ঢাকা, শনিবার   ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, || আশ্বিন ১০ ১৪২৮

স্বামীর ওপর ক্ষিপ্ত হয়ে কান্নায় ভেঙে পড়েন শিল্পা

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৭:০১, ২৭ জুলাই ২০২১

বলিউড নায়িকা শিল্পা শেঠির স্বামী রাজ কুন্দ্রার পর্নোগ্রাফি মামলায় ১৪ দিনের জেল হয়েছে। রাজের চারজন কর্মচারী সাক্ষী দেন এবং তারাই পুলিশকে জানান, রাজ কুন্দ্রাই তাদের পর্ন ভিডিও ক্লিপ মুছে ফেলতে বলেছিলেন। শোনা যাচ্ছে বলিউড অভিনেত্রী রাজ-পত্নী শিল্পা শেঠিকে আগেই জেরা করে মুম্বাই পুলিশের ক্রাইম ব্রাঞ্চ।

রাজকে পুলিশ হেফাজতে নেওয়ার পর তাদের বাংলো এবং রাজের অফিসে অভিযান চালায় পুলিশ। রাজকে সঙ্গে নিয়ে তার বাংলোয় তল্লাশি চালায় পুলিশ, পুলিশ সূত্রে জানা যাচ্ছে, জেরার সময় কান্নায় ভেঙে পড়েন রাজের স্ত্রী শিল্পা। রাজ কুন্দ্রার ব্যবসার সঙ্গে শিল্পা যুক্ত কিনা সেই বিষয় খতিয়ে দেখে পুলিশ, কেনরিন অ্যাপের সঙ্গে তার যোগাযোগ, ‘হটশটস’ অ্যাপ সব বিষয় নিয়েই প্রশ্ন করা হয় তাকে। অভিনেত্রীর সাফ কথা, এই বিষয়ে কিছুই জানতেন না তিনি। 

জেরার মাঝেই রাজ এবং শিল্পার মধ্যে তর্ক-বিতর্কও হয়। একটা সময় পর শিল্পা রাজের ওপর চিৎকার করে ওঠেন। তাকে প্রশ্ন করেন এই জাতীয় কাজ করার কী প্রয়োজন? এমন কাজের ফলে শুধুমাত্র পরিবারের নামই নষ্ট হয় নি, প্রচুর আর্থিক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। আবেগের বশে শিল্পা রাজকে এও বলেন, সমাজে তাদের একটা নাম রয়েছে। এরপরেও এই নিম্ন রুচির পরিচয় দেওয়ার, এই ধরনের কাজ করার কী প্রয়োজন ছিল?’ স্বামী-স্ত্রীর সমস্যার মাঝে শেষ পর্ষন্ত হস্তক্ষেপ করেন মুম্বাই ক্রাইম ব্রাঞ্চ। সেই সময় কাঁদতে কাঁদতে শিল্পা ক্রাইম বাঞ্চ টিমকে বলেন, রাজের এই অ্যাপ সম্পর্কে তিনি কিছু জানতেন না। 

মুম্বাই ক্রাইম ব্রাঞ্চ থেকে নিযুক্ত এক কর্মী রাজ ও শিল্পার আর্থিক দিকটি তদন্ত করছে। সেখানেই ‘তদন্তে উঠে এসেছে শিল্পা শেঠি এবং রাজ কুন্দ্রার যৌথ অ্যাকাউন্ট থেকে কোটি কোটি টাকার লেনদেন হয়েছে। মার্চ মাসে এই মামলায় ৯ জনকে গ্রেফতার করা হলে রাজ সতর্ক হয়ে যান এবং তার ফোন বদলে ফেলেন, এছাড়াও বিভিন্ন তথ্য লোপাটেরও চেষ্টা করেন। ভিডিও ডিলিট করার কথা স্বীকার করেছেন রাজের চার কর্মচারী। সেই ভিডিয়োগুলো এবার পুনরুদ্ধারের চেষ্টা করা হচ্ছে।

এসি

 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি