ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ১১ আগস্ট ২০২২

বার বার ঘুমানো ভাঙা শরীরের জন্য বেশি ক্ষতিকর

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৬:০১, ৬ আগস্ট ২০২২

শরীরের জন্য ঘুম খুব প্রয়োজনীয় একটি বিষয়। তবে এ ঘুম যদি কম বা বেশি হয় তাও ক্ষতির কারণ। সাধারণত প্রাপ্তবয়স্কের দিনে সাত থেকে আট ঘণ্টা ঘুমের প্রয়োজন। কিন্তু নানা কারণে অনেকেরই তার চেয়ে কম ঘুম হয়। কেউ কেউ কাজের চাপে অথবা বিনোদনের জন্য না ঘুমিয়ে কাটিয়ে দেন। কিন্তু কম ঘুম বহু শারীরিক সমস্যা ডেকে আনতে পারে। 
 
কম ঘুমোলে রক্তচাপ বেড়ে যাওয়া, স্নায়ুর সমস্যা তো আছেই, তার সঙ্গে অবসাদের সমস্যাও বাড়তে পারে। অনেকেই আছেন যারা ঘাটতি পূরণ করতে বার বার ঘুমান। কিন্তু এতেও ক্ষতি হতে পারে। এমন দাবি করছে হালের গবেষণা।

সম্প্রতি আমেরিকার ‘জন হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়’র গবেষকরা পরীক্ষা করে দেখেছেন, বার বার ঘুম ভেঙে গেলে তা শরীরের মারাত্মক ক্ষতি করে। সেই ক্ষতির পরিমাণ কম ঘুমের চেয়েও বেশি।

পরীক্ষার জন্য গবেষকরা ৫০ জন স্বেচ্ছাসেবীকে বেছে নিয়েছিলেন। তাদের দু’টি দলে ভাগ করা হয়। প্রথম দলের সদস্যদের জোর করে দীর্ঘক্ষণ জাগিয়ে রাখা হয়। কিন্তু একবার ঘুমিয়ে পড়লে, তাদের আর বিরক্ত করা হয় না। দ্বিতীয় দলের সদস্যদের তাড়াতাড়ি ঘুমোতে যেতে দেওয়া হলেও বার বার ঘুম ভাঙানো হয়।

টানা তিন রাত দু’টি দলকে একই পরিস্থিতির মধ্যে রেখেছিলেন চিকিৎসকরা। সেখান থেকে যে ফলাফল পাওয়া গিয়েছে, তা নথিবদ্ধ করা হয়েছে গবেষণাপত্রে। 

আন্তর্জাতিক ‘স্লিপ’ জার্নালে প্রকাশিত গবেষণাপত্রে বলা হয়েছে, যাদের ঘুম বার বার ভেঙেছে, তাদের মনে কাজের ইচ্ছা কমছে। মন ভাল থাকছে না। যারা প্রয়োজনের চেয়ে কম ঘুমিয়েছেন, তাদের ক্ষতির পরিমাণ কিন্তু এদের তুলনায় কম।
সূত্র: আনন্দবাজার অনলাইন 
আরএমএ/ এসএ/


Ekushey Television Ltd.

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি