ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ১৯ মে ২০২২,   জ্যৈষ্ঠ ৫ ১৪২৯

শেন ওয়ার্নের চতুর্মুখী যৌন-সংসর্গ ফাঁস, গণমাধ্যমে ঝড়

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৪:৫২ পিএম, ১ সেপ্টেম্বর ২০১৯ রবিবার | আপডেট: ০৫:১০ পিএম, ১ সেপ্টেম্বর ২০১৯ রবিবার

শতাব্দীর সেরা বল বেরিয়েছিল তার হাত দিয়েই। আবার বর্ণময় ভাবমূর্তির জন্যও তিনি সমান জনপ্রিয় ইংল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়ার নারীমহলে। আর এটাই অস্ট্রেলিয়ার সেই কিংবদন্তি লেগ স্পিনার শেন কিথ ওয়ার্নের বৈশিষ্ট্য!

১৩ বছর আগে ইংল্যান্ডে ঝড় তুলেছিল দুই ব্রিটিশ মডেলের সঙ্গে তার ত্রিমুখী যৌন-সংসর্গের ভিডিও। এবার সেই ‘রেকর্ড’ও ভেঙে দিলেন ৪৯ বছরের চিরতরুণ প্রাক্তন অস্ট্রেলীয় ক্রিকেটার!

লন্ডনের বাড়িতে এবার ত্রিমুখী নয়, চতুর্মুখী যৌন-সংসর্গ করে ব্রিটিশ ট্যাবলয়েডের পাতায় ঝড় তুলেছেন ওয়ার্ন। যে খবরের শিরোনাম হয়েছে— ‘হর্নি ওয়ার্নি’।

ক্রিকেটের পীঠস্থান লর্ডস থেকে ওয়ার্নের বাড়ির দূরত্ব মাত্র পাঁচ মিনিটের। ব্রিটিশ ট্যাবলয়েড ‘দ্য সান’ দাবি করেছে, সেই বাড়ির জানালা খোলা রেখেই বান্ধবী ও দুই যৌনকর্মীর সঙ্গে আদিম খেলায় মাতেন ওয়ার্ন। তার এই বিশেষ ‘খেলার’ আওয়াজে নাকি জেগে গিয়েছিল গোটা মহল্লাই। 

ট্যাবলয়েডটির আরও দাবি, ওয়ার্নের বাড়িতে দুই যৌনকর্মীকে ভাড়া করে নিয়ে আসেন স্বয়ং তার বান্ধবী। 

ট্যাবলয়েডের প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, এই দুই যৌনকর্মীর একজনের নাম দাভিনা। বাড়ি মল্ডোভিয়ায়। বয়স ১৯। তার পরনে ছিল খাটো কালো পোশাক। অপরজনের নাম পপি। ২৭ বছরের এই যৌনকর্মীর বাড়ি পূর্ব ইউরোপে। তিনি পরেছিলেন খোলামেলা টি-শার্ট। এদের দু’জনকে নিয়েই ওয়ার্নের বান্ধবীকে দেখা যায় সেই বাড়িতে ঢুকতে। তার পরনেও ছিল কালো ‘স্ট্রিং টপ’। 

তবে তার নাম কী, সে ব্যাপারে কোনও আলোকপাত করা হয়নি। ওয়ার্নের বাড়িতে দু’ঘণ্টা সময় কাটানোর পরে সেই বান্ধবী নিজের বিলাসবহুল গাড়ি করে নামিয়ে দিয়ে আসেন ওই দুই যৌনকর্মীকে। 
মহল্লার প্রত্যক্ষদর্শী কয়েকজন ওই ট্যাবলয়েডকে বলেন, ‘জানালা খোলা রেখেই তিন জন মহিলার সঙ্গে উদ্দাম যৌন-সংসর্গে মেতেছিলেন ওয়ার্ন। পাড়ার বাসিন্দাদের কে কী দেখতে বা শুনতে পাবেন, সে ব্যাপারে কোনও তোয়াক্কাই করেননি তিনি। জানালা খোলা থাকায় ঘরের ভিতরের সব শব্দই স্পষ্ট বাইরে আসছিল।’ 

সঙ্গে আরও যোগ করেন, ‘উত্তর-পশ্চিম লন্ডনে ওয়ার্নের প্রতিবেশীদের অনেকেই বিখ্যাত। কেউ কেউ পরিবার নিয়েও থাকেন সেখানে। সকলেই প্রায় বুঝে গিয়েছিলেন ওয়ার্নের ঘরের ভিতরে কী চলছে। মহল্লাটি প্রায় জেগে গিয়েছিল। সবচেয়ে বেশি শব্দ আসছিল পার্কিংয়ের দিকে থাকা বেডরুমের জানালা দিয়েই।’

কিন্তু যাকে নিয়ে এত ঘটনার ঘনঘটা, সেই ওয়ার্নই বিষয়টি নিয়ে নির্লিপ্তই রয়েছেন। বর্তমানে টিভি বিশেষজ্ঞ হিসেবে কর্মরত ওয়ার্নকে পরের দিন সকালে দেখা যায়, খালি পায়ে হেঁটে এসে নিজের গাড়িতে উঠছেন। যে ছবিও ওই ট্যাবলয়েডে প্রকাশিত হয়েছে। 

তবে নারীদের নিয়ে ওয়ার্নের এ রকম ঘটনার খবর এটাই প্রথম নয়। ১৯ বছর আগে ব্রিটিশ নার্স ডোনা রাইটকে অশ্লীল ফোন ও বার্তা পাঠিয়ে বিতর্কে জড়িয়ে ছিলেন তিনি। তার পরে ছোটবেলার বান্ধবী সিমোনের সঙ্গে বিবাহ বিচ্ছেদ হয় তার। এরপর ব্রিটিশ মডেল লিজ হার্লির সঙ্গে প্রণয় পর্ব। মূলত শেন ওয়ার্ন সব সময়েই খবরের শিরোনামে থেকেছেন খেলা ছাড়ার পরেও। সূত্র- আনন্দবাজার।

এনএস/