ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৯ অক্টোবর ২০২১,   কার্তিক ৪ ১৪২৮

ফেনীতে গৃহবধূকে নির্যাতনে হত্যার অভিযোগ

ফেনী প্রতিনিধি 

প্রকাশিত : ১২:২৮ পিএম, ৬ জুন ২০২০ শনিবার

ফেনীর ফুলগাজীতে যৌতুকের দাবিতে সালমা আক্তার (১৯) নামে এক গৃহবধূকে নির্যাতন করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। শুক্রবার (৫ জুন) সন্ধ্যায় উপজেলার বন্দুয়া হাজী স্টোর এলাকার ভুইয়া বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। 

গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ফেনী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করে পুলিশ।

নিহতের স্বজনরা জানান, চলতি বছরের জানুয়ারিতে ভুইয়া বাড়ির আবদুর শুক্কুরের ছেলে সিএনজি চালক নজরুল ইসলাম শামীমের সাথে একই উপজেলা সদর ইউনিয়নের বৈরাগপুর গ্রামের আবু তালেবের মেয়ে সালমা আক্তারের বিয়ে হয়। কিন্তু বিয়ের পর থেকে শশুর বাড়ির লোকজন যৌতুকের জন্য বিভিন্ন অজুহাতে শারীরিক ও মানসিকভাবে নির্যাতন করে আসছিল। ইতিমধ্যে তারা ২ লাখ টাকা দারি করলে ধাপে ধাপে ১ লাখ টাকা আদায় করে সালমার পরিবার। 

গতকালও স্বামীর পরিবার বিকাশের মাধ্যমে ১০ হাজার টাকা নেয়। একপর্যায় আরও এক লাখ টাকা চাইলে গৃহবধূ সালমা অস্বীকৃতি জানায়। এতে তারা বাকবিতাণ্ডায় জড়ায় এবং সালমাকে নির্যাতন করে হত্যার পর লাশ রেখে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়দের মাধ্যমে খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে।
 
এ ঘটনায় গৃহবধূর স্বামী, শাশুড়ি ও দেবরসহ  ৪ জনের বিরুদ্ধে রাতে ফুলগাজী থানায় যৌতুকের জন্য নির্যাতনের পর আত্মহত্যার প্ররোচনায় একটি মামলা করেন গৃহবধূর বাবা আবু তালেব।

এ ব্যাপারে ফুলগাজী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কুতুব উদ্দিন জানান, ‘লাশ উদ্ধারের সময় শশুর পক্ষের কেউ উপস্থিত ছিল না। তাই গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে নাকি শ্বাসরোধে করা হয়েছে সেটি ময়না তদন্তের পর জানা যাবে।’

এআই//