ঢাকা, রবিবার   ৩১ মে ২০২০,   জ্যৈষ্ঠ ১৬ ১৪২৭

চুয়াডাঙ্গায় বাল্যবিয়ে: কাজী ও কনের দুলাভাইকে দণ্ড

চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ০১:৩১ পিএম, ২১ জানুয়ারি ২০২০ মঙ্গলবার | আপডেট: ০১:৩৩ পিএম, ২১ জানুয়ারি ২০২০ মঙ্গলবার

চুয়াডাঙ্গায় বাল্যবিয়ে পড়ানোর অপরাধে কাজী নাজমুল হক হিরা ও সহযোগিতার জন্য কনের ভগ্নিপতিকে (দুলাভাই) কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। একই সাথে বরের বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলার জন্য সুপারিশ করা হয়েছে।

সোমবার (২০ জানুয়ারি) দিনগত রাত ১১টার দিকে জেলা শহরের আরামপাড়ায় বাল্যবিয়ের সময় হাতেনাতে আটকের পর অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমাণ আদালত কর্তৃক এ কারাদণ্ড দেয়া হয়। 

জানা যায়, চুয়াডাঙ্গা পৌর শহরের আরামপাড়ার বেলগাছি হাজিমোড় এলাকার খায়রুল হোসেনের মেয়ে সীমান্ত মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী অন্তরার সঙ্গে পার্শ্ববর্তী জেলা মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার হিজলবাড়ি গ্রামের সাইদুল হকের ছেলে ইটভাটার শ্রমিক শরীফ হোসেনের বিয়ের আয়োজন চলছে, এমন খবর পেয়ে চুয়াডাঙ্গা সদর থানার এসআই প্রসাদ কুমার চাকী সঙ্গীয় ফোর্সসহ রাত ১১টার দিকে বিয়ে বাড়িতে হাজির হন।

সাথে সাথে উপস্থিত হন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুহাম্মদ সাদিকুর রহমান। এ সময় বাল্যবিয়ে পড়ানোর অপরাধে চুয়াডাঙ্গা আরামপাড়ার দাউদ হোসেনের ছেলে কাজি নাজমুল হক হিরাকে দেড়মাস ও বিয়ের সহযোগিতার অপরাধে সদর উপজেলার আলুকদিয়া খেজুরবাগানপাড়ার হবিবুর রহমান হবির ছেলে কনের দুলাভাই ফরজ আলীকে একমাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেন আদালত। 

এ সময় বিয়ের পিঁড়িতে বসানো স্কুলছাত্রী অন্তরা খাতুনকে পিতার জিম্মায় দেয়ার জন্য পুলিশকে নির্দেশ দেন আদালাত। অপরদিকে, বর অপ্রাপ্ত বয়স্ক হওয়ায় তার বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলার সুপারিশ করা হয়।

এআই/