ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৯ অক্টোবর ২০২১, || কার্তিক ৩ ১৪২৮

বিএসএফর হাতে আটক ৫ চোরাচালানি

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ১৬:০৪, ১০ জুলাই ২০২০

কুষ্টিয়ার দৌলতপুর সীমান্তের ভারতীয় ভূখণ্ড থেকে মহিষসহ ভারতীয় সীমান্তরক্ষীর (বিএসএফ) হাতে আটক ৫ বাংলাদেশি চোরাচালানিকে সে দেশের জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। 

আজ শুক্রবার সকালে তাদেরকে ভারতের মুর্শিদাবাদ জেলার বহরমপুর জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়। এর আগে ভোররাত সাড়ে ৪টার দিকে বাউশমারী সীমান্ত থেকে তাদের আটক করে বিএসএফ।

আটককৃতরা হলেন, দৌলতপুর উপজেলার রামকৃষ্ণপুর ইউনিয়নের ঠোটারপাড়া গ্রামের নাদের আলীর ছেলে মিঠন আলী (২৫), বগমারী গ্রামের আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে লিটন আলী (৩০), আলিম উদ্দিনের ছেলে আলমগীর হোসেন (২৮), চরপাড়া গ্রামের উকিল মন্ডলের ছেলে বাগু মন্ডল (৫০) ও জীবন সরকারের ছেলে আনন্দ সরকার (২৫)।

স্থানীয় সূত্র জানায়, ৮ বাংলাদেশি বৃহস্পতিবার ভোররাতে ভারত থেকে মহিষ নিয়ে চোরাই পথে বাংলাদেশে ফিরছিল। এ সময়  ভারতের মুর্শিদাবাদ জেলার জলঙ্গী থানার ১৪১ বিএসএফ ব্যাটালিয়ন অধিনস্থ বাউশমারী ক্যাম্পের টহলরত বিএসএফ ধাওয়া করে তাদের। এ সময় তারা ২টি মহিষসহ ৫ জন চোরাচালানিকে আটক করে। তবে দৌলতপুর উপজেলার রামকৃষ্ণপুর ইউনিয়নের চল্লিশপাড়া সীমান্ত এলাকার সিরাজ, আশিক ও বিপ্লব পালিয়ে আসেন। 

খবর পেয়ে ৪৭ বিজিবি ব্যাটালিয়ন অধিনস্থ রামকৃষ্ণপুর বিওপি কমান্ডার বাংলাদেশিদের ফেরত চেয়ে বিএসএফ’র কাছে চিঠি পাঠায়। পরে শুক্রবার সকাল ১০টায় ১৫৭/৫-এস সীমান্ত পিলার সংলগ্ন বাউশমারী-মোহাম্মদপুর সীমান্তের নোম্যন্সল্যান্ডে বিএসফ ও বিজিবির মধ্যে পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। 

বৈঠকে আটকদের ছেড়ে দেওয়ার দাবি জানায় বিজিবি। তবে, তাদের ফেরতের বিষয়টি নাকচ করে দিয়ে বিএসএফ জানায় আটকদের ইতিমধ্যে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।  

এআই//এমবি
 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি