ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৭ মে ২০২২, || জ্যৈষ্ঠ ২ ১৪২৯

গাড়ি চালকদের “কর্মচারি” মানতে নারাজ উবার, আদালতে আপিল

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৭:১০, ৩০ অক্টোবর ২০১৮

উবারের অ্যাপ ব্যবহারকারী গাড়ি এবং ট্যাক্সি চালকদের নিজেদের প্রতিষ্ঠানের কর্মচারি মানতে নারাজ উবার। গত বছর যুক্তরাজ্যের শ্রম আদালতের দেওয়া এমন এক রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করেছে রাইড শেয়ারিং প্ল্যাটফর্ম উবার। আজ মঙ্গলবার এবং আগামীকাল বুধবার এ বিষয়ে শুনানী হবে আদালতে।

২০১৬ সালের অক্টোবরে যুক্তরাজ্যের শ্রম ট্রাইবুনাল আদালতে মামলা করেন দুই উবার চালক জেমস ফেরার এবং ইয়াসিন আসলাম। পরবর্তীতে এই মামলার সাথে যুক্ত হন আরও ২৩ জন চালক। তাদের দাবি, তারা যখন উবার অ্যাপ চালু করে কাজ করেন তখন তারা প্রতিষ্ঠানটির কর্মচারি। তবে চালকদের এমন দায়ভার নিতে নারাজ উবার। প্রতিটি চালককে ‘স্বনিয়ন্ত্রিত’ এবং ‘স্বাধীন’ বলে দাই প্রতিষ্ঠানটির।

প্রাথমিকভাবে ট্রাইবুনালও মামলাকারীদের পক্ষে রায় দেন। তবে এই রায়ের বিপক্ষে একই আদালতে আপিল করলে গত বছরের নভেম্বরে উবারের আপিল আবেদন খারিজ করে আদালত। আদালত তার রায়ে জানান, কোন চালক যখন অ্যাপ অন করে কাজ করে তখন সে প্রতিষ্ঠানের সাথে ‘শ্রমিক’ চুক্তি আবদ্ধ থাকেন। এই আইনী প্রক্রিয়ার সর্বশেষ ধাপ হিসেবে উচ্চ আদালতে আপিল করেছে যুক্তরাষ্ট্র ভিত্তিক রাইড শেয়ারিং প্ল্যাটফর্মটি।

চালকদের পক্ষে আদালতে মামলাটি পরিচালনা করছে লেইগ ডে নামক আইনী প্রতিষ্ঠান। প্রতিষ্ঠানটির সহ-কর্ণধার নিগেল ম্যাকে বলেন, “এই মামলা শুধু উবার চালক নয় বরং গিগ অর্থনীতির আওতায় থাকা মিলিয়ন মিলিয়ন শ্রমিক এবং কর্মচারীদের জন্য তাতপর্যপূর্ণ। আমরা আশা করি শ্রমিকদের সার্থ রক্ষা করেই শেষ পর্যন্ত এই মামলার নিষ্পত্তি হবে”।

এ বিষয়ে মামলার বাদী জেমস ফেরার বলেন, “আমরা ট্যাক্সি চালকেরা রায়ের দুই বছর পরেও ন্যায়বিচারের জন্য অপেক্ষা করছি। সরকার যেখানে এমন গুরুত্বপূর্ণ বিষয় এড়িয়ে যাচ্ছে তখন আমাদের শ্রমিকদেরই এই টালমাটাল অবস্থায় কিছু করতে হবে। আশা করি আমরা ন্যায় বিচার পাবো”।

তবে উবার বলছে, শ্রম ট্রাইবুনাল তাদের ব্যবসায়িক কার্যক্রম সম্পর্কে ভুল ব্যাখ্যা করেছে। এক বিবৃতিতে প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে বলা হয়, “প্রায় সকল ট্যাক্সি এবং ব্যক্তিগত ভাড়ায় চালিত গাড়ির চালক কয়েক দশক ধরে স্ব স্ব কর্মস্থলে থেকে এভাবে কাজ করে আসছেন; আমাদের অ্যাপ চালু হওয়ার পর থেকেই। আমরা যেভাবে কাজ করি সে বিষয়ে শ্রম ট্রাইবুনাল ঠিকভাবে বুঝতে পারেনি বলে আমাদের বিশ্বাস”।

প্রসঙ্গত, চালকদেরকে উবারের শ্রমিক পরিচয় দিয়েই যদি শেষ পর্যন্ত রায় দেয় আদালত তাহলে চালকদেরকে নূন্যতম মজুরী এবং বৈতনিক ছুটি প্রদান করতে হবে প্রতিষ্ঠানটিকে। এর জন্য প্রতি চালকের জন্য মাসিক ১৮ হাজার পাউন্ড পর্যন্ত গুণতে হতে পারে উবারের।

সূত্রঃ বিবিসি

//এস এইচ এস//  


Ekushey Television Ltd.

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি