ঢাকা, রবিবার   ১৮ এপ্রিল ২০২১, || বৈশাখ ৫ ১৪২৮

অবনী প্রথম ‘মিসেস বাংলাদেশ’

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১০:৫৬, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯

‘মিসেস বাংলাদেশ ২০১৯’ প্রতিযোগিতায় বিজয়ী হয়েছেন মুনজারিন অবনী।

শনিবার রাতে গুলশান ক্লাবে প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্বে সেরা দশ প্রতিযোগীকে হারিয়ে মুকুট জয় করে নেন মুনজারিন অবনী।

বাংলাদেশে বিবাহিত নারীদের নিয়ে প্রথমবারের মতো আয়োজিত হলো এই প্রতিযোগিতা।

যেখানে বাছাইয়ের পর দুই হাজারের বেশি নারীকে নিয়ে শুরু হয় এই আয়োজন।

গতকাল (শনিবার) রাতে চূড়ান্ত পর্বে যে সেরা দশ চূড়ান্ত পর্বে লড়েছেন- আফরিন আনিস রহমান, সুমা নুসরাত, মাটি সিদ্দিকী, মনিয়া, আবাফা দিলশা, রুমানা, সনজিদা, রাবেয়া, সামান্তা ও মুনজারিন অবনী।

জানা গেছে, মুকুট অর্জন করেই থামছে না মুনজারিন অবনীর পথ চলা। আগামী নভেম্বরে আমেরিকা মিসেস ওয়ার্ল্ড প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করবেন চ্যাম্পিয়ন অবনী। এমনটাই জানালেন আয়োজকরা।

এমন প্রতিযোগিতা আয়োজনের কারণ উল্লেখ করে আয়োজক অপূর্ব আব্দুল লতিফ বলেন, বাংলাদেশে মেধাবী ও বিবাহিত নারীদের নিয়ে উল্লেখযোগ্য তেমন কিছু হয়নি। সেই তাগিদেই এমন একটা আয়োজন করেছি আমরা। নারী শক্তি ও নারী জাগরণকে একধাপ এগিয়ে দেয়ার লক্ষ্যেই এ আয়োজন।

এই প্রতিযোগিতায় শুরু থেকে অডিশন, গ্রুমিং এবং মোটিভেশনাল সেশনে বিচারক হিসেবে ছিলেন, অভিনেতা ও পরিচালক শহীদুল আলম সাচ্চু, বিউটি এক্সপার্ট সালেহা সারোয়ার, সামিনা সারা, মারিয়া মৃত্তিক, ড. তৌহিদা রহমান ইরিন, আবৃত্তি শিল্পী শিমুল মোস্তফা, গ্রুমিং ইন্সট্রাক্টর কৃষান ভূইয়া, ফ্যাশন ডিজাইনার আজহারুল হক আজাদ, নিমা এহসান, পিয়াল হোসেন, অভিনেতা ও মডেল খালেদ হোসেন সুজন, উপস্থাপিকা ইসরাত পায়েল, ইউথ বাংলা কালচারাল ফোরামের সভানেত্রী মুনা চৌধুরী, ড্যান্স ডিরেক্টর এমডি ফারুখ, বিশিষ্ট নারী উদ্যোক্ত আইরিন ইসলাম, উপস্থাপক জুলহাজ জোবাইয়ের, মডেল কোরিওগ্রাফার লামিয়া আলম, মডেল অভিনেতা অন্তু করিম প্রমুখ।


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি