ঢাকা, শনিবার   ২৮ নভেম্বর ২০২০,   অগ্রাহায়ণ ১৩ ১৪২৭

এবার ইরানের টার্গেট আরব আমিরাত ও ইসরাইল

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৬:৫৮ পিএম, ৮ জানুয়ারি ২০২০ বুধবার

ইরাকে যুক্তরাষ্ট্রের ইরবিল ও আল-আসাদ বিমান ঘাঁটিতে ভয়াবহ মিসাইল হামলার পর এবার ইসরাইল এবং সংযুক্ত আরব আমিরাতে হামলার হুমকি দিয়েছে ইরান। তেহরান বলছে, যুক্তরাষ্ট্র যদি ক্ষেপণাস্ত্র হামলার প্রতিশোধ নেয় তাহলে দুবাই এবং ইসরায়েলে হামলা চালানো হবে।

এক ঘণ্টার ব্যবধানে দুটি মার্কিন ঘাঁটিতে অন্তত এক ডজন মিসাইল হামলা চালায় ইরান। বুধবার ভোরে ইরানের ভূমি থেকে ইসলামী রেভল্যুশনারি গার্ডের মিসাইলগুলো ছোড়া হয় বলে ফার্স নিউজের খবরে বলা হয়েছে। মার্কিন সেনাঘাঁটিতে মিসাইল হামলায় ৮০ জন নিহত হয়েছে বলে দাবি করেছে ইরান।

ইরানের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন চ্যানেলে বলা হয়েছে, দেশটির শীর্ষ কমান্ডার কাশেম সোলাইমানিকে হত্যার প্রতিশোধ হিসেবে এই হামলা চালানো হয়। ক্ষেপণাস্ত্র হামলার পাল্টা জবাব দিলে যুক্তরাষ্ট্রের অভ্যন্তরে হামলা চালানোরও হুমকি দিয়েছে ইরান।

রয়টার্স জানিয়েছে, ইরাকের মার্কিন ঘাঁটিতে হামলার মাধ্যমে প্রতিশোধের প্রথম ধাপ শুরু করেছে ইরান। যুক্তরাষ্ট্রের অন্যান্য অঞ্চলও তেহরানের হামলার হুমকিতে রয়েছে।

ইরানের সেনাবাহিনি আইআরজিসি-র টেলিগ্রাম চ্যানেলে সতর্ক করে বলা হয়েছে, ইরানের মাটিতে বোমা বর্ষণ করা হলে সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাই এবং ইসরাইলের হাইফায় হামলা চালাবে তেহরান।

সেনাবাহিনীর অন্য একটি সূত্র জানিয়েছে, যুক্তরাষ্ট্র যদি বেশী বাড়াবাড়ি করে তাহলে সরাসরি তাদের মাটিতেই হামলার পরিকল্পনাও ইরানের রয়েছে। বিষয়টি নিয়ে তাদের টার্গেট ঠিক করা রয়েছে বলে জানিয়েছে সূত্রটি।

ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আলী খোমেনি বলেছেন, ‘মিসাইল হামলা ছিল আমেরিকার সৈন্যদের জন্য একটি চপেটাঘাত’। তিনি এ অঞ্চল (মধ্যপ্রাচ্য) থেকে মার্কিন সেনাদের সরে যাওয়ার আহ্বান জানান।

মার্কিন প্রতিরক্ষা সদর দফতর পেন্টাগন এ হামলার কথা স্বীকার করলেও কোনো প্রাণহানির কথা জানায়নি।

এমএস/এসি