ঢাকা, বুধবার   ১৬ অক্টোবর ২০১৯, || কার্তিক ১ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

সুস্থ থাকতে দইয়ের চেয়ে ঘোল ভালো

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১০:৪৬ ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯

সবার কাছেই দই পরিচিত কিন্তু ঘোল নতুন প্রজন্মের কাছে তেমন পরিচিত নয়। যারা সকালে মর্নিং ওয়ার্কে বেড় হন তারা কিন্তু ঠিকই চিনেন ঘোল। রাস্তার বিভিন্ন মোড়ে মোড়ে ঘোল-মাঠা নিয়ে বসা হয়। যদিও আগে মিষ্টির দোকানের একটি আইটেম ছিল এই ঘোল। 

দই বা ঘোল দুটোই শরীরের পক্ষে উপকারী। দই থেকেই তৈরি হয় ঘোল। কিন্তু জানেন কি, দইয়ের থেকেও এক গ্লাস ঘোল স্বাস্থ্যের জন্য অনেক বেশি কার্যকর?

দইকে পাতলা করেই ঘোল বানানো হয়। তাই ঘোল অনেক সহজে হজম হয়। জলীয় উপাদান বেশি থাকায় ঘোল দইয়ের থেকে শরীরের বেশি হাইড্রেট করে। এছাড়া ঘোলের আরও কয়েকটি উপকারিতা রয়েছে। যা দইয়ের মধ্যে পাওয়া যায় না। এবার তা জেনে নিন-

* তেল-মশলাদার খাবার খাওয়ার পরে এক গ্লাস ঘোল পাকস্থলীকে আরাম দেয়। মশলাদার খাবার হজম করতে সাহায্য করে ঘোল।

* শরীরের ফ্যাট গলাতেও সাহায্য করে ঘোল।

* দুধে সমস্যা আছে, এমন মানুষরাও ঘোল খেতে পারেন। যারা ল্যাকটোস ইনটলারেন্ট, তারাও ক্যালসিয়ামের জন্য নিয়মিত ঘোল খেতে পারেন।

* ঘোলের মধ্যে থাকা ভিটামিট শরীরের জন্য অত্যন্ত উপকারী।

* যারা হাই ব্লাডপ্রেসারে ভোগেন তাদের জন্যও ঘোল উপকারী।

* ঘোলের মধ্যে অ্যান্টিভাইরাল, অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টিক্যান্সার উপাদান রয়েছে। তাই নিয়মিত ঘোল খেলে অসুখ-বিসুখ কম হয়।

তবে যাদের ডায়েটে ফ্ল‌ুইড রেস্ট্রিকশন রয়েছে তাদের জন্য ঘোল নয়, দই বেশি উপকারী। এছাড়া যারা অপুষ্টিতে ভুগছেন, তারাও ঘোল না খেয়ে দই খাবেন।

এএইচ/

© ২০১৯ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি