ঢাকা, শনিবার   ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০, || ফাল্গুন ১০ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

পরিচালকের বিরুদ্ধে বোমা ফাটালেন বিদ্যা

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১১:৩৭ ২৭ আগস্ট ২০১৯ | আপডেট: ১২:৩৮ ২৭ আগস্ট ২০১৯

বলিউড অভিনেত্রী বিদ্যা বালান। সেরা নায়িকাদের একজন তিনি। কিন্তু এই বিদ্যার জীবনেও রয়েছে কালো অধ্যায়। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে বিদ্যা কাস্টিং কাউচের অভিজ্ঞতার কথা প্রকাশ করলেন। তিনি জানান, যদিও পুরনো কথা, তবে এটি ছিল অত্যন্ত ভয়ংকর ও আতঙ্কের বিষয়।

কিছুদিন আগে মুক্তি পেয়েছে বিদ্যা বালান অভিনীত ‘মিশন মঙ্গল’ সিনেমা। অক্ষয় কুমারের বিপরীতে এ সিনেমাটি বক্স অফিসে দারুণ ব্যবসা করেছে। দর্শকের প্রশংসাও পেয়েছে বেশ। সিনেমা মুক্তির পর এক সাক্ষাৎকরে কাস্টিং কাউচের অভিজ্ঞতা নিয়ে মুখ খোলেন তিনি।

পুরনো কথা মনে করে বিদ্যা বলেন, ‘আমার চেন্নাইয়ের একটা দিনের কথা মনে পড়ছে। সিনেমা নিয়ে কথা বলতে এক পরিচালক আমার সঙ্গে দেখা করতে এসেছিলেন। আমি তাকে বলেছিলাম, চলুন কোনো কফি শপে বসে কথা বলি। কিন্তু তিনি ক্রমাগত আমাকে হোটেল রুমে যেতে বলছিলেন। আমি তখন উঠে আমার ঘরের দরজা-জানালা খুলে দিয়েছিলাম। তার পাঁচ মিনিট পরেই ঘর ছেড়ে বেরিয়ে যান ওই পরিচালক।’

বিদ্যা আরও বলেন, ‘একবার একজন লিখেছিলেন, বিদ্যা যেসব পোশাক পরে তাতে কোনো ব্যবসা তো দূরে থাক, তার ঘরে বসে থাকা উচিত। এই কথাটা আমাকে অনেকদিন তাড়িয়ে বেড়িয়েছিল। আমি সেটা নিয়ে খারাপ স্বপ্ন দেখতাম আর রাগ হত। তবে এখন আর সেই কথাগুলো আমাকে যন্ত্রণা দেয় না।’

বিদ্যা জানান, তামিলে ১২টি সিনেমাতে সুযোগ পেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু সবই হয়েছিল মৌখিক ভাবে। কোনো লিখিত চুক্তি ছিল না বলে অন্য নায়িকাকে নিয়ে বিদ্যাকে সরিয়ে দেয়া হয়েছিল।

তিনি বলেন, ‘আমার বাবা-মা চেন্নাই গিয়ে এক প্রযোজকের সঙ্গে দেখা করেছিলেন। ওই প্রযোজক আমার কয়েকটি ক্লিপ দেখিয়ে বলেছিলেন, ওকে কি কোনো দিক থেকে নায়িকা মনে হয়?’

মায়ের কাছ থেকে এই ঘটনার কথা শুনে প্রায় ছয় মাস আয়নায় নিজের মুখ দেখতে পারেননি বলে জানান বিদ্যা। নিজেকে অত্যন্ত কুৎসিত মনে হয়েছিল তার। কিন্তু সময়ের ব্যবধানে সেই বিদ্যাই এখন বলিউডের সেরা নায়িকাদের একজন।

এসএ/

New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি