ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৫ আগস্ট ২০২১, || শ্রাবণ ২০ ১৪২৮

সংক্রমণে ফ্রান্সকে ছাড়িয়ে গেল বাংলাদেশ

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৭:৩০, ৭ জুলাই ২০২০ | আপডেট: ২০:০৩, ৭ জুলাই ২০২০

দেশে ক্রমেই ভয়ংকর হয়ে উঠছে বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাস। সীমিত পরীক্ষার পরও প্রতিদিনই গড়ে ৩ হাজারের বেশি করোনা শনাক্ত হচ্ছে। আর এতে করেই অনেকটা নিয়ন্ত্রণে আসা ইউরোপের ফ্রান্সকেও ছাড়িয়ে গেছে বাংলাদেশ।

ফলে আক্রান্তের তালিকায় এক ধাপ এগিয়ে শীর্ষ ১৭-তে উঠেছে দক্ষিণ এশিয়ার এই দেশ। সংক্রমণ এড়াতে জোন ভিত্তিক কিছু এলাকা লকডাউন করা হলেও, সারা দেশে তুলে নেয়া হয়েছে কড়াকড়ি। চলছে গণপরিবহন, খোলা অফিস ও কল কারখানা। এমন অবস্থায় চলতি মাসের শেষের দিকে করোনা ভয়ংকর রূপ নিতে পারে বলে আশঙ্কা করছেন বিশেষজ্ঞরা। 

মঙ্গলবার (৭ জুলাই) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (মহাপরিচালকের দায়িত্বপ্রাপ্ত) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় ৩ হাজার ২৭ জনের দেহে করোনার সংক্রমণ পাওয়া গেছে। এতে করে আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখ  ৬৮ হাজার ৬৪৫ জনে দাঁড়িয়েছে। প্রাণ গেছে আরও ৫৫ জনের। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত ভাইরাসটিতে ভুগে প্রাণ হারিয়েছেন ২ হাজার ১৫১ জন। যদিও সুস্থ হয়েছেন ৭৮ হাজারের বেশি রোগী। 

অপরদিকে, ফ্রান্সে এখন পর্যন্ত করোনার শিকার ১ লাখ ৬৮ হাজার ৩৩৫ জন। মৃত্যু হয়েছে ২৯ হাজার ৯২০ জনের। আশার কথা হলো, অন্যান্য দেশের তুলনায় প্রাণহানির হার কম বাংলাদেশে। যদিও উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু হয়েছে আক্রান্তের তুলনায় অধিক। 

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের দেয়া তথ্যমতে, এখন পর্যন্ত দেশের ৭৪টি ল্যাবে ৮ লাখ ৭৩ হাজার ৪৮০টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এর মধ্যে গত একদিনে ১৩ হাজার ৪৯১টি। 

এদিকে, দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে আক্রান্ত ও প্রাণহানির শীর্ষে ভারত। যেখানে গত চারদিনেই এক লাখ মানুষ করোনার শিকার হয়েছেন। দেশটিতে প্রতিদিনই প্রায় ২৫ হাজার মানুষ সংক্রমিত হচ্ছেন। এতে আক্রান্তের সংখ্যা ৭ লাখ ছাড়িয়েছে। প্রাণহানি ২০ হাজারেরও বেশি। যদিও বেঁচে ফিরেছেন ৪ লাখের অধিক ভুক্তভোগী। 

এরপরই পাকিস্তান। যেখানে ২ লাখ প্রায় ৩৫ হাজার মানুষ করোনায় ভুগছেন। এর মধ্যে প্রাণহানি ঘটেছে প্রায় ৫ হাজার মানুষের। এরপরই বাংলাদেশ। করোনা নিয়ন্ত্রণে রয়েছে এ অঞ্চলের শ্রীলংঙ্কা, মালয়েশিয়া ও ভুটানের মতো দেশগুলোতে। 

এদিকে আজ মঙ্গলবার বাংলাদেশ সময় দুপুর পর্যন্ত বিশ্বখ্যাত জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্যানুযায়ী, বিশ্বে এখন পর্যন্ত ১ কোটি ১৭ লাখ ৬৪ হাজার ১৫৪ জন মানুষের দেহে হানা দিয়েছে করোনা। এর মধ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় সংক্রমিত হয়েছেন ১ লাখ ৮২ হাজার ৪৫৪ জন। অপরদিকে, গত একদিনে প্রাণ গেছে ৩ হাজার ৬৯২ জনের। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত ভাইরাসটির থাবায় পৃথিবী ছেড়েছেন বিশ্বের ৫ লাখ ৪১ হাজার ২৩০ জন মানুষ। যদিও আক্রান্তদের মধ্যে সাড়ে ৬৭ লাখের বেশি রোগী সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন। 

প্রসঙ্গত, গত বছরের ১৭ ডিসেম্বর চীনের হুবেই প্রদেশের উহান থেকে উৎপত্তি হওয়া প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২১৩টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে। দেশে প্রথম কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হন ৮ মার্চ এবং এ রোগে আক্রান্ত প্রথম রোগীর মৃত্যু হয় ১৮ মার্চ। গত ১১ মার্চ করোনাভাইরাস সংকটকে মহামারী ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)।

এআই//এসি

 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি