ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৪ জুন ২০২০, || জ্যৈষ্ঠ ২২ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

জাতি কলঙ্কমুক্ত হয়েছে : আইজি প্রিজন

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৮:৫১ ১২ এপ্রিল ২০২০ | আপডেট: ০৯:০৫ ১২ এপ্রিল ২০২০

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অন্যতম খুনি ক্যাপ্টেন (বরখাস্ত) আবদুল মাজেদের ফাঁসি কার্যকর হয়েছে। এ বিষয়ে কারা মহাপরিদর্শক (আইজি প্রিজন) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোস্তফা কামাল পাশা বলেছেন, ‘জাতির পিতার আরও এক খুনির দণ্ড কার্যকর হলো। এতে করে জাতি আরও একবার কলঙ্কমুক্ত হয়েছে।’

শনিবার (১১ এপ্রিল) দিবাগত রাত ১২টা ১ মিনিটে মাজেদের ফাঁসি কার্যকরের পর কেরানীগঞ্জ কেন্দ্রীয় কারাগারে সাংবাদিকদের এ সব কথা বলেন তিনি।

আইজি প্রিজন বলেন, ‘রাত ১২টা ১ মিনিটে ফাঁসি কার্যকর হয়েছে।’

তার দাফন হবে শ্বশুরবাড়ি এলাকা নারায়ণগঞ্জে।

এর আগে, রাত ১১টার দিকে কেন্দ্রীয় কারাগারে প্রবেশ করেন আইজি প্রিজন ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোস্তফা কামাল পাশা। অন্যান্য শীর্ষ কারা কর্মকর্তারাও কারাগারে প্রবেশ করেন। এছাড়া পুলিশ সুপার, সিভিল সার্জন, জেলা প্রশাসনের ম্যাজিস্ট্রেটসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারাও কারাগারে উপস্থিত হন। সবার উপস্থিতিতেই কার্যকর হয় মাজেদের ফাঁসি।

উল্লেখ্য, বঙ্গবন্ধু হত্যায় জড়িত মাজেদ ২৩ বছর ধরে পলাতক থাকলেও ৬ এপ্রিল মধ্যরাতে রিকশায় ঘোরাঘুরির সময় তাকে মিরপুর থেকে গ্রেফতার করে পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) ইউনিট। পরে তাকে ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট (সিএমএম) আদালতে হাজির করে সিটিটিসি। এরপর মাজেদকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন আদালত।

৮ এপ্রিল মৃত্যুর পরোয়ানা পড়ে শোনানোর পর সব দোষ স্বীকার করে রাষ্ট্রপতির কাছে প্রাণভিক্ষা চান আবদুল মাজেদ। প্রাণভিক্ষার আবেদনটি নাকচ করে দেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

এরপর থেকেই শুরু হয় তার ফাঁসি কার্যকরের প্রক্রিয়া। কারাবিধি অনুযায়ী শুক্রবার তার পরিবারের ৫ জন সদস্য শেষ সাক্ষাৎ করেন। আর শনিবার রাতে ফাঁসির দড়িতে ঝোলানো হলো মাজেদকে।
এসএ/
 


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি