p ১৮ মাস পর খুলল বশেমুরবিপ্রবির হল

ঢাকা, শনিবার   ২৭ নভেম্বর ২০২১, || অগ্রাহায়ণ ১২ ১৪২৮

১৮ মাস পর খুলল বশেমুরবিপ্রবির হল

বশেমুরবিপ্রবি সংবাদদাতা

প্রকাশিত : ১৭:৩৬, ৭ অক্টোবর ২০২১ | আপডেট: ১৭:৩৭, ৭ অক্টোবর ২০২১

দীর্ঘ ১৮ মাস পর বৃহস্পতিবার (৭ অক্টোবর) খুলে দেয়া হয়েছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বশেমুরবিপ্রবি) আবাসিক হল। এসময় ফুল, চকলেট, কলম আর মাস্ক দিয়ে শিক্ষার্থীদের বরণ করে নেন হল কর্তৃপক্ষ। 

উল্লেখ্য, করোনাভাইরাসের এক ডোজ টিকা নেয়ার শর্তে টিকা কার্ড বা সনদ দেখিয়ে স্নাতক শেষ বর্ষ ও স্নাতকোত্তর শিক্ষার্থীরা আবাসিক হলে ওঠার সুযোগ পেয়েছেন।

এ বিষয়ে বশেমুরবিপ্রবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. একিউএম মাহবুব বলেন, "স্বাস্থ্যবিধি মেনে আবাসিক শিক্ষার্থীদের হলে বরণ করে নেয়া হয়েছে। শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিতকরণসহ প্রয়োজনীয় সব দিকে আমাদের দৃষ্টিপাত থাকবে। পুরোদমে শিক্ষা কার্যক্রম শুরু করার লক্ষ্যে যারা এখনো টিকা নেয় নাই, সরকারের স্বাস্থ্য বিভাগ এবং জেলা সিভিল সার্জন অফিসের সঙ্গে সমন্বয় করে তাদের টিকা গ্রহণের জন্য অচিরেই আমরা বিশ্ববিদ্যালয়ে অস্থায়ী টিকা কার্যক্রম শুরু করতে পারি।"

প্রভোস্ট স্ট্যান্ডিং কমিটির সভাপতি ও শেখ রেহানা হলের প্রভোস্ট মো. রোকনুজ্জামান বলেন, "শিক্ষার্থীরা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণ। দীর্ঘদিন পর তাদের বরণ করে নেয়ার জন্য আমাদের যাবতীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন ছিলো। ছোট ছোট উপহারের মাধ্যমে আমরা তাদেরকে বরণ করে নিয়েছি। দীর্ঘদিন পর তারা ক্যাম্পাসে ফিরে আসায় আমরা অনেক বেশি আনন্দিত। শিক্ষার্থীরা আগে যে রকম সেবা পেত এই সময়ে তাদের স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করণসহ আরো বেশি সুযোগ সুবিধা নিশ্চিত করতে পারবো বলে আশা রাখছি।"

এদিকে দীর্ঘ দিন পর আবাসিক হল খুলে দেয়ায় যারপরনাই আনন্দিত আবাসিক শিক্ষার্থীরা। এক প্রতিক্রিয়ায় শেখ রাসেল হলের আবাসিক শিক্ষার্থী মিরাজ হোসেন বলেন, "করোনা মহামারির জন্য গত বছরের ১৮ মার্চ থেকে আমাদের আবাসিক হলগুলো বন্ধ করে দেয়া হয়। দীর্ঘদিন হল-ক্যাম্পাস বন্ধ থাকায় অনেক সহপাঠীকেই মানসিকভাবে ভেঙে পড়তে দেখেছি। দীর্ঘ প্রায় ১৮ মাস পর হল খুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়ায় এই লম্বা প্রতিক্ষণ পার করে প্রাণবন্ততা খুঁজে পেয়েছি আমরা। এটা এমন একটা অনুভূতি যাতে অন্যরকম ভালো লাগা কাজ করে। অসংখ্য ধন্যবাদ জানাই বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে আমাদের জন্য এমন সময়োপযোগী সিদ্ধান্ত নেয়ার জন্য।"

উল্লেখ্য, দেশে করোনা সংক্রমণ শুরু হলে ২০২০ সালের মার্চে অন্য সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সঙ্গে বশেমুরবিপ্রবি কর্তৃপক্ষ শ্রেণি কার্যক্রম ও আবাসিক হল বন্ধ করে। এরপর চলতি বছরের ২৮ সেপ্টেম্বর বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক কাউন্সিলের এক সভায় স্নাতক ৪র্থ ও স্নাতকোত্তর শিক্ষার্থীদের জন্য ৭ অক্টোবর থেকে হল খুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয় বশেমুরবিপ্রবি প্রশাসন। আগামী ২০ অক্টোবর থেকে হলে উঠতে পারবেন অন্যান্য বর্ষের শিক্ষার্থীরাও।

এনএস//


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি