ঢাকা, শনিবার   ০৩ ডিসেম্বর ২০২২

‘আওয়ামী লীগ আমার রক্তে, বাইরে থাকার সুযোগ নেই’ (ভিডিও)

ফারজানা শোভা, একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১১:৫৭, ২৮ আগস্ট ২০২২

আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে আবারও সক্রিয় হতে চান তানজীম আহমেদ সোহেল তাজ। তিনি জানিয়েছেন, দুর্নীতি, স্বজনপ্রীতি আর তদবিরমুক্ত হতে পারলে আওয়ামী লীগই পারবে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে। বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এই যাত্রায় তিনিও সামিল হতে চান। 

প্রথমবার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন ২০০১ সালে। বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের সময় অন্যায়ের বিরুদ্ধে সোহেল তাজের কন্ঠ ছিলো উচ্চকিত। হামলা-মামলা-নির্যাতনেও দমেননি তিনি। 

নবম সংসদ নির্বাচনে কাপাসিয়া থেকে দ্বিতীয়বার এমপি নির্বাচিত হন। ২০০৯ সালে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করার পর স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব পান বাংলাদেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী তাজউদ্দিন আহমেদের ছেলে তানজীম আহমেদ সোহেল তাজ। কিন্তু ৫ মাসের মধ্যেই পদত্যাগ করেন তিনি। বছর তিনেকের মধ্যেই সংসদ সদস্য পদ থেকেও সরে দাঁড়ান।

বছর দুই আগেও গণমাধ্যমকে জানিয়েছিলেন, রাজনীতিতে আর ফিরতে চান না। কিন্তু সেই অবস্থান থেকে সরে আসছেন সোহেল তাজ। 

সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী তানজীম আহমেদ সোহেল তাজ বলেন, “বরাবরই বলে আসছি আমি আওয়ামী লীগে ছিলাম, আছি, থাকবো। নেত্রীর পাশে ছিলাম, গণতন্ত্রের জন্য লড়াই করেছি, পুলিশের মার খেয়েছি। সংসদ সদস্য হিসেবে আমি আমার দায়িত্ব পালন করার চেষ্টা করেছি। তো আমি মনে করি, আওয়ামী লীগ আমার রক্তে, এখানে বাইরে থাকার কোন সুযোগ নেই আমার।”

আওয়ামী লীগের আগামী সম্মেলনে বড় পদ পাচ্ছেন এরকম গুঞ্জন ছড়িয়ে পড়ার পর জানালেন, ছোট-বড় যে কোন পদেই কাজ করতে আগ্রহী তিনি। 

তানজীম আহমেদ সোহেল তাজ বলেন, “আমি কোন পদ-পদবিতে বিশ্বাস করি না। আমার জায়গা থেকে আমি কাজ করে যাচ্ছি। এখন যদি অন্য কোন সুযোগ আসে, যেখান থেকে আমি অবদান রাখতে পারবো। কিন্তু আমার নীতি-আদর্শ বিষার্জন না দিয়ে এবং স্বাধীনভাবে যদি সঠিক কাজ করতে পারি দেশের জন্য ‘দেন আই উইল সিরিয়াস’।”

আগামী নির্বাচন নিয়ে ভাবনার কথাও জানান জাতীয় চার নেতার অন্যতম তাজউদ্দিন আহমেদের পুত্র। বলেন, স্বাধীনতা ও নীতি নিয়েই হবে আগামী রাজনীতির পথ চলা।

তাজউদ্দিন আহমেদের পুত্র বলেন, “বাংলাদেশে একটা সিস্টেমিক চেঞ্চ আসবে।”
এএইচ


Ekushey Television Ltd.

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি