ঢাকা, মঙ্গলবার   ২৭ অক্টোবর ২০২০, || কার্তিক ১২ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

করোনায় ব্রাজিলে মৃতের সংখ্যা ১ লাখ ৪১ হাজার

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১২:২৮ ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ | আপডেট: ১২:৩০ ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০

ব্রাসিলিয়ায় করোনায় মৃত সহকর্মীদের সম্মান জানাচ্ছেন নার্সরা- দ্যা গার্ডিয়ান/ইপিএ

ব্রাসিলিয়ায় করোনায় মৃত সহকর্মীদের সম্মান জানাচ্ছেন নার্সরা- দ্যা গার্ডিয়ান/ইপিএ

ব্রাজিলে সুখবর নেই করোনা পরিস্থিতির। গত একদিনেও সুস্থতার প্রায় দ্বিগুন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে লাতিন আমেরিকার দেশটিতে। এতে করে আক্রান্তের সংখ্যা ৪৭ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। আগের দিনের তুলনায় প্রাণহানি কিছুটা কমলেও মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১ লাখ ৪১ হাজার ছাড়িয়ে গেছে। উন্নতি নেই এ অঞ্চলের পেরু, কলম্বিয়া, চিলি ও আর্জেন্টিনার মতো দেশগুলোতেও।

ব্রাজিলের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ডোমিটার বাংলাদেশ সময় সোমবার দুপুরে বলছে, দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় ১৪ হাজার ১৯৪ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ৪৭ লাখ ৩২ হাজার ৩০৯ জনে দাঁড়িয়েছে। নতুন করে প্রাণ হারিয়েছেন ৩৩৫ জন। এতে করে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১ লাখ ৪১ হাজার ৭৭৬ জনে ঠেকেছে।

অপরদিকে সুস্থতা লাভ করেছেন আরও ৯ হাজার ২৫১ জন। এতে করে মোট সুস্থতার সংখ্যা ৪০ লাখ ৬০ হাজার ৮৮ জনে পৌঁছেছে। 
 
গত ২৬ ফেব্রুয়ারি দেশটির সাও পাওলো শহরে ৬১ বছর বয়সী ইতালি ফেরত এক ব্রাজিলিয়ানের শরীরে ভাইরাসটি প্রথম শনাক্ত হয়। এরপর থেকেই অবস্থা ক্রমেই সংকটাপন্ন হতে থাকে। যেখানে আক্রান্ত ও প্রাণহানির তালিকায় অনেক চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মী রয়েছেন। 

তবে শুধু ব্রাজিলই নয়, করোনার ভয়াবহতা ছড়িয়ে পড়েছে লাতিন আমেরিকার অন্যান্য দেশগুলোতেও। যেখানে পূর্বের তুলনায় ভাইরাসটির প্রকোপ অনেকটা বেড়েছে। এমন অবস্থায় করোনাকে বাগে আনতে দেশগুলোর সরকার মানুষকে ঘরে রাখার চেষ্টা করছে। তবে অর্থনীতির চাকা সচল থাকা নিয়ে সংশয় দেখা দিয়েছে। ফলে সংকটাবস্থার মধ্য দিয়ে ব্রাজিল, পেরু, চিলি, ইকুয়েডর ও আর্জেন্টিনার মতো দেশগুলোতে অনেক কিছুই চালু রয়েছে। 

ব্রাজিলে আক্রান্তদের চিকিৎসা দিতে গিয়ে বেশ বিপাকে পড়েছে চিকিৎসা কেন্দ্রগুলোকে। অপরদিকে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা দ্বিতীয় দফায় করোনা আরও ভয়াবহ রূপ নিতে পারে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও ইউরোপে ধ্বংসযজ্ঞ চালানোর পর এখন ব্রাজিল ভাইরাসটির অন্যতম কেন্দ্রে পরিণত হয়েছে। একই সঙ্গে এ অঞ্চলের অন্যান্য দেশগুলোর মধ্য পেরু, কলম্বিয়া, আর্জেন্টিনা ও  চিলিতেও ভয়াবহ রূপ নিয়েছে ভাইরাসটি।  

এর মধ্যে কলম্বিয়ায় করোনা শনাক্ত হয়েছে ৮ লাখ ১৩ হাজারের বেশি মানুষের দেহে। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ২৫ হাজার ৪৮৮ জনের। পেরুতে আক্রান্ত ৮ লাখ ৫ হাজার ৩০২ জনে দাঁড়িয়েছে। এর মধ্যে প্রাণ হারিয়েছেন ৩২ হাজার ২৬২ জন। আর্জেন্টিনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৭ লাখ ১১ হাজার ৩২৫ জনে দাঁড়িয়েছে। প্রাণ হারিয়েছেন ১৫ হাজার ৭৪৯ জন ভুক্তভোগী। 

এ ছাড়া চিলিতে ৪ লাখ ৫৭ হাজার ৯০১ জন মানুষের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে ১২ হাজার ৬৪১ জনের মৃত্যু হয়েছে।  

এমএস/


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি