ঢাকা, সোমবার   ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯, || অগ্রাহায়ণ ২৫ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার মুখোমুখি লড়াই: কে এগিয়ে?

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৬:৪৪ ৪ জুন ২০১৮ | আপডেট: ১১:৪০ ১৩ জুন ২০১৮

ব্রাজিল আর্জেন্টিনা মুখোমুখি লড়াই মানেই বিশ্বের কোটি কোটি দর্শকদের মধ্যে টান টান উত্তেজনা, রোমাঞ্চ ও বৈরীতা। দু’দলের খেলোয়াররা কেউ কাউকে মাঠে যেমন ছাড় দিয়ে কথা বলে না তেমনি দর্শকরাও প্রতিপক্ষের সমর্থকদের দুয়োধ্বনি দিতে ভুল করে না। এবারের বিশ্বকাপে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা দু্ই দলকেই ফেভারিট ভাবা হচ্ছে।

তবে দর্শকদের কেউ এটা মানতে নারাজ। একদল আর্জেন্টিনাকে ফেভারিট বলতে গিয়ে, ব্রাজিলকে ‘সেভেন আপ’ বলে ক্ষেপিয়ে তুলছে, অন্য দল প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করতে আর্জেন্টিনার জোড়াতালি দিয়ে বিশ্বকাপ উঠাকে অস্ত্র হিসেবে বেছে নিচ্ছে। দুই দলের মুখোমুখি লড়াইয়েও যে তুমুল প্রতিদ্বন্দ্বিতা থাকে পরিসংখ্যানের দিকে চোখ বুলালেই হিসাবটা দেখা যায়।

১৯১৪ সাল থেকে এ পর্যন্ত ১০৮ ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা। পরিসংখ্যান ঘুরে দেখা যায় দুদলের মুখোমুখি লড়াইয়ে আর্জেন্টিনার থেকে কিছুটা এগিয়ে রয়েছে আলভিসিলেস্তারা। এ পর্যন্ত ৪৪ ম্যাচে জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে নেইমার-পেলে-রোনালদোরা। অন্যদিকে ম্যারাডোনা-বাতিস্তুতা-মেসিদের জয় ৩৯টি। ড্র হয়েছে ২৫ ম্যাচে।

১৯১৪ সালের ২০ সেপ্টেম্বর প্রথম ম্যাচে ব্রাজিলকে ৩-১ গোলে হারায় আর্জেন্টিনা। একই বছরের ২৭ সেপ্টেম্বর আর্জেন্টিনাকে ১-০ ব্যবধানে হারিয়ে ব্রাজিল আর্জেন্টিনার দ্বৈরতের ইঙ্গিত দেয় ব্রাজিল। জয়-পরাজয় আর ড্র, শুরু থেকেই দু দলের মধ্যে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হয়েছে। এর ধারাবাহিকতা ধরে রেখেছে মেসি-নেইমাররাও।

দুই দলের সর্বশেষ ১০ ম্যাচে ব্রাজিলের জয় ৪টি। আর্জেন্টিনারও জয় ৪টি। আর ড্র হয়েছে দুটিতে। এতেই বুঝা যায় দুদলের মধ্যে এখনো কে সেরা বা কে এগিয়ে তা বলা যাচ্ছে না। এদিকে বিশ্বকাপে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার মুখোমুখি লড়াইয়ে ৪ ম্যাচের দুটিতেই জয় পেয়েছে ব্রাজিল। অন্যদিকে একটিতে জয় পেয়েছে আর্জেন্টিনা। একটি ম্যাচ অমীমাংসিত রয়েছে। ১৯৯০ সালের পর এ দুই দল বিশ্বকাপে মুখোমুখি হয়নি।

এমজে/

© ২০১৯ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি