ঢাকা, সোমবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৮ ৪:৪০:৪২

Ekushey Television Ltd.
যৌন হেনস্তা

‘সীমা লঙ্ঘন করেছিলেন অদিতি’

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০১:২৯ পিএম, ১১ অক্টোবর ২০১৮ বৃহস্পতিবার

পুরো বলিউড এখন ‘মি টু’ জ্বরে আক্রান্ত। চলছে যৌন হেনস্তার প্রতিবাদ। নানা পাটেকর ও তনুশ্রী প্রসঙ্গের সঙ্গে একে একে যুক্ত হচ্ছে অসংখ্য তারকার নাম। সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় এ বিষয়ে কথা বলেছেন- কৌতুকশিল্পী অদিতি মিত্তাল। কিন্তু এবার তারই বিরুদ্ধে যৌন হেনস্তার অভিযোগ আনলেন অন্য এক কৌতুকশিল্পী কানিজ সুরখা।

টুইটারে একটি দীর্ঘ চিঠিতে কানিজ অভিযোগ করেছেন, দু’বছর আগে তাকে জোর করে চুমু খেয়েছিলেন অদিতি মিত্তাল।

কানিজের বক্তব্য, ‘একটি কৌতুক অনুষ্ঠানের মঞ্চে উঠে আসেন অদিতি। সেখানে তখন ছিলেন একশ’ জনের মতো দর্শক ও অন্য কৌতুকশিল্পীরা। তাদের সামনেই আচমকা জোর করে আমার ঠোঁটে চুমু দেন অদিতি। তখন আমি মঞ্চেই ছিলাম। আমার অনুমতিও নেননি তিনি।’

ঘটনার পর মিত্তালের সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে কথা বলেন কানিজ। তখন ক্ষমাও চান তিনি। যদিও এরপর অদিতি খারাপ আচরণ শুরু করেন।

টুইটার পোস্টে কানিজ লিখেছেন, ‘প্রত্যেকেরই নিজস্ব পছন্দ ও সীমা রয়েছে। কিন্তু সীমা লঙ্ঘন করেছিলেন অদিতি।’

কানিজ আরও লিখেছেন, ‘হেনস্থার বিরুদ্ধে টুইটারে সোচ্চার হয়েছেন মিত্তল। সেই প্রসঙ্গ তুলে কানিজ লিখেছেন, ‘এ ব্যাপারে গতকালও এক বন্ধুর মাধ্যমে অদিতি মিত্তলের সঙ্গে যোগাযোগ করেছিলাম। অনুরোধ করেছিলাম, আমি নিজের পরিচয় গোপন রাখব, আপনি প্রকাশ্যে ক্ষমা চান। আগে ব্যাপারটি স্বীকার করলেও এবার চুম্বনের বিষয়টি মানতেই চাননি তিনি।’ 

সুরখার অভিযোগের পর ‘মি টু’ ক্যাম্পেনের সত্যতা নিয়ে প্রশ্ন তুলতে পারেন অভিযুক্ত পুরুষরা। তা অনুভব করেই কানিজ মনে করিয়ে দিয়েছেন, পুরুষদের বাঁচানোর জন্য নয়, বরং নিজের মনের কথাই তুলে ধরেছেন।

সূত্র : জি নিউজ

এসএ/



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি