাঁচ থেকে ২৫ বছর পর্যন্ত জেল হতে পারে। প্রসঙ্গত, গত বছর হার্ভির বিরুদ্ধে ঐ দুই নারী যৌন নির্যাতনের অভিযোগ জানানোর পরপরই চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়। একে একে ৭০ জন নারী হার্ভির বিরুদ্ধে একই ধরণের অভিযোগ আনেন। হলিউডের উমা থারম্যান, অ্যাশলে জুড, রোজ ম্যাকগোয়ান এবং সালমা হায়েকের মতো অভিনেত্রীরা হার্ভি ওয়েনস্টেইনের বিরুদ্ধে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ জানান। সূত্রঃ রয়টার্স //এস এইচ এস//    

স্বামীর কাছেও রহস্য গোপন রাখলেন ব্লেক লাইভলি

আগামী সেপ্টেম্বরে মুক্তি পাচ্ছে থ্রিলার ধাঁচের হলিউড সিনেমা ‘এ সিম্পল ফেভার’। সিনেমার মূল চরিত্র এমিলি ডিকেনসন। যে চরিত্রে অভিনয় করেছেন ব্লেক লাইভলি। সিনেমাটির ট্রেইলার প্রকাশ হওয়ার পর দর্শকরা এমিলি চরিত্রটির হঠাৎ নিখোঁজের কারণ বোঝার চেষ্টা করছেন। এসব কৌতূহলী দর্শকদের তালিকায় আছেন হলিউডের জনপ্রিয় তারকা রায়ান রেনোল্ডসও। এজন্য তিনি সাহায্য নিয়েছেন টুইটারের। স্বয়ং এমিলি চরিত্রে যিনি অভিনয় করেছেন তাকেই জিজ্ঞেস করেছেন এ প্রশ্ন। ব্লেক লাইভলি তার ভক্তের প্রশ্নে সাড়াও দিয়েছেন।২০১২ সালে বিয়ে করেন রায়ান ও ব্লেক। দুই সন্তান আছে তাদের সংসারে। সিনেমার কাহিনী জানতে দাম্পত্য জীবনকেই টেনে এনেছেন রায়ান। স্ত্রীকে ট্রল (খোঁচা) করে টুইটারে ‘ডেডপুল’ তারকা লিখেছেন, তুমি আমাকে অন্তত বলতে পার। আমরা স্বামী-স্ত্রী। বাচ্চা জন্মের সময় একবার হাসপাতালে তোমার পাশেও ছিলাম। তাই ... বল এমিলির কী হয়েছে?প্রশ্নের উত্তর দিলেও এমিলির রহস্যময় নিখোঁজের বিষয়টি স্বামীর কাছে প্রকাশ করেননি তিনি।সূত্র : ডেইলি মেইল এসএ/

© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি