ঢাকা, সোমবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৮ ৩:৫৩:০৭

Ekushey Television Ltd.

ত্বকে ব্রণ হলে কী করবেন : ডা. জাহেদ পারভেজ (ভিডিও)

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৫:৫৬ পিএম, ৭ অক্টোবর ২০১৮ রবিবার | আপডেট: ১০:৫২ এএম, ৯ অক্টোবর ২০১৮ মঙ্গলবার

ব্রণ বা পিম্পল মানুষের একটি সাধারণ রোগ। এ রোগের কারণে অনেকেই অন্যের সামনে দাঁড়াতে বিব্রতবোধ করেন। আসলে এ রোগের কারণ কি? কিভাবে মুক্তি মিলতে পারে এর থেকে। এর আধুনিক চিকিৎসায় বা কি?

এসব নানা ধরণের প্রশ্ন নিয়ে একুশে টেলিভিশনে সরাসরি কথা বলেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সহকারী অধ্যাপক, চর্ম ও যৌন রোগ বিশেষজ্ঞ ডা. জাহেদ পারভেজ বড়ভুঁইয়া। অধ্যাপক ডা. ইকবাল হাসান মাহমুদ এর উপস্থাপনায় ‘দি ডক্টরস’ অনুষ্ঠানে উঠে এসেছে ব্রণ সমস্যার আধুনিক চিকিৎসা বিষয়। যা হুবহু পাঠকের উদ্দেশ্যে তুলে ধরা হলো-

ব্রণ একটা কমন রোগ এটা বলতে পারি। এটা তরুণ-তরুণীরদের মধ্যে বেশি দেখা যায়। তবে মাঝ বয়সী কিছু মানুষের ক্ষেত্রেও এ রোগ দেখা যায়। ব্রণ বিভিন্ন কারণে হতে পারে। তবে এটা তরুণ-তরুণীদের বয়স সন্ধীকালে বাইলোসেবাসিয়াস গ্লান্ডের হাইফার অ্যাক্টিভিটিস শুরু হয়।

তখন হরমনের প্রভাবে এটা হয়। কারো বেশি হয়, কারো কম হয়। আপনি জানেন মুখে আমাদের ব্যাক্টেরিয়া ম্যাগ্নি নামে নরমাল একটা জীবানু থাকে। বাইলোসেবাসিয়াস গ্লান্ডের হাইফার অ্যাক্টিভিটিসের কারণে ওই জীবানুটা দ্রুত বংশ বৃদ্ধি করে।যার কারণে ব্রণ সৃষ্টি হয়। এছাড়া লাইফ স্টাইল ও জেনেটিক কারণেও ব্রণ হয়ে থাকে। অতিরিক্ত কসমেটিক্সের ব্যবহার করার কারণেও এ রোগ হয়ে থাকে।

মুখের এ ব্রণ বা পিম্পল খোটাখুটি না করায় ভালো। কারণ এতে মুখে দাগ হয়ে যেতে পারে। এক্ষেত্রে ডাক্তারের পরামর্শ ছাড়া সস্তা কোন কসমেটিক্সও ব্যবহার করা ঠিক হবে না।

ব্রণ বা পিম্পলের আকার অনুযায়ী এর চিকিৎসা আছে। খুব ছোট ছোট গর্ত হয়ে থাকলে রেডিও ফ্রিকোয়েন্সি মাইক্রোরিডলিঙ্ক নামক একটা ম্যাশিন দিয়ে আমরা রেডিও ফ্রিকোয়েন্সি দেয়। এটি দুই থেকে তিন সপ্তাহ পরপর দেওয়া হয়। যার ফলে গর্ত কমে আসে।

একটু বড় সাইজের গর্ত হলে পানচেকসিশন আমরা করি। লোকাল এনেসিয়া দিয়ে গর্তটা উঠিয়ে এনে কসমেটিক্স স্টিক দেয়। এতে হয়তো দশদিন পর্যন্ত হালকা একটা দাগ হয়। তারপর সেটা পরিপূর্ণভাবে ক্লিন হয়ে যায়।

তবে চিকিৎসায় আমরা শধুমাত্র অ্যান্টিবায়োটিক ওষুধের উপর নির্ভর করি না। এর সঙ্গে ট্রপিক্যাল ক্রিম আমরা দিই। লোশন দেয়। কিছু কসমেটিক্সও আমরা দিয়ে থাকি। তবে কেউ যদি নিয়মিত স্কিনের যত্ন নিতে চায় তবে সে ২০০ এমজি ভিটামিন-ই  খেতে পারে। এতে মুখে বা তকের গ্লেস বেড়ে যায়।

অনুলেখক-রিজাউল করিম

ভিডিও

/ এআর /



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি