ঢাকা, সোমবার   ১৪ জুন ২০২১, || জ্যৈষ্ঠ ৩১ ১৪২৮

করোনা থেকে বাঁচতে দূরে রাখুন চিনি

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২২:৩৮, ১০ জুলাই ২০২০ | আপডেট: ২২:৪০, ১০ জুলাই ২০২০

কম বেশি আমরা সবাই মিষ্টি খেতে পছন্দ করি। বিশেষ করে, খাবার শেষে পাতে একটু মিষ্টি না পড়লে বাঙালীদের মনই যেন ভরতে চায় না। মিষ্টি মানেই অতিরিক্ত চিনি সমৃদ্ধ নানান রকমের খাবারই হতে পারে।

বিশেষজ্ঞদের মতে, প্রত্যেক জিনিসেরই কিছু ভালো দিক রয়েছে, আবার কিছু খারাপ দিক রয়েছে। কিন্তু চিনির কিছু ভালো দিক থাকলেও, খারাপ দিকটা অত্যন্ত বেশি। চিনি শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমিয়ে দেয়, ফলে আমাদের শরীরে নানাবিধ রোগের জন্ম নেয়। 

চিকিৎসকদের মতে, এই করোনার আবহে নিজেদের সুরক্ষিত রাখতে এবং কোভিডের সংক্রমণ এড়াতে নিজস্ব রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা ঠিক রাখা অত্যন্ত জরুরি। তাই, প্রত্যেকের ডায়েটে সুষম খাবারের কথা বারবার উল্লেখ করছেন তাঁরা। সেক্ষেত্রে নিজেদের সুস্থ রাখতে আজই চিনিকে দূরে সরিয়ে দেওয়া অত্যন্ত প্রয়োজন।
চিনি বা মিষ্টি জাতীয় খাবার অতিরিক্ত খেলে বাড়বে ওজন এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাও ধীরে ধীরে কমতে থাকবে, বাড়বে কো-মর্বিডিটির আশঙ্কা। 

আমেরিকান হার্ট অ্যাসোসিয়েশনের রিপোর্ট অনুসারে, সারা বিশ্বে প্রতিদিন চিনি খাওয়ার প্রবণতা চোখে পড়ার মতো বেড়েছে। বিশ্বের প্রায় সিংহভাগ মানুষ প্রতিদিন প্রায় ২২ চামচ চিনি খেয়ে থাকেন, যা বিপদসীমার থেকে অনেকটাই ওপরে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নির্দেশিকা অনুযায়ী, একজন ব্যক্তির দিনে মাত্র পাঁচ গ্রামের বেশি চিনি খাওয়া কখনোই উচিত নয়। চিনি যত কম খাবেন, ততই সুস্থ ও স্বাভাবিক থাকবেন। কিন্তু আমরা সকলেই এই নিয়ম অমান্য করে সকালের চা থেকে শুরু করে ডিনার, সবেতেই মিষ্টিকে উপভোগ করে থাকি। সামান্য অসতর্কতার কারণেই হয়তো আমরা অজান্তে নিজেদের বিপদ নিজেরাই ডেকে আনছি। 

তবে চলুন জেনে নিন, অতিরিক্ত মিষ্টি জাতীয় খাবার খাওয়ার ক্ষতিকারক দিকগুলি-

১) ডায়াবেটিসের আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়: একটি গবেষণায় জানা গেছে, চিনি খাওয়ার মাত্রা যত বাড়ছে, ডায়াবেটিসে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা ততই বৃদ্ধি পাচ্ছে। বিশেষ করে টাইপ-২ ডায়াবেটিসে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বেশি থাকে।
২) ক্যান্সারের ঝুঁকি বাড়ায় একটি গবেষণা অনুযায়ী, মাত্রাতিরিক্ত চিনি বা মিষ্টি জাতীয় খাবার খেলে প্যানক্রিয়েটিক ক্যান্সার (Pancreatic Cancer) হওয়ার ঝুঁকি বেড়ে যায়। পাশাপাশি প্রস্টেট ক্যানসার, ক্ষুদ্রান্তের ক্যানসার, গলা, ফুসফুস, রেক্টাম ও স্তন ক্যান্সারের সম্ভাবনা বেড়ে যায়।
৩) ওজন বাড়ায় মাত্রাতিরিক্ত চিনি খেলে শরীরের ওজন খুব দ্রুত বৃদ্ধি পায়। ওজন বৃদ্ধি পেলেই নানাবিধ রোগের জন্ম নেয়। 
৪) কিডনির রোগ বিশেষজ্ঞদের মতে, চিনি খেলে কিডনির নানা সমস্যা দেখা দিতে পারে। কারণ, চিনি কিডনির কার্যক্ষমতাকে ধীরে ধীরে নষ্ট করে দেয়।
৫) মানসিক অবসাদের আশঙ্কা বৃদ্ধি পায় পাবলিক হেল্থ জার্নালের একটি গবেষণায় দেখা গেছে যে, মাত্রাতিরিক্ত চিনি খেলে মানসিক অবসাদ বা ডিপ্রেশনে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়। কারণ, রক্তে চিনির পরিমাণ বৃদ্ধি হলে মস্তিষ্কের ডোপামিন হরমোনের ক্ষরণ ধীরে ধীরে কমতে থাকে, যা মানসিক উদ্বেগকে বাড়িয়ে তোলে। সূত্র-বোল্ডস্কাই

এসইউএ/এসি

 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি