ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৫ এপ্রিল ২০২৪

নড়াইলে সাংবাদিক পরিচয়ে চাঁদাবাজি, গ্রেপ্তার ৩

নড়াইল প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ১০:৫৪, ১৪ জানুয়ারি ২০২৩

নড়াইল সদর উপজেলার আগদিয়া গ্রামের খোকন হুজুরের চিকিৎসা কেন্দ্রে সাংবাদিক পরিচয়ে চাঁদাবাজির ঘটনায় তিনজনকে আটক করে পুলিশে দিয়েছে স্থানীয়রা।

শুক্রবার (১৩ জানুয়ারি) দুপুরে কলোড়া ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে। 

এরা হলেন নড়াইল পৌরসভার ভওয়াখালী এলাকার ওমর আলীর ছেলে রফিকুল ইসলাম, লোহাগড়া উপজেলার আমাদা গ্রামের সরদার রইস উদ্দিন টিপু ও লক্ষীপাশার মনির খান।

এরা সাংবাদিক পরিচয়ে নড়াইলের বিভিন্ন এলাকায় দীর্ঘদিন ধরে চাঁদাবাজি করে আসছিলেন বলে অভিযোগ রয়েছে। এদের দলে আরও পাঁচ থেকে ছয়জন রয়েছেন। 

এ ঘটনায় পেশাদার সাংবাদিকরা বিব্রতকর অবস্থায় পড়ছেন।

এ ঘটনায় তিনজনের নামে মামলা দায়ের করা হয়েছে। মামলার বাদী মাওলানা রউফ সিকদার। তিনি এলাকায় খোকন হুজুর নামে পরিচিত। খোকন হুজুর দীর্ঘ বছর ধরে আয়ুর্বেদিকসহ বিভিন্ন ধরণের চিকিৎসা দিয়ে থাকেন।

মামলার বাদী বলেন, গত কয়েক মাস ধরে নড়াইলের ভওয়াখালী এলাকার রফিকুল ইসলাম সাংবাদিক পরিচয়ে মোবাইল ফোনে বিভিন্ন অঙ্কের চাঁদা দাবি করে আসছিলেন। এরই ধারাবাহিকতায় রফিকুলসহ তিনজন গত শুক্রবার বেলা ১১টার দিকে আমার চিকিৎসা কেন্দ্রে এসে এক লাখ টাকা দাবি করেন। চাঁদা দিতে অস্বীকার করলে ছোঁরা বের করে আমাকে আক্রমণ করে তারা। 

এ সময়ে স্থানীয় লোকজন ও চিকিৎসা নিতে আসা রোগি-স্বজনরা তাদের প্রতিরোধ করেন। পরে পুলিশ এসে তিনজনকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

এ ব্যাপারে রফিকুল ইসলামসহ অভিযুক্তরা দাবি করে বলেন, নিউজের কাজে ওখানে গিয়েছিলাম। আমাদের আটকিয়ে মারধর করা হয়েছে।

নড়াইল সদর থানার ওসি মাহমুদুর রহমান বলেন, এ ঘটনায় তিনজনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা হয়েছে। আসামিদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। তদন্ত করে প্রতিবেদন দেয়া হবে।

এএইচ


Ekushey Television Ltd.


Nagad Limted


© ২০২৪ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি