ঢাকা, শনিবার   ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯,   অগ্রাহায়ণ ২২ ১৪২৬

পান খেলে বাড়বে ক্যানসারের ঝুঁকি: গবেষণা

প্রকাশিত : ০২:৫৪ পিএম, ২৭ অক্টোবর ২০১৮ শনিবার | আপডেট: ০৩:০২ পিএম, ৩১ অক্টোবর ২০১৮ বুধবার

অতিথি আপ্যায়নের ক্ষেত্রে পান-সুপারির ব্যবহার অতি প্রাচীন। আসলে পানের সঙ্গে বাঙালির সম্পর্ক একেবারে ঘরোয়া। ধূমপান বা মদের নেশাকে অনেকে ‘অপরাধ’ বলেই মনে করেন। কিন্তু পান? আসলে পান পাতার উপকারিতা কিন্তু কম নয়। পান পাচন শক্তি বৃদ্ধি করে, রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করতে সাহায্য করে... আরও কত কী! কিন্তু পানের সঙ্গে সুপারি বা জর্দা (তামাক) যুক্ত হলে তা কিন্তু খুবই ক্ষতিকারক।

জেনে নেওয়া ভালো, ‘সালমোনেলা’ নামে ব্যাকটেরিয়া বা জীবাণু পানপাতা বাসা বাঁধে। এই জীবাণু পেটের নানা রোগ বাধায়। এ ছাড়াও সম্প্রতি এক গবেষণায় উঠে এসেছে আরও চাঞ্চল্যকর তথ্য। পান খাওয়ার নেশা বাড়াতে পারে ক্যানসারের আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি। পানের সঙ্গে সুপারি, জর্দা, চুন ইত্যাদির মিশ্রণেই মূলত ক্যানসারের ঝুঁকি রয়েছে বলে মত চিকিৎসকদের।

আন্তর্জাতিক ক্যানসার গবেষণা প্রতিষ্ঠান আইএআরসি-র মতে, চুন ও সুপারি দিয়ে পান খেলে মুখের ক্যানসার হতে পারে। তাই যারা পানের সঙ্গে তামাকজাতীয় দ্রব্যাদি গ্রহণ করেন, তাদের সাধারণের চেয়ে পাঁচগুণ বেশি ওরাল ক্যানসার হওয়ার আশঙ্কা থাকে। গবেষণায় দেখা গেছে, চুন, সুপারি, জর্দা দিয়ে পান খেলে মুখের ক্যানসারের ঝুঁকি ৯ দশমিক ৯ গুণ এবং জর্দা ছাড়া শুধু চুন, সুপারি, খয়ের দিয়ে পান খেলে ক্যানসারের ঝুঁকি ৮ দশমিক ৪ গুণ বেড়ে যায়। চুনে রয়েছে প্যারা অ্যালোন ফেনল, যা মুখে আলসার সৃষ্টি করতে পারে। বিশেষজ্ঞদের মতে, এ ধরনের ঘা ধীরে ধীরে ক্যানসারে রূপান্তরিত হতে পারে। এ ছাড়া কাঁচা সুপারিতে রয়েছে উচ্চমাত্রার সাইকোএকটিভ এলকালয়েড। এই কারণে শরীরে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। সুপারি চিবোলে শরীরে গরম অনুভূত হয়, এমনকি শরীর ঘেমে যেতে পারে। সুপারি খেলে হাঁপানির সমস্যা বেড়ে যেতে পারে, হাইপারটেনশন বা রক্তচাপ বেড়ে যেতে পারে। তাই বিশেষজ্ঞদের মতে, শুধু পান পাতা তেমন ক্ষতিকর না হলেও পান খাওয়ার আনুষাঙ্গিক উপাদানগুলো বাড়াতে পারে মুখের ক্যান্সারের ঝুঁকি।

সূত্র: জিনিউজ

একে//