ঢাকা, শনিবার   ১৭ এপ্রিল ২০২১, || বৈশাখ ৩ ১৪২৮

রমজানে গর্ভবতী মায়েদের জন্য করণীয় (ভিডিও)  

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২১:০২, ৩০ মে ২০১৮ | আপডেট: ১০:৩১, ৩১ মে ২০১৮

একুশে টেলিভিশনের অত্যন্ত জনপ্রিয় স্বাস্থ্য বিষয়ক অনুষ্ঠান ‘দি ডক্টরস্’। এ অনুষ্ঠানে ‘স্ত্রী রোগ ও রমজান’ বিষয়ে বিভিন্ন পরামর্শ দিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে। অনুষ্ঠানে কথা বলেছেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের গাইনী বিভাগের অধ্যাপক ডা. মুনিরা ফেরদৌসী। স্ত্রী রোগ নিয়ে তিনি যে আলোচনা করেছেন তার চুম্বক অংশ নিচে তুলে ধরা হলো।  

গর্ভবতী অবস্থায় রমজানের রোজা রাখা যাবে কি না বা রোজা রাখলে কোনো সমস্যা হবে কিনা এ বিষয়ে নরীরা বেশি প্রশ্ন করে থাকেন। এ সব বিষয়ে কথা বলেছেন ডা. মুনীরা ফেরদৌসী।

* গর্ভবতী অবস্থাকে আমরা সাধারণত তিনি ভাগে ভাগ করে থাকি। যেমন- প্রথম তিন মাস, দ্বিতীয় তিন মাস ও তৃতীয় তিন মাস। এর মধ্যে প্রথম তিন মাস মায়েদের বমি বমি ভাব থাকে, শরীর জ্বালাপোড়া করে বা অন্য কোনো অস্বস্তিকর অবস্থা দেখা দিতে পারে। এ সময় সাধারণত মায়েদের অবস্থার উপর নির্ভর করবে তিনি রোজা রাখতে পারবেন কি পারবেন না। যদি তিনি এ সময় সুস্থতা অনুভব করেন তাহলে তিনি রোজা রাখতে পারেন।

* গর্ভবতী অবস্থায় থাকা মাকে অবশ্যই নিজের স্বাস্থ্যের পাশাপাশি আনাগত সন্তানের অবস্থা সম্পর্কেও ভাবতে হবে। তাই রোজা রাখতে চাইলে এ সময় আপনার খাবার কি হবে তা ডাক্তারের সাথে পরামর্শ করে নিতে হবে।

* এ সময় মায়েদের ভাজাপোড়া বা অধিক তৈলাক্ত খাবার খাওয়া যাবে না। এতে করে এসিডিটির সমস্যা দেখা দিতে পারে।

* যে সকল মায়েরা রোজা রাখবেন তাদের জন্য প্রচুর পরিমাণে পানি পান করতে হবে এবং পানি জাতীয় খাবার খেতে হবে।

* এ ক্ষেত্রে বাজারে তৈরি করা জুস খাওয়া যাবে না। এ সময় হাতে তৈরি জুস খেতে হবে। এছাড়াও তরমুজ, শশা এবং অন্যান্য ফল খাওয়া যেতে পারে।

* যে সকল মায়েরা সদ্য সন্তান জন্ম দিয়েছেন অথবা সন্তানকে বুকের দুধ দিচ্ছেন তারা যদি রোজা রাখতে চান তাহলে রোজা রাখতে পারেন। তবে এ সময় তারা কি কি খাবেন আর কি কি খাবেন না এ সম্পর্কে ডাক্তারের সাথে পরামর্শ করে নিতে হবে।

এছাড়াও বিস্তারিত জানতে ভিডিওটি দেখুন-

এমএইচ/এসি


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি