ঢাকা, বুধবার   ২১ এপ্রিল ২০২১, || বৈশাখ ৮ ১৪২৮

‘একাত্তরের পরাজিত শক্তিরা বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করেছিল’

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২১:১৬, ১১ আগস্ট ২০১৮

 

শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বলেছেন, দেশীয় ও আন্তর্জাতিক ষড়যন্ত্রকারীদের চক্রান্তের মধ্য দিয়ে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা হয়েছিল। হত্যাকারীরা ছিল একাত্তরের পরাজিত শক্তি। আজ শনিবার বিকেলে ঝালকাঠি শহরের রোনাল্ডসে সড়কে বঙ্গবন্ধুর ৪৩তম শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবসের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ সব কথা বলেন।

জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত সভায় আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মো.সিদ্দিকুর রহমানের সভাপতিত্বে সভায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন সাধারণ সম্পাদক খান সাইফুল্লাহ পনির, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র লিয়াকত আলী তালুকদার, জেলা শ্রমিক লীগের সভাপতি মোবারক হোসেন মল্লিক প্রমুখ

শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু আরো বলেন, খুনি ফারুক-রশিদরা আন্তর্জাতিক মিডিয়ায় সাক্ষাৎকার দিয়ে হত্যাকান্ডের স্বীকারোক্তি দিয়েছিল। তারা ভেবেছিল বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা মানে আওয়ামী লীগকে নিশ্চিহ্ন করা। খুনিরা মনে করেছিল কখনো কোন দিনও খুনিদের বিচার হবে না ও আওয়ামী লীগ কোনদিন ক্ষমতায় আসবে না। কিন্তু সব হয়েছে বাংলার মাটিতে খুনিদের বিচার হয়েছে।

বঙ্গবন্ধুর পরে জাতীয় চার নেতাকেও পরাজিত শক্তিরা হত্যা করেছিল উল্লেখ করে শিল্পমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধুর খুনিরা মনে করেছিল আন্তর্জাতিক শক্তির বলয়ে রেহাই পেয়ে যাবেন। কারণ পরবর্তীতে যারা ক্ষমতায় বসেছিল, তারা বলেছিল আওয়ামী লীগ আর ক্ষমতায় যেতে পারবে না।

সেই আশার ওপর ভরসা করেই তারা বঙ্গবন্ধুকে হত্যার কথা স্বীকার করেছিল। পরে তারা জাতীয় চার নেতাকেও নির্মমভাবে হত্যা করে। এই হত্যাকাণ্ডের মধ্যদিয়ে স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্ব ও মানুষের অধিকারকেও হত্যা করা হয়েছিল উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা ক্ষমতায় এসে তার পিতার মত মানুষের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছেন। দেশ আবার এগিয়ে যাচ্ছে ও উন্নত হচ্ছে।

 

তথ্যসূত্র: বাসস।

 

এমএইচ/ এসএইচ/


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি