ঢাকা, সোমবার   ১২ এপ্রিল ২০২১, || চৈত্র ২৮ ১৪২৭

সংঘরাজ ড. ধর্মসেন মহাথেরোর অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর বাণী

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০০:০০, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ | আপডেট: ০০:০৯, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার বাংলাদেশের বৌদ্ধদের সর্বোচ্চ ধর্মগুরু সংঘরাজ ড. ধর্মসেন মহাথেরোর জাতীয় অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া আয়োজন উপলক্ষে বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের সকলের প্রতি আন্তরিক শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) এক বাণীতে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “বাংলাদেশের বৌদ্ধদের সর্বোচ্চ ধর্মীয় গুরু সংঘরাজ ড. ধর্মসেন মহাথেরোর জাতীয় অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া আয়োজন উপলক্ষে আমি বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের সকলের প্রতি আন্তরিক শুভেচ্ছা জানাচ্ছি।”

তিনি বলেন, বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ। মহান মুক্তিযুদ্ধে সকলে অংশ নিয়ে এদেশ স্বাধীন করেছে। বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীরা শান্তিপ্রিয় ও মানবিক আদর্শের অংশীদার। বাংলাদেশের মাটি ও মানুষের সঙ্গে মিশে আছে হাজার বছরের বৌদ্ধ ঐতিহ্য ও সংস্কৃতি। এদেশের বিভিন্ন স্থানে প্রাচীন বৌদ্ধ বিহার ও শিল্প সংস্কৃতির নিদর্শন বিদ্যমান রয়েছে। ধ্যান-জ্ঞান, শিক্ষা, সংস্কৃতিচর্চা এবং মুক্তি সংগ্রামে বৌদ্ধরা অসামান্য অবদান রেখেছেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, সংঘরাজ ড. ধর্মসেন মহাথের একজন অসাম্প্রদায়িক চেতনার মানুষ ছিলেন। দেশে আন্তধর্মীয় সম্প্রীতি প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে তিনি আজীবন কাজ করেছেন। তিনি ছিলেন বিনয় ও প্রজ্ঞার স্তম্ভ স্বরূপ। দেশে-বিদেশে সংঘসমাজ ও গৃহীসমাজের ঐক্য, সংহতি, সৌহার্দ্য ও শান্তি প্রতিষ্ঠায় তিনি ধর্মবাণীর মাধ্যমে উপদেশ দিয়েছেন। মহাকারুণিক তথাগত বুদ্ধের অমিয় মৈত্রী বাণী ও চতুরার্য সত্যের নির্মোহ ধারক-বাহক হিসেবে বৌদ্ধ তথা জাতির কাছে তিনি স্মরণীয় হয়ে থাকবেন।

প্রধানমন্ত্রী মহাথেরোর অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া অনুষ্ঠানের সার্বিক সাফল্য কামনা করেন।- বাসস

এসি

 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি