ঢাকা, সোমবার   ১৪ জুন ২০২১, || জ্যৈষ্ঠ ৩০ ১৪২৮

বাবা ও বয়ফ্রেন্ডকে পিতৃত্বের স্বাদ দিলেন তরুণী!

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৯:৩৬, ৬ ডিসেম্বর ২০২০ | আপডেট: ১৬:৫৯, ৭ ডিসেম্বর ২০২০

বাবা ও বয়ফ্রেন্ডের সঙ্গে কন্যাসহ স্যাফরন।

বাবা ও বয়ফ্রেন্ডের সঙ্গে কন্যাসহ স্যাফরন।

বাবা গে। বয়ফ্রেন্ড তাঁকে ছেড়ে সঙ্গী হলেন গে-বাবার! অথচ সেই পুরুষ যুগলকেই পিতৃত্বের স্বাদ দিতে অক্লেশে নিজের ডিম্বাণু দিলেন বছর একুশের স্যাফরন। যুক্তরাজ্যের ম্যানচেস্টারেই ঘটেছে এমন ঘটনা।

জানা যায়, স্যাফরনের বাবা ব্যারি ড্রিউইট-বার্লো ব্রিটেনের প্রথম গে-বাবাদের একজন। তাঁর পার্টনারের নাম স্কট হাচিনসন। স্কট মাত্র কয়েকমাস আগে তাঁর মেয়ে স্যাফরনের সঙ্গে 'ডেট'-এ গিয়েছিলেন। তবে ব্য়ারি ও স্কট এখন একটি ফুটফুটে মেয়ের বাবা হয়েছেন। যার নাম ভ্যালেনটিনা। নিজ কন্যা স্যাফরনের এহেন সারোগেসি সৌজন্যকে স্বাগত জানিয়েছেন বাবা ব্য়ারি। স্যাফরন নিজেও অবশ্য ব্যারির সারোগেটেড চাইল্ড।

চলতি বছরের অগস্টেই ব্যারি ও স্কট একসঙ্গে ছুটি কাটাচ্ছিলেন। তখনই তাঁরা পরস্পরের প্রতি আকৃষ্ট হন। অবশেষে সেই সম্পর্ক আরও নিবিড় হলো কন্যাসন্তান প্রাপ্তির মধ্যে দিয়ে।

জানা গেছে, স্যাফরনও তার সমকামী বাবা ব্যারির কন্যা, যিনি টনি নামে এক ব্যক্তির সঙ্গে সমকামিতায় যুক্ত ছিলেন। পরে অবশ্য তাদের সে সম্পর্ক চুকে যায়। 

গত আগস্টে স্যাফরন যখন তার বয়ফ্রেন্ড স্কটকে নিয়ে বাবা ব্যারির সঙ্গে ছুটিতে যান, তখনই তারা একে ওপরের কাছাকাছি আসেন এবং বাগদানও সম্পন্ন করেন। এর একমাস পরেই গত ২১ সেপ্টেম্বর তারা সান ফ্রান্সিসকোর একটি বেসরকারি হাসপাতালে সারোগেসির মাধ্যমে তাদের প্রথম কন্যা ভ্যালেন্টিনাকে স্বাগত জানান। যার ডিম্বাণু সরবরাহ করেন স্যাফরন নিজেই।

মূলত স্যাফরন তার বয়ফ্রেন্ড ও বাবার সম্পর্ক মেনে নেন এবং তাদের জীবনকে সাফল্যমণ্ডিত করতে স্যাফরন নিজেই তাদেরকে ডিম্বাণু অফার করেন। 

এ বিষয়ে ক্লোজার ম্যাগাজিনকে স্যাফরন বলেন, "আমি ভ্যালেনটিনাকে ভালবাসি এবং বাবা ও স্কটকে আরও বেশি বাচ্চা উৎপাদনে সাহায্য করার জন্য আমি আরও ডিম্বাণু দান করতে চাই I আমি মনে হয় না যে, বাবা এই আইডিয়াটা খুব বেশি পছন্দ করেন, কারণ তিনি সন্তানের জৈবিক পিতামহী হবেন এবং স্কট হবে জৈবিক বাবা। তবে আমি সত্যিই তাদেরকে সাহায্য করতে চাই।"

তরুণী আরও বলেন, "আমি ইতিমধ্যে তাদের জন্য আমার ডিম্বাণু হিমায়িত করেছি, শুধু বাবা এবং স্কটের বলার অপেক্ষা। আমরা অনেক মজা করেছি এবং স্কট একজন মজার লোকও বটে। আমার সমস্ত বন্ধুরা তাকে খুব পছন্দও করে। আমরাও বন্ধু হিসাবে অনেক ভাল ছিলাম।"

এর আগে ১৯৯৯ সালে ব্যারি এবং তার প্রাক্তন স্বামী টনি ড্রিভিট-বার্লো প্রথমবার খবরের শিরোনাম হয়েছিলেন। যখন তারা সারোগেসির মাধ্যমে যমজ সন্তানের জন্ম দেন এবং যুক্তরাজ্যের প্রথম সমকামী দম্পতি হিসেবে নিজেরদেরকে প্রতিষ্ঠিত করেছিলেন।

তবে এই জুটি শেষ পর্যন্ত বিয়ের ৩২ বছর পরে বিচ্ছেদ হয়। আর পরে ব্যারি ও স্কট ডেটিং শুরু হয়।

এ বিষয়ে ব্যারি বলেন, "আমি খুব আনন্দিত এজন্য যে, স্কট এবং আমি আমার মেয়ের মাধ্যমেই আরেকটি সন্তানের পিতা হতে পেরেছি! আমরা একটি সারোগেট ব্যবহার করছি এবং প্রথম প্রচেষ্টায় সে (স্যাফরন) গর্ভবতী হয়ে পড়ে। আসলে আমাদের পরিবারে ছেলের সংখ্যাই বেশি এবং খুব বেশি টেস্টোস্টেরনও রয়েছে!

এনএস/


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি