ঢাকা, সোমবার   ০৬ এপ্রিল ২০২০, || চৈত্র ২৩ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

‘আবাসন খাতে ক্রেতাদের আস্থা বেড়েছে’

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২২:২৫ ২১ ডিসেম্বর ২০১৭ | আপডেট: ১৯:১৫ ২৩ ডিসেম্বর ২০১৭

বছরব্যাপী মন্দাভাব থাকে আবানস খাতে। চলতি বছরে এখনও প্রায় আট হাজার ফ্লাট অবিক্রিত রয়েছে। তবে ইদানিং এ খাত অনেকটা মেলাকেন্দ্রীক হয়ে পড়েছে। আর এটিকে বেছে নিয়ে ব্যবসায়ীরা ক্রেতার সাদ ও সাদ্যের মধ্যেই ফ্লাট এবং প্লট নিয়ে হাজির হচ্ছেন। বর্তমানে দেশের বেসরকারি ব্যাংকগুলো থেকে সিঙ্গেল ডিজিটে আবাসন ঋণ দেয়া শুরু হলেও এখন পর্যন্ত সরকারি ব্যাংকগুলো এগিয়ে আসেনি, তাই মন্দা থেকেই যাচ্ছে এ খাতে। এ খাতের মন্দা কাটানোর পাশাপাশি সবার জন্য আবাসন নিশ্চিতে ২০ কোটি টাকার বিশেষ তহবিল দাবি করছেন খাত সংশ্লিষ্ট ব্যবসায়ীরা

এসব বিষয় নিয়ে একুশে টেলিভিশন অনলাইনের মুখোমুখি হয়েছেন আবাসন ব্যবসায়ীদের সংগঠন রিয়েল এস্টেট অ্যান্ড হাউজিং অ্যাসোসিয়েশন অফ বাংলাদেশের (রিহ্যাব) ভারপ্রাপ্ত সভাপতি নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন এমপি। ইটিভি অনলাইনে পক্ষে সাক্ষাৎকারটি নিয়েছেন ইয়াসির আরাফাত রিপন

একুশে টেলিভিশন অনলাইন: আবাসন খাতের বর্তমান অবস্থা কেমন?

নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন: আবাসন খাত অন্য যেকোন সময়ের চেয়ে বর্তমানে কিছুটা ভালো অবস্থায় আছে। পূর্বের তুলনায় এ খাতে বর্তমানে ক্রেতাদের আস্থার সংকট কেটেছে। আমরা আশা করি সরকারি-বেসরকারি ব্যাংকের সবস্থান পেলে সামনের দিনগুলোতে আরও ভাল অবস্থানে যাবে এ খাত।

একুশে টেলিভিশন অনলাইন: ব্যবসায়ীরা এ খাতের সমস্যার সমাধান হিসেবে ব্যাংত ঋণে এক অঙ্ক সুদে ঋণের ব্যবস্থার কথা বলছেন। এক অঙ্ক সুদে ঋণের ব্যবস্থা করলেই কি এ খাতের মন্দা কাটবে?

নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন: সব ব্যাংক থেকেই কম সুদে ঋণসুবিধা পাওয়া যায় না। এ কারণে মধ্যম আয়ের মানুষ ফ্ল্যাট কিনতে পারছেন না। এ জন্যও স্বল্প সুদে দীর্ঘমেয়াদি গৃহঋণ দরকার। এখন কিছু বেসরকারি ব্যাংক এগিয়ে আসছে। আমরা সরকারকে বার বার জানিয়েছি ব্যাংক ঋণের ব্যবস্থার জন্য। বিশেষ করে সরকারি ব্যাংক এগিয়ে আসলেই বলা যায় সমাধানের পথ পাওয়া যাবে।

একুশে টেলিভিশন অনলাইন: আগামী বাজেটে বিশেষ তহবিলের কথা বলছেন আপনারা, এতে ক্রেতা নাকি বিক্রেতারা বেশি লাভবান হবে?

নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন: আমরা সরকারের কাছে ২০ হাজার কোটি টাকার বিশেষ তহবিল চেয়েছি। এখান থেকে সাধারণ ক্রেতারা স্বল্প সুদে দীর্ঘমেয়াদি ঋণ সুবিধা পাবেন। এখান থেকে ক্রেতারা সুবিধা পেলে ব্যবসায়ীরাও সুফল পাবে। আমরা তহবিল চাই, সবার সুবিধার্তে, সবার জন্য আবাসন ব্যবস্থা করতে। তবে বলতে পারি ব্যবসায়ীদের চেয়ে ক্রেতারাই লাভবান হবে বেশি।

একুশে টেলিভিশন অনলাইন: এ খাতে অপ্রদর্শিত অর্থের (কালো টাকা) বিনিয়োগের কথা বলেন ব্যবসায়ীরা। এ অর্থের বিনিয়োগ হলেই কি দুর্নীতিকে সমর্থন করা নয়?

নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন: আমরা কখনই কালো টাকার পক্ষে কথা বলি না, এটাকে সমর্থনও করি না। আমরা চাই বৈধ পথে অর্জিত অপ্রদর্শিত টাকার বিনিয়োগ। কালো টাকার সঙ্গে আমাদের কারো সমর্থন নেই। দেশের মধ্যে যদি অপ্রদর্শিত টাকার বিনিয়োগ না হয় কাহলে এটি সেকেণ্ড হোমে চলে যাবে। দেশের বাইরে পাচার হবে।

একুশে টেলিভিশন অনলাইন: এ খাতে বিনিয়োগ কি পরিমাণ এসেছে?

নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন: প্রতি বছরই বাজেটে বৈধভাবে অর্জিত অপ্রদর্শিত আয়কে বিনিয়োগ করার সুযোগ দেওয়া হয়। তবে অর্থের উৎস নিয়ে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) প্রশ্ন থাকায় ক্রেতাদের মধ্যে আস্থা সৃষ্টি করা যাচ্ছে না। এই বাধাটির সুরাহ করা গেলে সরকারের রাজস্ব বৃদ্ধি পাবে।

পরিসংখ্যান বলছে ২০১৩ সালে বাংলাদেশ থেকে ৭৬ হাজার ৩৬১ কোটি টাকা পাচার হয়ে গেছে। পাচার হওয়া এই অর্থের বড় অংশ গেছে মালয়েশিয়া বা কানাডায় ফ্ল্যাট ও বাড়ি কেনায়। সরকারের সহযোগিতার সঙ্গে আমরা যদি সুযোগ তৈরি করে দিই, তবে দেশের টাকা দেশেই থাকবে। এতে সরকারের রাজস্বের পরিমাণও বাড়বে। এ বিষয়ে আমরা আগামীতে সরকারের সহযোগিতা কামনা করি।

একুশে টেলিভিশন অনলাইন: অভিযোগ রয়েছে প্রবাসীরা বিনিয়োগ করলে অনেকেই প্রতারিত হন। প্রতারিত হবে না এর নিশ্চয়তা কে দেবে?  

নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন: প্রবাসীরা বিনিয়োগ করলে প্রতারিত হবে না। বিনিয়োগের পর প্লট বা অ্যাপার্টমেন্ট না পেয়ে থাকলে রিহ্যাবের মেডিয়েশন সেলে অভিযোগ করলে সমাধান পাবে। তবে রিহ্যাব সদস্যের বাইরে কিছু হলে এর দায়ভার রিহ্যাব নেবে না। আমরা প্রবাসী ভাইদের প্রতি আহ্বান জানাবো আপনারা ভাল মানের কোম্পানির কাছে আপনাদের কষ্টার্জিত টাকা বিনিয়োগ করুন। এ ক্ষেত্রে অবশ্যই রিহ্যাব সদস্যভুক্ত কোন কোম্পানি হতে হবে।

একুশে টেলিভিশন অনলাইন: এ খাতের বর্তমান গ্যাস সংযোগ সমস্যা রয়েছে। এ বিষয়ে রিহ্যাব নেতা হিসেবে আপনার মতামত কী?

নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন: আবাসনে গ্যাস সংযোগ সমস্যা বড় কোন সমস্যা না। বিশ্বের অন্যান্য দেশেও সিলিন্ডারে গ্যাস ব্যবহার হয়ে আসছে। যেহেতু গ্যাসের মজুত ফুরিয়ে আসছে আমরাও বিল্ডিংয়ের নিচে সিলিন্ডারের ব্যবস্থা করছি। এ ধরনের কোন সমস্যাই এখাতকে বাধাগ্রস্ত করতে পারবে না। এগুলোকে কাটিয়েই এ খাত সামনের দিকে আরও এগিয়ে যাবে বলে ব্যবসায়ী মহল বিশ্বাস করে।

একুশে টেলিভিশন অনলাইন: আপনাকে ধন্যবাদ।

নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন: একুশে টেলিভিশন অনলাইনকেও ধন্যবাদ।

 

 

আর

New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি