ঢাকা, মঙ্গলবার   ০৪ আগস্ট ২০২০, || শ্রাবণ ২০ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

চোখের ফোলাভাব কমাবেন যেভাবে

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১২:৪০ ১৭ জুন ২০১৭ | আপডেট: ১৩:০১ ১৮ জুন ২০১৭

ক্লান্তি, মানসিক চাপ কিংবা দুঃশ্চিন্তার কারণে চোখের নিচে ফোলাভাব দেখা দিতে পারে। যা চেহারার সৌন্দর্য নষ্ট করে এবং বয়সের ছাপ পড়ে। তবে চিন্তার কিছু নেই, প্রাকৃতিক উপকরণ দিয়েই কমানো যায় এই ফোলাভাব। কয়েকটি প্রাকৃতিক উপাদান সম্পর্কে যা ব্যবহার করে কমানো যায় চোখের ফোলাভাব।

আলু

এতে আছে ‘ক্যাটেকোলেইস’ নামক উপাদান যা চোখের নিচের ফোলাভাব কমাতে সাহায্য করে। এর পুষ্টি উপাদান, ভিটামিন এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ত্বক দৃঢ়, কোমল ও উজ্জ্বল করতে সাহায্য করে।

একটি মাঝারি মাপের আলু টুকরা করে কেটে তা রেফ্রিজারেইটরে ৩০ মিনিট রেখে দিন। চোখের ফোলা অংশের উপর টুকরা করা আলু রেখে ১৫ মিনিট অপেক্ষা করুন। এরপর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

লবণ-গরম পানি

একটি বাটিতে কুসুম গরম পানি নিয়ে তাতে খানিকটা লবণ মেশান। এতে দুইটি তুলার বল ভিজিয়ে তা চোখের উপর দিয়ে রাখুন। তুলার বল ঠাণ্ডা হয়ে এলে তা আবার পানিতে ভিজিয়ে চোখের উপর দিন। আধ ঘণ্টা ধরে এই পদ্ধতি অনুসরণ করুন।

ডিমের সাদা অংশ

চোখের চারপাশের ত্বক টানটান রাখতে ডিমের সাদা অংশ সাহায্য করে, এতে বলি রেখা কম দেখা যায়।

দুয়েকটি ডিমের সাদা অংশ ভালোভাবে ফেটে ব্রাশের সাহায্যে চোখের চারপাশে লাগান। ১০ মিনিট পরে ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

দুধ

দুধের অ্যামিনো অ্যাসিড চোখের নিচে ফোলাভাব কমায় এবং ‘ফ্যাট’ চোখে আরাম অনুভব করতে সাহায্য করে। পাশাপাশি দুধ চোখের জলীয়ভাব রক্ষা করে। দুটি তুলার প্যাড ঠাণ্ডা দুধে ভিজিয়ে চোখের উপরে রাখুন। ২০ মিনিট অপেক্ষা করে ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।   

শসা

 এটি চোখের প্রদাহ কমায় এবং ত্বক টানটান রাখতে সাহায্য করে। শসার এনজাইম এবং অ্যাস্ট্রিনজেন্ট চোখ শীতল রাখতে সাহায্য করে। একটি শসা পাতলা করে কেটে ২০ মিনিট রেফ্রিজারেইটরে রাখুন। এরপর চোখের উপর রেখে ১০ মিনিট অপেক্ষা করুন। দিনে কয়েকবার এই পদ্ধতি অনুসরণ করুন।

সূত্র : এভরিডেহেলথ।


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি