ঢাকা, বুধবার   ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, || অগ্রাহায়ণ ২৭ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী সীমান্তে বাড়ী নির্মাণে বিএসএফ’র বাঁধা

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি: 

প্রকাশিত : ২২:১৯ ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯

আন্তর্জাতিক সীমান্তের জিরো লাইনে পাকা বাড়ী নির্মাণ করায় বাঁধা দিল ভারতীয় বিএসএফ। ক্ষতিগ্রস্ত বাড়ীর মালিককে সদ্য নির্মাণকৃত বাড়ীঘর ভেঙে ফেলে জিনিষপত্র সরাতে হল অন্যত্র। ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার দুপুরে কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলার কাশিপুর ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী ঠোসবিদ্যাবাগিস গ্রামে।

বিজিবি ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার আন্তর্জাতিক সীমান্ত পিলার ৯৩৯ লাগোয়া ইসলাম হকের পূত্র আতিকুর (২৫) ইটের গাঁথুনি দিয়ে টিনসেডের আধাপাকা ঘর নির্মাণ করে। বিষয়টি ৩৮ বিএসএফ কুর্শারহাট বিওপি জানতে পেয়ে ১৫ বিজিবি লালমনিরহাট গংগারহাট বিওপিকে সীমান্ত সংলগ্ন পাকা ঘরবাড়ী সরিয়ে নেয়ার জন্য তাগিদ প্রদান করে। এরই সুত্র ধরে শনিবার দুপুরে ওই গ্রামে বিজিবি ও বিএসএফ এর উপস্থিতিতে বাড়ীর মালিক আতিকুর ও তার বাবা ইসলাম হক ইট দিয়ে নির্মিত টিনসেডের আধাপাকা বাড়ীঘর ভেঙ্গে ফেলে। এতে আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়ে আতিকুর দিশেহারা।
 
ঠাসবিদ্যাবাগিস গ্রামের ইউপি সদস্য নুর মোহাম্মদ জানান, আতিকুরের অনেক ক্ষতি হয়ে গেল। আমরা সীমান্তের অধিবাসীরা একটু নিরাপত্তা ও ভাল থাকার জন্য সৌন্দর্যময় বাড়ী নির্মাণের চেষ্টা করি। কিন্তু সেটাও ভেস্তে যায়। এই আদিবাড়ী আর জমি ছাড়া আমাদের কিছুই নাই। বিজিবি ও বিএসএফ’র এ বিষয়গুলো সুনজরে দেখা উচিৎ।
 
ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে লালমনিরহাট ১৫ বিজিবি কাশিপুর কোম্পানী কমান্ডার শহিদুল হক জানান, বাড়ীর মালিক নিজে তাদের স্থাপনা ভেঙ্গে অন্যত্র সরিয়ে নিয়েছেন। এসময় ভারতীয় ৩৮ বিএসএফ কুর্শারহাট কোম্পানী কমান্ডার ইন্সপেক্টর এমএস রাতোয়ার ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিলেন।

এ ব্যাপারে লালমনিরহাট ১৫ বিজিবি’র অধিনায়ক লে. কর্ণেল মোঃ আনোয়ার-উল-আলম জানান, আন্তর্জাতিক আইনে সীমান্তের জিরো লাইনে কেউ পাকা স্থাপনা করতে পারবেন না। বিষয়টি আন্তর্জাতিক। 

 আরকে/ 

© ২০১৯ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি