ঢাকা, সোমবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৮ ৩:২০:৪৮

Ekushey Television Ltd.

শোবিজ তারকাদের বিশ্বকাপ উন্মাদনা

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০১:০০ পিএম, ১৪ জুন ২০১৮ বৃহস্পতিবার | আপডেট: ০৩:০৮ পিএম, ১৪ জুন ২০১৮ বৃহস্পতিবার

শুরু হচ্ছে বিশ্বকাপ ফুটবল উন্মাদনা। সব ক্রীড়ামোদীর স্রোত এখন রাশিয়ামুখী। ইতোমধ্যে সমর্থকরা যার যার প্রিয় দলের পতাকা-জার্সি তৈরি করে উচ্ছ্বাস জানান দেওয়া শুরু করে দিয়েছেন। পুরো বিশ্ব যেনো মেতেছে অন্যরকম আনন্দে। দেশে দেশে, ঘরে ঘরে, প্রিয় দলের প্রতি সমর্থনের প্রতিযোগিতা শুরু হয়েছে। শোবিজ তারকারাও পিছিয়ে নেই। দেশের বেশ কয়েকজন শোবিজ তারকার বিশ্বকাপ উন্মাদনা নিয়ে তৈরি করা হয়েছে এই প্রতিবেদন-

মৌসুমী

বিশ্বকাপ ফুটবলে আমার বরাবরই প্রিয় দল ব্রাজিল। আমি আশা করছি এ দলটি এবার চ্যাম্পিয়ন হবে। কারণ ব্রাজিলে আছে নেইমারের মতো বিশ্বসেরা খেলোয়াড়। যেকোনো মুহূর্তে খেলার গতি পাল্টে দেয়ার ক্ষমতা আছে তার। এবার নেইমারই আমার প্রিয় খেলোয়াড়।

ওমর সানী

শুধু আমি একা নই। আমার পুরো পরিবার ব্রাজিলের সমর্থক। আমরা সবাই মনেপ্রাণে চাই ব্রাজিল চ্যাম্পিয়ন হোক। নেইমারকে যদিও আমি মেসির মতো বড় খেলোয়াড় মনে করি না, তারপরও সে-ই হচ্ছে ব্রাজিলের বড় অস্ত্র। বিশ্বকাপে ব্রাজিল আমার প্রিয় দল হলেও প্রিয় খেলোয়াড় কিন্তু লিওনেল মেসি।

মিশা সওদাগর

আমার প্রিয় দল অবশ্যই ব্রাজিল। আমি আশা করছি ইনশাআল্লাহ ব্রাজিলই চ্যাম্পিয়ন হবে।

রিয়াজ

ব্রাজিলের খেলা দেখেই বড় হয়েছি। ব্রাজিল মানেই সাম্বার তালে তালে দর্শক মাতানো খেলা। এবার তাদের দলীয় সমঝোতাও খুব ভালো। বিগত বিশ্বকাপগুলোতে ব্রাজিল ভালো করেনি। সুতরাং এবার জিততে তারা মরিয়া।

ফেরদৌস

আমার প্রিয় খেলার তালিকায় ক্রিকেটের পরই আছে ফুটবল। কাজ নিয়ে খুব ব্যস্ত থাকতে হয়। তবু সময় বের করে বিশ্বকাপের খেলাগুলো দেখার চেষ্টা করি। আমি আর্জেন্টিনার সমর্থক। এবারের বিশ্বকাপেও আশা করছি আর্জেন্টিনা ফাইনালে উঠবে। মেসির জাদুতে কাবু হবে বিশ্ব। ক্লাব টুর্নামেন্টগুলোয় মেসি যে অসাধারণ খেলা দেখিয়েছে, এর ৫০ শতাংশ দেখাতে পারলেই বাজিমাত হবে। তবে ব্রাজিলও খুব শক্তিশালী। অনেক দিন ধরেই অপেক্ষা করছি আর্জেন্টিনা বিশ্বকাপ নেবে। এবার সেই স্বপ্ন পূরণ হবে বলেই আমার বিশ্বাস।

জায়েদ খান

আর্জেন্টিনার খেলার কৌশল আমার বেশ ভালো লাগে। বিশ্বকাপে এবার তারা হট ফেভারিট দল। যে দলে মেসি আছে সেই দল তো ফেভারিট হবেই। আমার বিশ্বাস এবার আর্জেন্টিনা বিশ্বকাপ জিতবেই।

পপি

বিশ্বকাপ ফুটবলে আমার প্রিয় দল দুটি। ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনা। এই দুই দলের মধ্যে যে-ই চ্যাম্পিয়ন হবে আমি খুশি। তবে বাংলাদেশ যদি বিশ্বকাপে খেলতো তাহলে অনেক আনন্দ লাগতো। আশা করছি এক দিন আমরাও বিশ্বকাপ ফুটবল খেলবো। আমার প্রিয় খেলোয়াড় মেসি ও নেইমার।

নিপুণ

বিশ্বকাপে আমার প্রিয় দল আর্জেন্টিনা। মূলত ম্যারাডোনার কারণেই আমি আর্জেন্টিনার সমর্থক। আমার দল আর্জেন্টিনাই এবার বিশ্বকাপ জিতবে। আর প্রিয় খেলোয়াড় অবশ্যই মেসি।

বিদ্যা সিনহা মীম

আমার প্রিয় দল ব্রাজিল। এটি শুধু আমার একার পছন্দের নয়। পরিবারের প্রতিটি সদস্যই ব্রাজিলের সমর্থক। আর অপেক্ষা সইছে না। কারণ, ব্রাজিলই বিশ্বকাপ নেবে। তাই খেলা শুরুর অপেক্ষায় আছি।

আরফিন রুমি

আমার অলটাইম ফেভারিট টিম আর্জেন্টিনা। এ দলের খেলা থাকলে মিস করি না। আমার ধারণা এবারের আসর মাতাবেন বিশ্বসেরা খেলোয়াড় মেসি। আর মেসি যদি তার সেরাটা দিতে পারেন তাহলে আর্জেন্টিনাই চ্যাম্পিয়ন হবে। আশা করি আর্জেন্টিনা রাশিয়ার মাটিতে চ্যাম্পিয়ন হবে আর মেসি হবেন সেরা খেলোয়াড়।

এ্যান্ড্রু কিশোর

বরাবরই আমি ব্রাজিলের পক্ষে। আমি চাই এবারের বিশ্বকাপ ট্রফি থাকুক আমার দলের হাতে। আমি ব্রাজিলের সমর্থক সেই ১৯৭৮ সালের বিশ্বকাপ থেকে। আমি মনেপ্রাণে চাই সোনালি ট্রফি ষষ্ঠবারের মতো ব্রাজিলের ঘরে ঠাঁই পাক।

আইয়ুব বাচ্চু

ব্রাজিল ছাড়া অন্য দলের কথা চিন্তাও করতে পারি না। ফুটবল দল মানেই ব্রাজিল। এবার আশা করি বিশ্বকাপ তাদের হাতেই উঠবে। নেইমার সেরা খেলোয়াড় হবেন। এছাড়াও স্পেন, জার্মানি ভালো করবে। তবে আমি চাই বিশ্বকাপ জিতুক ব্রাজিল।

আসিফ

আমার প্রিয় দল ব্রাজিল। এ দলের খেলা হলেই বন্ধু-বান্ধব মিলে খাওয়া-দাওয়া আর জম্পেশ আড্ডা। যেখানেই থাকি না কেন বন্ধুদের নিয়ে খাওয়া-দাওয়ার আয়োজন থাকবে। ব্রাজিল প্রিয় দল হলেও প্রিয় খেলোয়াড় ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো। ল্যাটিন দলগুলোও এবার বিশ্বকাপে ভালো করবে। তবে ব্রাজিলই চ্যাম্পিয়ন হবে আশা করি।

মামুনুর রশীদ

আমি খেলাধুলার দারুণ ভক্ত। বিশ্বকাপ ফুটবল শুরু হবে আর আমি দেখবো না সেটা কি করে হয়! আমি আর্জেন্টিনার সমর্থক। তবে আমার পরিবারে ব্রাজিল আর জার্মানির সমর্থকও রয়েছে।

আফসানা মিমি

পুরো বিশ্বকাপ ফুটবল খেলা দেখার ইচ্ছা আছে। প্রয়োজনে সব কাজ বন্ধ রেখে প্রিয় দলের খেলা দেখবো। নেইমারের জাদু মিস করা যাবে না। এবার চ্যাম্পিয়ন হবে ব্রাজিল। কারণ, এটি যে আমার প্রিয় দল।

নোবেল

অনেক আগে থেকেই আমি ব্রাজিলের সমর্থক। তাদের ফুটবল খেলায় শিল্প থাকে, একটা ছন্দ খুঁজে পাই। তাই ওদের খেলা দেখতেও ভালো লাগে। ফুটবলের সব সৌন্দর্য রয়েছে তাদের খেলায়। আগে বিশ্বকাপ ফুটবল এলেই বন্ধুরা মিলে বড় পর্দায় খেলা দেখার ব্যবস্থা করতাম। এবার কিছু খেলা হয়তো সেভাবে দেখবো। তবে মাঝ রাতের খেলাগুলো ঘরে পরিবারের সঙ্গে দেখবো।

তানভীন সুইটি

আমার প্রিয় দল আর্জেন্টিনা। সেই ছোটবেলা থেকেই এ দলের ভক্ত আমি। এক সময় ছিল ম্যারাডোনা-বাতিস্তুতাদের ম্যাজিক আর এখন মেসির। গত ক্লাব কাপের খেলাগুলোতে ও যা দেখালো তা অব্যাহত থাকলে আমি নিশ্চিত এবার কাপ আর্জেন্টিনার ঘরে।

তারিন

আমার পরিবারের বেশিরভাগই ব্রাজিলের সমর্থক। এ দলের খেলা মানেই বাসায় উৎসব। সবাই একসঙ্গে খাওয়া-দাওয়া, আনন্দ-উল্লাস। ব্রাজিল গোল দিলেই সবাই একসঙ্গে লাফ দিয়ে উঠি। নেইমার আমার প্রিয় খেলোয়াড়। আশা করি ব্রাজিল এবার বিশ্বকাপ জিতবে।

সুমাইয়া শিমু

আমার প্রিয় দল আর্জেন্টিনা। খেলা বোঝার পর থেকেই এ দলের প্রতি আমার দুর্বলতা। বাসায় বসে খেলা দেখতে চাই। তবে নাটকের শুটিং থাকলে স্পটে খেলা দেখবো। এবার যদি আর্জেন্টিনা ফাইনালে ওঠে, তাহলে সবকিছু বাদ দিয়ে খেলা দেখবো। আমি চাই আমার প্রিয় দল শিরোপা জিতুক।

তিশা

যখন থেকে ফুটবল বুঝি তখন থেকেই আর্জেন্টিনার ভক্ত আমি। বিশেষ করে ম্যারাডোনার নাম শুনে শুনে আর্জেন্টিনার ভক্ত হয়ে গেছি। আমার বিশ্বাস এবার আর্জেন্টিনা চ্যাম্পিয়ন হবে। মেসির নেতৃত্বে আর্জেন্টিনা এবার অনেক ব্যালান্সড টিম।

চঞ্চল চৌধুরী

বিশ্বকাপের খেলা আগ্রহের সঙ্গে দেখি। এবারের বিশ্বকাপের খেলাগুলোও দেখার চেষ্টা করবো। বেশিরভাগ খেলা দেখি শুটিংয়ের ফাঁকে। আমি কঠিনভাবে আর্জেন্টিনার সাপোর্টার। প্রিয় দলের সব খেলাই দেখবো। নিজের দল বাদ গেলে খেলা দেখা বাদ দেবো।

জাকিয়া বারী মম

বিশ্বকাপ ফুটবলের বেশিরভাগ খেলাই দেখার চেষ্টা করবো। এবার সবার খেলা খুব স্পিডি এবং ভালো হবে। আমি আর্জেন্টিনার সমর্থক। প্রিয় দল হারার পর ভালো লাগে জার্মানির খেলা।

এসএ/

 



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি