ঢাকা, সোমবার   ২০ জানুয়ারি ২০২০, || মাঘ ৭ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

এরপর বাঁচতে আর ইচ্ছে করছিল না: নেহা কক্কর

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২০:২৮ ১১ ডিসেম্বর ২০১৯

হিমাংশ কোহালির সঙ্গে নেহা কক্করের প্রেম নিয়ে গত বছর মিডিয়া ছিল বেশ সরব। পাপারাৎজিরা তাদের পেছনে ছিল সব সময়। 

তাদের এক সঙ্গে রিয়েলিটি শো-র মঞ্চে দাঁড়িয়ে প্রপোজ থেকে শুরু করে সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট বিনিময় সব মিলিয়ে প্রেম একেবারে জমে ক্ষীর। কিন্তু হঠাৎই ভক্তদের অবাক করে হিমাংশের সঙ্গে বিচ্ছেদের কথা ঘোষণা করেন নেহা। 

ইনস্টাগ্রামে লেখেন, ‘আমি জানি, আমি একজন তারকা। কিন্তু আমিও তো মানুষ। আজ একটু বেশিই ভেঙে পড়েছি। আর তাই আবেগটাকে ধরে রাখতে পারছি না।’

ব্রেক আপের হ্যাংওভার থেকে নাকি কিছুতেই বেরোতে পারছিলেন না নেহা। সম্প্রতি ইন্ডিয়ান আইডলের মঞ্চে নেহা জানান, ‘এমন অবস্থায় পৌঁছে গিয়েছিলেন যে বাঁচার ইচ্ছাই চলে গিয়েছিল তার। সব সময় ডুবে থাকতেন চরম হতাশায়। পাশাপাশি নেহা জানান এখন তিনি অনেকটাই ভাল আছেন। নতুন ভাবে খুঁজে পেয়েছেন জীবনের মানে।’ 

তিনি বলেন, ‘যখনই কেউ আত্মহত্যার মতো চরম সিদ্ধান্ত নিতে যাবেন সে সময় অবশ্যই তাঁর প্রিয়জনদের কথা একবারের জন্য হলেও মনে করা উচিত।’

হিমাংশের সঙ্গে ব্রেক আপের পর মিডিয়াতেও তা নিয়ে কম জলঘোলা হয়নি। নেটিজেনদের প্রশ্নবাণে জর্জরিত নেহা লিখেছিলেন, ‘সবাই এখন এই নিয়ে কথা বলবেন। জানি না কে কী বলবেন? যেগুলো আমি কখনও করিনি সে সব নিয়ে এখন মানুষ চর্চা করবেন। কিন্তু তাতে আমার কিস্যু যায় আসে না। সব কিছু শোনার আর সব কিছু সহ্য করা আমার এখন অভ্যাস হয়ে গিয়েছে।’

নেহার আরও বক্তব্য, ‘কত খারাপ মানুষ আছেন এই দুনিয়ায়। জীবনের সব কিছু দিয়ে দিলাম। আর বদলে কী পেলাম? যা পেলাম তা শেয়ারও করতে চাই না।’

এ দিকে আবার ব্রেক আপ নিয়ে প্রায় এক বছর ধরে মুখে কুলুপ এঁটে থাকলেও সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে নেহা সম্পর্কে মুখ খোলেন হিমাংশ। তিনি বলেন, ‘যা হওয়ার তা হয়ে গিয়েছে। এখন তো আর পরিবর্তন করা যাবে না কিছুই। আমি এখনও ওকে সম্মান করি। ও দুনিয়ায় যা যা চায় তাই যেন পায়। ও ভাল থাকুক, সুস্থ থাকুক।’

এসি
 

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি