ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ১২ ডিসেম্বর ২০১৯, || অগ্রাহায়ণ ২৮ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

১০ দিন ধরে বন্ধ ঝালকাঠি পৌরসভার কার্যক্রম 

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২১:০৭ ২৩ জুলাই ২০১৯

রাজধানীতে সারাদেশের পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীদের অবস্থান কর্মসূচি পালনের কারণে ১০ দিন ধরে বন্ধ রয়েছে ঝালকাঠি পৌরসভার সকল কার্যক্রম।এতে নাগরিক সুবিধা থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন পৌরবাসী। গত ১০ দিনে ময়লার স্তুপ জমে আছে শহরের বিভিন্নস্থানে।পয়ঃনিস্কাশনেও দূরাবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। জন্মনিবন্ধন সনদ নিতে এসেও ফিরে যাচ্ছেন অনেকে। শিশুর টিকা দিতে না পেরে বিপাকে পড়ছেন অভিভাবকরা। 
    
জানা যায়, রাষ্ট্রীয় কোষাগার থেকে শতভাগ বেতন-ভাতাসহ বিভিন্ন দাবিতে ঢাকায় টানা ১০ দিন ধরে অবস্থান কর্মসূচি পালন করছেন পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। ঝালকাঠি পৌরসভার ৪০ জন কর্মকর্তা-কর্মচারীও এ কর্মসূচিতে অংশ নিয়েছেন। তাঁরা ঢাকায় অবস্থান করায় ঝালকাঠি পৌরসভার সকল কার্যক্রমে স্থবিরতা দেখা দিয়েছে। এতে নাগরিক সেবাসহ সব ধরনের সুযোগ সুবিধা থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন পৌরবাসী। 
    
মঙ্গলবার সকাল ১১টায় ঝালকাঠি পৌরসভায় গিয়ে দেখা যায়, পৌর ভবনের সামনে ময়লা-আবর্জনার গাড়িগুলো সারিবদ্ধভাবে দাঁড়িয়ে আছে। পৌর মেয়র ও কয়েকজন কাউন্সিলর অফিসে থাকলেও অন্য সকল শাখার কক্ষগুলোতে তালা ঝুলছে। 

এসময় নাগরিক সনদ, জন্মনিবন্ধন ও ট্রেড লাইসেন্স করাতে আসা লোকজন কক্ষগুলো তালাবদ্ধ দেখে ফিরে যাচ্ছেন। কেউ আবার পানির বিল পরিশোধ করতে এসে কাউকে না পেয়ে চলে যাচ্ছেন। 
    
পৌরসভার ৮ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা লিলি বেগম এসে ছিলেন তাঁর শিশু সন্তান নিয়ে টিকা দিতে। টিকা প্রদানের কক্ষটি তালাবদ্ধ দেখে হতাশ লিলি বেগম বলেন, আমার এক বছরের ছেলেকে টিকা প্রদানের জন্য এসেছি। এখন দেখছি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা কেউ নেই। এদিকে টিকা দানের সময়ও চলে যাচ্ছে। আমি মারাত্মক সমস্যায় ভুগছি। 
    
কামাল হোসেন নামে এক ব্যবসায়ী বলেন, আমি লাইসেন্স নবায়ণ করতে এসেছি, কিন্তু পৌরসভায় কেউ না থাকায় কাজটা করতে পারিনি। কর্মকর্তা-কর্মচারীরা ঢাকায় আছেন, কবে আসবে তাও জানি না। আমার লাইসেন্স নবায়ণ না থাকায় কোন কাজ করতে পারছি না। 
    
শহরের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা নুরুল ইসলাম বলেন, জাতীয় পরিচয়পত্র তুলতে হলে নাগরিক সনদপত্রের প্রয়োজন হয়। কিন্তু নাগরিক সনদপত্র না পাওয়ায় জাতীয় পরিচয়পত্র তুলতে পারছি না। 
     
এদিকে টানা ১০দিন ধরে পৌরসভার কর্মচারীরা শহরের পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতার কাজ না করায় বিভিন্ন স্থানে ময়লার স্তুপ জমে আছে।এতে ক্ষুব্ধ হয়েছেন পৌরবাসী।অনেক স্থানে ময়লা-আবর্জনার দুর্গন্ধ ছড়িয়ে পড়েছে। 
   
শহরের ডাক্তারপট্টি এলাকার মো. মিলন বলেন, রাস্তায় ময়লা-আবর্জনা জমে আছে।১০ দিনে পৌরসভার কোন কর্মচারীকে এগুলো পরিস্কার করতে দেখিনি। এখান থেকে দুর্গন্ধ ছড়াচ্ছে। খবর নিয়ে জানতে পারলাম, তারা ঢাকায় কর্মসূচি পালন করছেন। অথচ আমারা দুর্গন্ধ সহ্য করছি। 

এদিকে ঝালকাঠি পৌরসভার কয়েকজন কর্মচারী বলেন, আমাদের দাবি মেনে না নেওয়া পর্যন্ত ঢাকা থেকে ফিরবো না। পৌরসভার সকল কার্যক্রম বন্ধ থাকবে। সরকার যদি দাবি মেনে নেয়, তাহলে আমরা ঘরে ফিরে আসবো। পৌরবাসীর অসুবিধার জন্য আমরা দুঃখিত। 
     
ঝালকাঠি পৌরসভার মেয়র লিয়াকত আলী তালুকদার বলেন, পৌর কর্মকর্তা-কর্মচারীদের দাবি যৌক্তিক। আমাদের পৌরসভা থেকে ৪০ জন স্টাফ ঢাকায় অবস্থান কর্মসূচী পালনের জন্য গেছেন। এজন্য সাময়িক অসুবিধা হচ্ছে। 

এনএস/কেআই

© ২০১৯ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি