ঢাকা, মঙ্গলবার, ২০ নভেম্বর, ২০১৮ ০:২০:১০

Ekushey Television Ltd.

গাঁজা সেবনকারী মায়েদের বুকের দুধেও টিএইচসি`র অস্তিত্ব

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৫:১৩ পিএম, ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮ মঙ্গলবার

চিন্তায় পরিবর্তন আনা গাঁজায় প্রধান উপাদানটি হলো টিএইচসি৷ সম্প্রতি এক গবেষণায় গাঁজা সেবনকারী মায়েদের বুকের দুধে সেই একই উপাদানের উপস্থিতি দেখতে পেলেন গবেষকরা৷গবেষণায় আরও দেখা গেছে, যুক্তরাষ্ট্রের অনেক নারী অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার সময় এবং প্রসবের পরে ওগাঁজা সেবন করেন৷

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, টিএইচসিতে এমন একটি রাসায়নিক পদার্থ আছে, যা মস্তিষ্কের বিকাশ বাধাগ্রস্ত করে, পাশাপাশি মস্তিষ্কের ক্ষতিসাধন করে৷ যদিও এই গবেষণায় বেশ কিছু ফাঁক রয়েছে৷ ছোট পরিসরে করা গবেষণায় ৫০ জন মা অংশগ্রহণ করেছিলেন, যাঁরা প্রথমে গাঁজা সেবন করেছেন এবং পরে গবেষকরা তাঁদের কাছ থেকে বুকের দুধের নমুনা সংগ্রহ করেন৷ সান দিয়েগো`র ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি গবেষণাগারে পরীক্ষাটি করা হয়েছে, যেখানে গবেষকরা ঐ মায়েদের বুকের দুধে স্বল্প মাত্রায় টিএইচসি পেয়েছেন৷ গত সোমবার শিশু চিকিৎসকদের একটি জার্নালে গবেষণা প্রতিবেদনটি প্রকাশ করা হয়৷

যুক্তরাষ্ট্রের ভার্জিনিয়া কমনওয়েলথ বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা ২০১৩ সালেই জানিয়েছেন, মারিজুয়ানা বা গাঁজা একটি নির্দিষ্ট মাত্রায় নিলে মৃগী বা এ ধরণের কিছু স্নায়ুরোগ থেকে দূরে থাকা যায়৷ বিজ্ঞান বিষয়ক সাময়িকী জার্নাল অফ ফার্মাকোলজি অ্যান্ড এক্সপেরিমেন্টাল থেরাপিউটিক্স-এ ছাপাও হয়েছে তাঁদের এই গবেষণালব্ধ তত্ত্ব৷

গবেষণা প্রতিবেদন যাঁরা লিখেছেন, তাঁরা বলছেন, গর্ভাবস্থায় এবং প্রসবের পরে বুকের দুধ খাওয়ানোর সময় গাঁজা সেবন করলে তা শিশুর মস্তিষ্ক বিকাশকে বাধাগ্রস্ত করে৷ তবে এটা নিয়ে মতভেদ আছে৷ কেননা, ৮০`র দশকে এ ধরনের দুটি পরীক্ষা হয়েছিল৷সেখানে একটি পরীক্ষায় গাঁজা সেবনকারী মায়েদের সন্তানদের মস্তিষ্কের বিকাশ পরীক্ষা করে কোনো ধরনের অস্বাভাবিকতা লক্ষ করা যায়নি৷ অন্যটিতে মস্তিষ্ক বিকাশে কিছুটা ধীর গতি লক্ষ করা গিয়েছিল৷

তবে বর্তমান গবেষণার গবেষকরা বলছেন, আগের তুলনায় গাঁজার সহজলভ্যতা বেড়েছে, তাই গ্রহণের মাত্রাও বেড়েছে, এ কারণে তাশিশুদের মস্তিষ্ক বিকাশে প্রভাব ফেলছে৷ তবে শিশু বিশেষজ্ঞরা বলছেন, শিশু গর্ভে আসার পর এবং ভূমিষ্ঠ হওয়ার পর মায়েদের অবসাদ হয়, সেটা কাটিয়ে উঠতে অনেকে গাঁজা সেবন করেন৷ তবে স্তন্যপান শিশুদের বিকাশে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে৷ তাই মা গাঁজা সেবন করে থাকলেও শিশুকে বুকের দুধ খাওয়াতে হবে৷ তাঁরা এর সমাধান হিসেবে মায়েদের কাউন্সেলিং করানোর কথা বলেছেন৷

যুক্তরাষ্ট্রের ৯টি রাজ্যে গাঁজা সেবন বৈধ, ৩১টি রাজ্যেচিকিৎসা সেবায় গাঁজার ব্যবহার করতে পারেন বাসিন্দারা৷ যুক্তরাষ্ট্রের সরকারী পরিসংখ্যান বলছে, দেশটির প্রতি ২০ জনের মধ্যে একজন নারী গর্ভাবস্থায় গাঁজা সেবন করেন৷ গত বছর কেন্দ্রীয় উপদেষ্টাদের একটি প্যানেল এই সিদ্ধান্তে উপনীত হন যে, গাঁজা সেবনের ফলে কী ধরনের স্বাস্থ্য ঝুঁকি হয়, তা নিয়ে গবেষকরা সঠিক তথ্য-প্রমাণ উপস্থাপন করতে ব্যর্থ হওয়ায় এটি গ্রহণের প্রবণতা বাড়ছে৷

সূত্র, আন্দনবাজার
টিআর/



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি