ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৪ জুন ২০২০,   জ্যৈষ্ঠ ২১ ১৪২৭

চলছে দূর্গা পুজার প্রস্তুতি (ভিডিও)

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০১:৩৮ পিএম, ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯ শনিবার

প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ততা বেড়েছে কুমোর পাড়ার শিল্পীদের। শারদীয় দূর্গোৎসবের বাকি আর মাত্র ১৯দিন। প্রতিমায় পড়ছে দোমাটির প্রলেপ। সৌহার্দ্যপূর্ন পরিবেশে উৎসব উদযাপনের সার্বিক প্রস্তুতি নিচ্ছেন আয়োজকরা।
শরতের সাদা কাঁশফুল আর শিউলি ফুলের সুঘ্রান জানান দিচ্ছে শারদোৎসবের আর বেশি দিন বাকি নেই। বছরের অপেক্ষা শেষে আবারও দেবী দূর্গার হিরন্ময়ী প্রভায় আলোকিত হবে পৃথিবী। সাথে থাকবেন লক্ষ্মী, স্বরস্বতী, কার্তিক আর গনেশ। পূজার আনুষ্টানিকতা আর উৎসব অনন্দে ভাসবে সনাতন ধর্মবলম্বীরা।
বাংলা ১০ই আশ্বিন এবং ইংরেজী ২৮ সেপ্টেম্বর মহালয়া। এদিন থেকেই শুরু দেবীপক্ষ। এখান থেকেই পূজোর ক্ষণ গনণা শুরু। পঞ্জিকা অনুযায়ী ৩ অক্টোবর মহাপঞ্চমী, পরদিন মহাষষ্ঠী পূজার মধ্য দিয়ে শারদীয় দূর্গোৎসবের মুল আনুষ্ঠনিকতা । ৮ অক্টোবর বিজয়া দশমীতে বিদায় নেবেন দেবী দূর্গা।
সব মিলিয়ে দূর্গা পূজার বাকি আর মাত্র ১৯দিন তাই দম ফেলার ফুরসত নেই প্রতিমা শিল্পীদের। তাদের নিপুন হাতে গড়ছেন প্রতিমার প্রতিটি অঙ্গ।
সময় যেহেতু খুব বেশি নেই তাই প্রতিটি প্রতিমাতেই পড়ছে দোমাটির প্রলেপ। দিনরাত এক করে নিপুন হাতের কারুকার্যে প্রতিমাগুলোকে ফুটিয়ে তুলছেন শিল্পীরা। 
এ বছর সারাদেশে দূর্গাপূজা হবে ৩১ হাজারেরও বেশি, আর রাজধানীতে প্রায় ৩শোর মত। দূর্গোৎসবের সার্বিক প্রস্তুতি নিচ্ছে সকল পূজা উদযাপন কমিটি।
এবার দেবী দূর্গার আগমন ঘটবে ঘটকে আর্থাৎ ঘোড়ায়, যাবেনও ঘোড়ায় চড়ে। তাই সমাজ-সংসারে অস্থিরতা, সম্ভাবনা রয়েছে দুর্যোগেরও। তবে দেবী দূর্গার আশির্বাদে ধরনীর সকলেই সুখ শান্তিতে থকবেন সে অপেক্ষায় পূন্যার্থীরা।