ঢাকা, বুধবার   ১২ মে ২০২১, || বৈশাখ ২৮ ১৪২৮

শত্রুতার জের ধরে ঠাকুরগাঁওয়ে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যা

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি 

প্রকাশিত : ২০:৪৬, ২১ এপ্রিল ২০২১

ঠাকুরগাঁওয়ে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে মোজাম্মেল হক (৫০) নামে এক ব্যক্তিকে প্রতিপক্ষরা পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার বড়পলাশবাড়ি ইউনিয়নের বাদামবাড়ি হাটে মঙ্গলবার রাতে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় মোজাম্মেলের দুইভাইকে গুরুতর আহত অবস্থায় বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিক্যাল অফিসার রকিবুল আলম মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেন। নিহত মোজ্জাম্মেলের বাড়ি ওই ইউনিয়নের কইকরি গ্রামে।

আহত আশরাফুল ও বাবুল অভিযোগ করে বলেন, কয়েক বছর আগে প্রতিবেশি লতিফ একই এলাকার এক মেয়ের সাথে প্রেম করে বিয়ে করে। এই বিয়ের ঘটক ছিল মোজ্জামেল। পরে স্বামী-স্ত্রীর ঝগড়া বিবাদের কারণে ওই মেয়ে স্বামীর বাড়ি থেকে বাবার ফিরে চলে যায়। দীর্ঘদিনেও ওই নারী কেন স্বামীর বাড়িতে আসছে না এ বিষয় নিয়ে প্রতিবেশি কামাল হোসেন কয়েকদিন ধরে ঘটক মোজাম্মেলের সাথে বাক-বিতন্ডা চলছিল। পরে স্থানীয় চেয়ারম্যান বিষয়টি নিয়ে আপোষ-মিমাংসা করেন। 

সেই ঘটনা নিয়ে মঙ্গলবার সন্ধ্যার পর কামাল হোসেন ও মোজাজ্ম্মেলের সাথে বির্তকের এক পর্যায়ে হাতাহাতি হয়। এছাড়া জমির বিরোধও ছিল কামাল ও মোজাজ্ম্মেলের সাথে। পরে এ বিরোধকে কেন্দ্র করে কামাল হোসেনের নেতৃত্বে বাদামবাড়ি হাটে মোজাম্মেলকে একা পেয়ে প্রকাশে ধারালো অস্ত্র ও লাঠিসোটা দিয়ে মারধর করে।

এ সময় স্থানীয় লোকজন গুরুতর অবস্থায় মোজাম্মেল ও বাবুলকে উদ্ধার করে প্রথমে বালিয়াডাঙ্গী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পরে জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হলে রাতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান মোজাম্মেল। বুধবার এ রিপোর্ট লেখা অবধি থানায় মামলা হয়নি। তবে প্রস্তুতি চলছিল বলে জানা গেছে।

এ বিষয়ে বড়পলাশবাড়ি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, কামাল হোসেন ও মোজাম্মেলের মধ্যে আগে থেকে কয়েকটি বিষয় নিয়ে দ্বন্দ্ব চলছিলো। 
কেআই//
 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি